বাংলাদেশে হারফি’র স্বাদ

  খালেদ সাইফুল্লাহ মাহমুদ ০২ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ফাস্ট ফুডেরও রয়েছে বিশ্বব্যাপী ছড়ানো জনপ্রিয় সব ব্র্যান্ড। বিশ্বের নামিদামি প্রায় সব ব্র্যান্ডেরই ফাস্ট ফুডের শাখা বাংলাদেশে থাকায় ভোজনরসিক মাত্রই এসবের স্বাদ নিতে পারছেন। তবে বিভিন্ন দেশ ও অঞ্চলের ফাস্ট ফুডের চেইন থাকলেও মধ্যপ্রাচ্যের বহুল জনপ্রিয় হারফি নামের ফাস্ট ফুডের স্বাদ থেকে বঞ্চিত ছিল, সেই অপূর্ণতাও এখন পূর্ণতা পেয়েছে ভোজনরসিকদের।

৩৬ বছর ধরে মধ্যপ্রাচ্যে জনপ্রিয় হারফি’র সঙ্গে ব্যবসা করেন বাংলাদেশের এজি মাহফুজুর রহমান মানু। সততা আর দক্ষতায় অল্প দিনেই হারফি’র কর্ণধারের আস্থাভাজন আর বিশ্বস্ত বন্ধুতে পরিণত হন। এক সময় চলে এলেন দেশে। তবে হারফি’র জনপ্রিয়তা আর স্বাদের কথা ভেবে মাঝে মাঝে স্বপ্ন আঁকতেন বাংলাদেশেও যদি হারফি’র শাখা হতো! হারফি’র কর্ণধার ও বন্ধু আহমেদ আল সাইদের সঙ্গে প্রায়ই কথা হয়। বাংলাদেশে ঘুরে গেছেন বন্ধুর আমন্ত্রণে। একদিন কথা প্রসঙ্গে জানালের তার দীর্ঘদিনের লালিত স্বপ্নের কথা, বন্ধুর স্বপ্ন পূরণে সম্মতি দিয়ে দিলেন আহমদ আল সাইদ। গ্রিনল্যান্ড গ্রুপের সহপ্রতিষ্ঠান হিসেবে সেই থেকে হারফি বাংলাদেশে।

দেশি-বিদেশি খাদ্যপ্রেমিদের আনাগোনায় মুখর হারফি’র গুলশান ও বনানী শাখা। শিগগিরই উত্তরা আর ধানমণ্ডিতে নতুন শাখা উদ্ভোধন করবে হারফি।

রন্ধন পদ্ধতি, পরিবেশন ও প্যাকিং সব ক্ষেত্রেই কঠোর মান নিয়ন্ত্রণ করা হয়। অনুসরণ করা হয় কেন্দ্রীয় নির্দেশনা। তাই অকৃত্রিম হারফি’র স্বাদ নিতে পারছেন ভোক্তারা। তারুণ্যের ব্র্যান্ড হারফি বাংলাদেশে তিনি আনলেও পরিচালনার ভার তুলে দিয়েছেন ছেলে ইমতিয়াজ ফায়সালের হাতে। হারফিতে মোট ৫০ ধরনের খাবার রয়েছে। বৈচিত্র্যময় স্বাদের ২০ ধরনের বার্গার।

রয়েছে নাগেট, রাইস মিল, ফ্রাইড চিকেন। নানা রকমের মজাদার আইসক্রিম আর মিল্ক শেক। ছিমছাম সাজানো-গোছানো পরিবেশ, শিশুদের জন্য প্লে-গ্রাউন্ড, আর পারিবারিক আবহে সাজানো হারফি’র আউটলেট। মনোলোভা খাবার সামনে নিয়ে সবান্ধবে আড্ডায় মেতে ওঠার ঠিকানা হারফি বাংলাদেশ।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×