ফ্যাশনে বিশ্বজয়ের লক্ষ্যে নতুন ব্র্যান্ড হুর

  যুগান্তর ডেস্ক    ১১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্পগোষ্ঠী যমুনা গ্রুপ বাজারে আনল নতুন ফ্যাশন ব্র্যান্ড হুর। প্রাথমিকভাবে নারীদের পছন্দের ফেব্রিক লন বাজারে আনা হয়েছে। পর্যায়ক্রমে সব ধরনের ফেব্রিক আনা হবে। ভবিষ্যতে মধ্যপ্রাচ্য ও ইউরোপে হুরপণ্য রফতানির পরিকল্পনা রয়েছে। রাজধানীর র‌্যাডিসন ব্লু হোটেলে জমকালো এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শুক্রবার ৭ ফেব্রুয়ারি হুর ব্র্যান্ডের উদ্বোধন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। যমুনা গ্রুপের চেয়ারম্যান বিশিষ্ট শিল্পপতি মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন তথ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি, সাবেক তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, যমুনা গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান, সাবেক মহিলা ও শিশুবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম এমপি।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেন, তৈরি পোশাকের মতো এখন আমাদের ফ্যাশন দিয়ে বিশ্বজয়ের সময় এসেছে। পাকিস্তানি, ভারতীয় বা ইউরোপীয় ফ্যাশন নয়- আমাদের ছেলেমেয়েরা আমাদের ফ্যাশনের কাপড় পরবে। তা কিনে বিদেশে নিয়ে যাবে। সে লক্ষ্য নিয়ে এ যাত্রা শুরু হয়েছে। আমরা ফ্যাশনে বিশ্ব জয় করতে পারব বলে আশা করি।

সাবেক তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেন, যেসব নারী কলকাতা, মুম্বাই, মধ্যপ্রাচ্যের দিকে তাকিয়ে থাকেন, তারা নিজের দেশের যমুনা গ্রুপের হুর ফ্যাশনের দিকে এখন চোখ ফেরাবেন। তারা হুরের পোশাক পরে কলকাতা, দিল্লি, মুম্বাইয়ে হাঁটবেন। ওখানকার মেয়েরা তাকিয়ে থাকবেন। আর বাংলাদেশ থেকে হুর অর্ডার করবেন। হুর হবে ফ্যাশনজগতে বাংলাদেশের অর্থনীতির স্বচ্ছতা ও গতিময়তার পরিচায়ক।

যমুনা গ্রুপের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম বলেন, আজ থেকে প্রায় ৩০ বছর আগে যমুনা গ্রুপ অ্যারোমেটিক নামে হালাল সাবান বাজারে আনে। সেসময় যারা সৌদি আরব বা বিদেশে যেতেন তারা সাবানটি সঙ্গে করে নিয়ে যেতেন। এখন হুর নামে যে ব্র্যান্ডটি যমুনা গ্রুপ নিয়ে এসেছে সেটিও মানুষ আনন্দের সঙ্গে গ্রহণ করবে বলে আশা করি। হুর ব্র্যান্ড বাজারে আনার উদ্দেশ্য সম্পর্কে তিনি বলেন, ভারত, পাকিস্তান, মধ্যপ্রাচ্য ও ইউরোপ থেকে দেশে পোশাক আসছে, যা আমাদের দেশের যুব সমাজ গ্রহণ করেছে। সেদিকে লক্ষ রেখে হুর বাজারে আনা হয়েছে, যা দেশের তরুণ-তরুণীদের পছন্দ হবে। ক্রেতাদের জন্য হুর ব্র্যান্ডের পোশাক দামের দিক থেকে সাশ্রয়ী হবে। বিদেশি মুদ্রারও সাশ্রয় হবে, দেশ লাভবান হবে।

অনুষ্ঠানের শুরুতে হুর নামকরণের তাৎপর্য তুলে ধরেন যমুনা গ্রুপের গ্রুপ পরিচালক সুমাইয়া রোজালিন ইসলাম। তিনি বলেন, আমরা সবাই জানি বেহেশতে হুর থাকে। সেখান থেকেই ব্র্যান্ডটির নামকরণ করা। শুরুতে নারীদের পছন্দের ফেব্রিক লন দিয়ে হুর যাত্রা শুরু করছে। বর্তমানে বিভিন্ন দেশ থেকে নানা ক্যাটাগরির লন বাংলাদেশে আসে। এ-গ্রেড, বি-গ্রেড, রেপ্লিকা লন আসছে। এতে ক্রেতারা অনেক ক্ষেত্রে ঠকছেন। ক্রেতাদের হাতে ভালোমানের লন তুলে দিতে যমুনা গ্রুপ বাজারে হুর ব্র্যান্ড এনেছে। তিনি আরও বলেন, দেশের মাটিতে এবং নিজের ফ্যাক্টরিতে হুর ব্র্যান্ডের বিশ্বমানের লন বানানো হবে। বিশ্বের অন্য যে কোনো দেশের লনের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করার মতো কাপড় তৈরি করবে হুর। ভবিষ্যতে মধ্যপ্রাচ্য ও লন্ডনে হুরের লন রফতানি করার পরিকল্পনা রয়েছে হুরের।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন যমুনা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শামীম ইসলাম, গ্রুপ পরিচালক- মনিকা ইসলাম, সারীয়াত তাসরীন, শেখ মোহাম্মদ আবদুল ওয়াদুদ, কামরুল ইসলাম, জাকির হোসেন ও মেহনাজ ইসলাম। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন যুগান্তরের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ও জাতীয় প্রেস ক্লাবের সভাপতি সাইফুল আলম এবং যমুনা গ্রুপের পরিচালক ড. আলমগীর আলম।

জমকালো ফ্যাশন শোতে হুর ব্র্যান্ডের পণ্য প্রদর্শন করেন দেশ-বিদেশের খ্যাতনামা মডেলরা। অনুষ্ঠানের শো স্টপার ছিলেন দুই বাংলার খ্যাতিমান অভিনেত্রী জয়া আহসান।

আরও পড়ুন

'কোভিড-১৯' সর্বশেষ আপডেট

# আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ ৪২৪ ৩৩ ২৭
বিশ্ব ১৬,০৪,৫৩৫ ৩,৫৬,৬৬০ ৯৫,৭৩৪
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত