গৌরীপুরে পলাশকান্দা ট্র্যাজেডি দিবস
jugantor
গৌরীপুরে পলাশকান্দা ট্র্যাজেডি দিবস

   

২৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে যুগান্তর স্বজন সমাবেশের উদ্যোগে পলাশকান্দা ট্র্যাজেডি দিবস উপলক্ষে শুক্রবার প্রভাত ফেরি, দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড, চাঁদের হাট অগ্রদূত শাখা ও মুক্তিযোদ্ধারা অনুরূপ কর্মসূচির আয়োজন করেন। গৌরীপুর যুগান্তর প্রতিনিধি মো. রইছ উদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন উপজেলা স্বজন সমাবেশের সহসম্পাদক মো. মিলন। ৭১’র রণাঙ্গন ও পলাশকান্দা ট্রাজেডির ইতিহাস তুলে ধরেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মুক্তিযোদ্ধা আবদুর রহিম ও শহীদ মঞ্জুর ভাই গৌরীপুর প্রেস ক্লাবের সভাপতি ম. নুরুল ইসলাম। বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার মুক্তিযোদ্ধা নাজিম উদ্দিন, তোফাজ্জল হোসেন, মো. আবদুল মান্নান, কাজী নিজাম উদ্দিন চিশতী, প্রদীপ কুমার সরকার, মঞ্জুরুল হক, আবদুল জলিল, তমিজ উদ্দিন, আবদুল করিম, রতন চন্দ্র সরকার, এমদাদ হোসেন, আবদুল গণি, আবদুল করিম, সঙ্গীতের নিকেতনের পরিচালক এমএ হাই, লেখক কার্টুনিস্ট সত্যজিৎ বিশ্বাস, মাওহা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান খসরুজ্জামান বাবুল, পৌর মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সভাপতি কাউসার, মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ইছমত আরা রানু, উপজেলা স্বজন সমাবেশের সহসম্পাদক উজ্জল চন্দ্র চন্দ, সহসাংস্কৃতিক সম্পাদক প্রতিমা রানী সরকার, চায়না রানী সরকার, স্বজন রানা আহাম্মেদ, শাহজাহান প্রমুখ। ১৯৭১-এর এই দিনে ময়মনসিংহের গৌরীপুরে পাক হানাদার বাহিনীর সঙ্গে এক সম্মুখযুদ্ধে পলাশকান্দায় শহীদ হন মুক্তিযোদ্ধা সিরাজ, মনজু, মতি ও জসিম।

মো. রইছ উদ্দিন

গৌরীপুরে পলাশকান্দা ট্র্যাজেডি দিবস

  
২৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে যুগান্তর স্বজন সমাবেশের উদ্যোগে পলাশকান্দা ট্র্যাজেডি দিবস উপলক্ষে শুক্রবার প্রভাত ফেরি, দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড, চাঁদের হাট অগ্রদূত শাখা ও মুক্তিযোদ্ধারা অনুরূপ কর্মসূচির আয়োজন করেন। গৌরীপুর যুগান্তর প্রতিনিধি মো. রইছ উদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন উপজেলা স্বজন সমাবেশের সহসম্পাদক মো. মিলন। ৭১’র রণাঙ্গন ও পলাশকান্দা ট্রাজেডির ইতিহাস তুলে ধরেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মুক্তিযোদ্ধা আবদুর রহিম ও শহীদ মঞ্জুর ভাই গৌরীপুর প্রেস ক্লাবের সভাপতি ম. নুরুল ইসলাম। বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার মুক্তিযোদ্ধা নাজিম উদ্দিন, তোফাজ্জল হোসেন, মো. আবদুল মান্নান, কাজী নিজাম উদ্দিন চিশতী, প্রদীপ কুমার সরকার, মঞ্জুরুল হক, আবদুল জলিল, তমিজ উদ্দিন, আবদুল করিম, রতন চন্দ্র সরকার, এমদাদ হোসেন, আবদুল গণি, আবদুল করিম, সঙ্গীতের নিকেতনের পরিচালক এমএ হাই, লেখক কার্টুনিস্ট সত্যজিৎ বিশ্বাস, মাওহা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান খসরুজ্জামান বাবুল, পৌর মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সভাপতি কাউসার, মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ইছমত আরা রানু, উপজেলা স্বজন সমাবেশের সহসম্পাদক উজ্জল চন্দ্র চন্দ, সহসাংস্কৃতিক সম্পাদক প্রতিমা রানী সরকার, চায়না রানী সরকার, স্বজন রানা আহাম্মেদ, শাহজাহান প্রমুখ। ১৯৭১-এর এই দিনে ময়মনসিংহের গৌরীপুরে পাক হানাদার বাহিনীর সঙ্গে এক সম্মুখযুদ্ধে পলাশকান্দায় শহীদ হন মুক্তিযোদ্ধা সিরাজ, মনজু, মতি ও জসিম।

মো. রইছ উদ্দিন