রোজায় চাই ফিটনেস

  ডা. মোহাম্মদ আলী ০৯ জুন ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

রোজা
ছবি সংগৃহীত

ফিটনেস থাকার জন্য দরকার মন প্রফুল্ল রাখা, পুষ্টিকর খাবার গ্রহণ ও নিয়মিত হাঁটা-চলা করা। তারাবির নামাজ আদায় প্রসঙ্গে

এ মাসে তারাবি নামাজ পড়তে হয় তাই নামাজের আগে হালকা স্ট্রেচিং করে নেয়া ভালো। এতে নামাজে উঠা-বসায় কোমর বা হাঁটু ব্যথা হওয়ার আশংকা কমে যায়। যারা আগে থেকেই ব্যথার জন্য চেয়ারে বসে নামাজ পড়ছেন তারা ফরজ নামাজ স্বাভাবিক নিয়মে ও অন্য নামাজ চেয়ারে বসে করতে পারেন। এতে শরীরের সবক’টি জয়েন্ট ও মাংসপেশি সচল থাকে ফলে রক্ত সরবরাহ ও স্নায়ু উদ্দীপনা ভালোভাবে হয়।

নামাজের আগে বা পরে ব্যায়াম

নামাজ পড়লে সাধারণত আর ব্যায়ামের প্রয়োজন হয় না। কেউ যদি করতেই চান তবে ১৫-২০ মিনিট জোরে জোরে হাঁটতে পারেন। এ হাঁটা ইফতারের পরে করাই ভালো। ডায়াবেটিস ও হার্টের রোগীরা সকালে খালি পেটে ব্যায়াম করবেন না।

গৃহবধূদের হাত ও পায়ে ব্যথা

রোজায় গৃহবধূদের কাজের পরিমাণ ও ধরন বেড়ে যায়। এ সময় বিভিন্ন রান্না-বান্না ও কাটাকুটিতে হাতের কব্জি ও কনুইয়ে ব্যথা হতে পারে। কব্জিতে সাধারণত কারপাল টানেল সিনড্রোম বা ডিকুয়ারভ্যান সিনড্রোম এবং কনুইয়ে টেনিস এলবো রোগ হতে পারে। বারবার একই হাত দিয়ে একই ধরনের কাজ থেকে ফ্রিকশন হয়ে এ সমস্যা হয়। আবার এ কাজ বন্ধ রেখে হাতকে বিশ্রাম দিতে হবে। চিকিৎসকের পরামর্শে এন্টি ইনফ্ল্যামেটরি ওষুধ ও হাত ইমমোবিলাইজ বা নড়াচড়া বন্ধ করার ব্যান্ড ব্যবহার করতে হবে। বেশিক্ষণ দাঁড়িয়ে বা বসে রান্নাঘরের কাজ করা যাবে না।

কর্পোরেট ওয়ার্কারদের জন্য

এদের যেহেতু দীর্ঘসময় চেয়ারে বসে কাজ করতে হয় তাই প্রতি ঘণ্টায় ৫-১০ মিনিট হাঁটা ভালো। এতে কোমর বা ঘাড় ব্যথা হবে না এবং শরীরের ওপর স্টেস কমবে। ফলে রোজা রাখা সহজ হবে। যারা কোমর ব্যথায় ভুগছেন তারা কাঠের চেয়ার ব্যবহার করতে পারেন। কোমর ব্যথার জন্য ব্যাক এক্সটেনশন এক্সারসাইজ ও হাঁটু ব্যথার জন্য ক্রোয়াডিসেপস এক্সারসাইজ করা যায়।

গর্ভবতীদের রোজা

গর্ভাবস্থায় কোমর ব্যথা ও হাঁটু ব্যথা অন্যতম সমস্যা। ওজন বেড়ে যাওয়া এবং গর্ভস্থ শিশু পেটে চাপ দেয়াতে এ সমস্যা হয়। কোমর ব্যথা পায়ে ছড়িয়ে পড়লে তাকে সায়াটিকা বলে। গর্ভবতীরা মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের ব্যায়াম ইফতারের পরে করবেন।

লেখক : বিভাগীয় প্রধান, ফিজিওথেরাপি বিভাগ, উত্তরা আধুনিক মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×