সেলিনা হোসেনকে শ্রদ্ধা জানিয়ে গান
jugantor
সেলিনা হোসেনকে শ্রদ্ধা জানিয়ে গান

  তারা ঝিলমিল প্রতিবেদক  

১৬ জুন ২০২২, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

বরেণ্য কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেনের ৭৫তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে তার প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন একটি গান তৈরি হয়েছে। ‘বাংলার অহমিকা’ শিরোনামের গানটি লিখেছেন সুজন হাজং। সুর ও সংগীতায়োজনের পাশাপাশি এতে কণ্ঠ দিয়েছেন সুমন কল্যাণ। সম্প্রতি গানটির রেকর্ডিংয়ের কাজ শেষ হয়েছে। প্রকাশের আগেই গানটি শুনেছেন সেলিনা হোসেন। তিনি এ প্রসঙ্গে বলেন, ‘একজন সাহিত্যিকের জীবনে সবচেয়ে বড় পাওয়া হচ্ছে তার সৃষ্টি কর্ম নিয়ে যখন কেউ গবেষণা করে, তথ্যচিত্র বা নাটক সিনেমা নির্মাণ করে। আর আমাকে নিয়েই যে একটি গান তৈরি হলো, এটা আমার জন্য সত্যিই অনেক প্রশান্তির বিষয়। সত্যিই আমি খুব খুশি হয়েছি। গানটি আমি শুনেছি। অনেক ভালো হয়েছে। বিশেষ করে গানের কথামালা সুন্দরভাবে সাজানো হয়েছে। মনে হচ্ছে আমার মনের কথা এগুলো। আমার বিশ্বাস, গানটি শুনলে অনেকেরই ভালো লাগবে।’ এ গান প্রসঙ্গে গীতিকার সুজন হাজং বলেন, ‘সেলিনা হোসেন বাংলা সাহিত্যের একজন জীবনমুখী লেখিকা। তার লেখায় ভাষা আন্দোলন, মুক্তিযুদ্ধ, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর জীবন সংগ্রাম, মানবিকতা, স্বপ্ন ও সমাজ বাস্তবতা খুঁজে পাওয়া যায়। তাকে নিয়ে আমার লেখা এ গানটির মাধ্যমে এই গুণী কথাসাহিত্যকের প্রতি শ্রদ্ধা জানানোর চেষ্টা করেছি।’ সুমন কল্যান বলেন, ‘কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন আমার একজন প্রিয় লেখিকা। তিনি জীবন্ত কিংবদন্তি। তাকে নিয়ে গাইতে পেরে আমি গর্বিত। এ গানটি তার জন্মদিনে আমাদের ভালোবাসার একটি বহিঃপ্রকাশ।’ গতকাল সেলিনা হোসেনের জন্মদিন উপলক্ষ্যে সুজন হাজংয়ের ব্যক্তিগত ইউটিউব চ্যানেলে গানটি প্রকাশ হয়েছে। প্রসঙ্গত, গীতিকার সুজন হাজং এর আগে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে ‘রক্তমাখা সিঁড়ি’ নামে একটি গান লিখে বেশ প্রশংসিত হয়েছেন।

সেলিনা হোসেনকে শ্রদ্ধা জানিয়ে গান

 তারা ঝিলমিল প্রতিবেদক 
১৬ জুন ২০২২, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

বরেণ্য কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেনের ৭৫তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে তার প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন একটি গান তৈরি হয়েছে। ‘বাংলার অহমিকা’ শিরোনামের গানটি লিখেছেন সুজন হাজং। সুর ও সংগীতায়োজনের পাশাপাশি এতে কণ্ঠ দিয়েছেন সুমন কল্যাণ। সম্প্রতি গানটির রেকর্ডিংয়ের কাজ শেষ হয়েছে। প্রকাশের আগেই গানটি শুনেছেন সেলিনা হোসেন। তিনি এ প্রসঙ্গে বলেন, ‘একজন সাহিত্যিকের জীবনে সবচেয়ে বড় পাওয়া হচ্ছে তার সৃষ্টি কর্ম নিয়ে যখন কেউ গবেষণা করে, তথ্যচিত্র বা নাটক সিনেমা নির্মাণ করে। আর আমাকে নিয়েই যে একটি গান তৈরি হলো, এটা আমার জন্য সত্যিই অনেক প্রশান্তির বিষয়। সত্যিই আমি খুব খুশি হয়েছি। গানটি আমি শুনেছি। অনেক ভালো হয়েছে। বিশেষ করে গানের কথামালা সুন্দরভাবে সাজানো হয়েছে। মনে হচ্ছে আমার মনের কথা এগুলো। আমার বিশ্বাস, গানটি শুনলে অনেকেরই ভালো লাগবে।’ এ গান প্রসঙ্গে গীতিকার সুজন হাজং বলেন, ‘সেলিনা হোসেন বাংলা সাহিত্যের একজন জীবনমুখী লেখিকা। তার লেখায় ভাষা আন্দোলন, মুক্তিযুদ্ধ, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর জীবন সংগ্রাম, মানবিকতা, স্বপ্ন ও সমাজ বাস্তবতা খুঁজে পাওয়া যায়। তাকে নিয়ে আমার লেখা এ গানটির মাধ্যমে এই গুণী কথাসাহিত্যকের প্রতি শ্রদ্ধা জানানোর চেষ্টা করেছি।’ সুমন কল্যান বলেন, ‘কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন আমার একজন প্রিয় লেখিকা। তিনি জীবন্ত কিংবদন্তি। তাকে নিয়ে গাইতে পেরে আমি গর্বিত। এ গানটি তার জন্মদিনে আমাদের ভালোবাসার একটি বহিঃপ্রকাশ।’ গতকাল সেলিনা হোসেনের জন্মদিন উপলক্ষ্যে সুজন হাজংয়ের ব্যক্তিগত ইউটিউব চ্যানেলে গানটি প্রকাশ হয়েছে। প্রসঙ্গত, গীতিকার সুজন হাজং এর আগে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে ‘রক্তমাখা সিঁড়ি’ নামে একটি গান লিখে বেশ প্রশংসিত হয়েছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন