ডেঙ্গুজ্বর কখন মারাত্মক

  যুগান্তর ডেস্ক    ২৪ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

অন্য জ্বর থেকে ডেঙ্গুজ্বরের পার্থক্য হল জ্বর চলে যাওয়ার ২ দিন পর পর্যন্ত সতর্ক থাকতে হয়। এই দুদিন হল ক্রিটিক্যাল সময় কারণ এ সময় মারাত্মক জটিলতা হয়। প্রথমদিকে বেশি পানি উপকারী হলেও এ সময়ে মিতব্যয়ী হতে হবে। বেশি পান করলে পেটে (এসাইটিস), ফুসফুসে (ইফুশন) পানি জমবে। ২৪ ঘণ্টায় ২ লিটার পানি হলেই চলে। প্রস্রাবের পরিমাণ ও ব্লাড প্রেশার দেখে পরিমাণ নির্ধারণ করা ভালো। পাল্স প্রেশার ২০ এর বেশি রাখতে হবে।

রক্ত ক্ষরণ হলে যদি ব্লাড প্রেশার কমে (সিস্টলিক ১০০ এর নিচে), পাল্স বাড়ে (রেট ১০০ এর বেশি) হিমোগ্লবিন কমে (১০ এর কম, হিমাটক্রিট কম) রক্ত (ব্লাড ফর ব্লাড) দিতে হবে।

ব্লাড প্রেশার কম কিন্তু হিমাটক্রিট বেশি (রক্তক্ষরণ থাকলেও) নরমাল স্যালাইন/হাইপারটনিক স্যালাইন/প্লাসমা এক্সপান্ডার দিতে হবে (কোন মতেই ব্লাড নয়)। ঞুঢ়রপধষ ডেঙ্গুর এগুলোই চিকিৎসা এবং সাধারণ ওয়ার্ডে চিকিৎসা দেয়া সম্ভব। এটিপিক্যাল কেসগুলো মৃত্যুর কারণ; আগে এগুলোকে ডেঙ্গুর উপসর্গ বলা হতো না; ডেঙ্গুতে মৃত্যুর জন্য আনুষঙ্গিক অসুখগুলো যেমন কিডনি, হার্ট, ফুসফুসের অসুখকে দায়ী করা হতো এখন দেখা যাচ্ছে ডেঙ্গুর জন্য ব্রেইন (এনসেফালাইটিস)সহ অন্যান্য অঙ্গগুলোর অসুখগুলো হয়। অনেক ক্ষেত্রেই (বিশেষ করে মাল্টি অরগান ফেইলুর) ইনটেন্সিভ কেয়ারে চিকিৎসা লাগে। ডেঙ্গু চিকিৎসায় প্লাটিলেটের দরকার নেই বললেই চলে। প্রথম থেকেই পানি পান করলে শক সিনড্রোমের মতো জটিলতাগুলো হয় না। সবাইকে ওয়ার্নিং সাইনগুলো সম্পর্কে সতর্ক থাকতে হবে; এটিপিক্যাল ডেঙ্গুর ধারণা রাখতে হবে।

-সুস্থ থাকুন ডেস্ক

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×