শবনম বুবলী

রাজকীয় অভিনেত্রী

শবনম ইয়াসমিন বুবলী। ঢাকাই ছবির আলোচিত চিত্রনায়িকা। যিনি রাজকীয়ভাবে পদার্পণ করেছেন ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে। ক্যারিয়ারে মাত্র দুবছর অতিক্রম হয়েছে। এ সময়েই দর্শক হৃদয়ে স্থান করে নিয়েছেন এ অভিনেত্রী। শুরু থেকে এখন পর্যন্ত কাজ করছেন দেশের নাম্বার ওয়ান নায়ক শাকিব খানের বিপরীতে। বিস্তারিত রয়েছে এ প্রতিবেদনে

প্রকাশ : ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  যুগান্তর ডেস্ক   

শুরুটাই হয়েছে রাজকীয় আমেজে। প্রেক্ষাগৃহে ছবি মুক্তির আগেই তিনি দর্শক আলোচনায় ছিলেন তুঙ্গে। রয়েছেন এখনও। এর কারণ দেশের নাম্বার ওয়ান নায়ক শাকিব খান। তার নায়িকা হয়েই রাজকীয়ভাবে চলচ্চিত্রে অভিষেক বুবলীর। আরও একটি কারণে বুবলীর অভিষেক বেশ জ্বলজ্বলে। ঈদের মতো বড় উৎসবেই তার অভিষেক ছবি মুক্তি পেয়েছে। তাই বুবলীর অভিষেকটাকে ‘রাজকীয় অভিষেক’ বললে মোটেও বাড়িয়ে বলা হবে না। ২০১৬ সালের কোরবানির ঈদে শামীম আহমেদ রনি পরিচালিত ‘বসগিরি’ এবং রাজু চৌধুরী পরিচালিত ‘শুটার’ ছবিতে অভিনয় করে অভিষেকেই বাজিমাত করেন শবনম বুবলী। এ দুই ছবিতেই তার নায়ক ছিলেন শাকিব খান। ছবি দুটিতে অভিনয় করে দর্শক থেকে শুরু করে চিত্র সমালোচকদেরও প্রশংসা কুড়ান বুবলী। সেই ছবি দুটির মাধ্যমে ঢালিউডে রাজকীয়ভাবে পথচলা শুরু করেন এ তন্বী চিত্রনায়িকা। এ সফল অগ্রযাত্রায় সব সময়ই পাশে ছিলেন ঢালিউড কিং শাকিব খান। কারণ এ জুটির অভিনয় রসায়ন এরই মধ্যে দর্শকও দারুণভাবে গ্রহণ করছেন। নির্ভরতার প্রতীক হিসেবে মানিয়েছেও বেশ। তাই নির্মাতারাও এ জুটিকে নিয়ে ছবি নির্মাণে আগ্রহ দেখাচ্ছেন। বলা যায় ঢাকাই ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে নায়িকা বলয়ে চারদিকে এখন শুধু বুবলীরই রাজত্ব।

বুবলীর মিডিয়া অভিযাত্রা শুরু হয়েছিল টেলিভিশনের মাধ্যমে। বেসরকারি একটি টেলিভিশন চ্যানেলের সংবাদ পাঠিকা থেকে আজকের সফল চিত্রনায়িকা বুবলী শুরুতে অবশ্য অভিনয়ে তেমন আগ্রহী ছিলেন না। পরিবারের সম্মতিতে শুধু টেলিভিশনেই সীমাবদ্ধ রেখেছিলেন তার পদচারণা। ইন্ডাস্ট্রির নায়িকা সংকটে দেশের শীর্ষ নায়ক শাকিব খান বুবলীকে অভিনয়ের প্রস্তাব দেন। শুরুতে পরিবার থেকে সম্মতি না মিললেও এক সময় তারা আর বাধা দেননি। ২০১৬ সালের সময়টায় চলচ্চিত্রের নানা সংকটের মধ্যে হঠাৎ আলোকবর্তিকা হয়ে অভিনয় ও গ্ল্যামার দিয়ে দর্শকদের চকম দেন এ নায়িকা। যদিও শাকিব খানের কল্যাণেই বুবলীকে দর্শকরা দেখতে শুরু করেন। এ নিয়ে অবশ্য বুবলীর কৃতজ্ঞতাও রয়েছে।

শুরুর দিকের সময়টা কেমন ছিল? এ প্রশ্নের জবাবে বুবলী বলেন, ‘সংবাদ পাঠিকা হিসেবে কাজ শুরুর পর অনেকে মডেলিং ও নাটকে কাজ করার উৎসাহ দিয়েছেন। অভিনয় করতে আমার মাঝে মধ্যে ইচ্ছা থাকলেও পরিবার থেকে তেমন কোনো সমর্থন পাচ্ছিলাম না। কিন্তু একটা সময়ের পর অবশ্য পরিবারের সবাই সম্মতি দিল।’ অভিষেকের অভিজ্ঞতা প্রসঙ্গে এ নায়িকা বলেন, ‘বসগিরির শুটিং শুরু হয়েছে নায়িকা ছাড়াই। সংবাদমাধ্যমে পড়ছিলাম শাকিব খানের পরবর্তী নায়িকা কে হবে? ব্যাপারটা নিয়ে যতটা আনন্দিত ছিলাম, তার চেয়ে বেশি বিরক্ত লেগেছে। কেবলই মনে হচ্ছিল, কেন যে প্রস্তাবটা এলো? কেনো মা-বাবা রাজি হচ্ছেন না। অবশেষে পরিবারের সবার কাছ থেকে সম্মতি পাওয়ায় স্বস্তি এলো।’

চলচ্চিত্রে আসার আগে কখনই তিনি অভিনয়ের সঙ্গে যুক্ত হননি। বড় বোন গান শিখতেন, তার সঙ্গেই গলা মেলাতেন বুবলী। কিন্তু গানটা ঠিকমতো শেখা হয়নি। তবে গিটার বাজানো শিখছেন এ চিত্রনায়িকা। এসব কিছুই করছেন অভিনয়ের জন্য। অভিনয়ে আরও দক্ষ হওয়ার জন্য নিয়মিত অনুশীলনও করেন তিনি। এ প্রসঙ্গে বুবলী বলেন, ‘এখন তো অভিনয়কেই পেশা হিসেবে নিয়েছি। তাই এ মাধ্যমে যতটা ভালো কাজ করা যায় সেটি আমি করব। কোনো স্ক্রিপ্ট হাতে পাওয়ার পর আমার চরিত্র নিয়ে বাসায় অভিনয় প্র্যাকটিস করি। সিনিয়রদের পরামর্শ নিই। স্ক্রিপ্ট ছাড়াও অভিনয়ের গভীরতা সম্পর্কে জানার চেষ্টা করি।’

‘বসগিরি’, ‘শুটার’, ‘রংবাজ’, ‘অহংকার’ ‘চিটাগাইঙ্গা পোয়া নোয়াখাইল্লা মাইয়া’ এবং অবশেষে ‘ক্যাপ্টেন খান’। সব ছবিতেই বাজিমাত করেছেন। সর্বশেষ গেল ঈদে ‘ক্যাপ্টেন খান’ নিয়ে ছিলেন আলোচনার শীর্ষে। ব্যবসায়িকভাবেও এ ছবিটি সফল। হাতে রয়েছে ‘সুপার হিরো’। আশিকুর রহমান পরিচালিত এ ছবিটির শুটিংও প্রায় শেষের পথে। এসব ছবি প্রসঙ্গে বুবলী বলেন, ‘বরাবরই বলেছি আমি শুরু থেকেই বিগ বাজেটের ছবিতে কাজ করার সুযোগ পেয়েছি। দেশসেরা নায়কের সঙ্গে অভিনয়ের সুযোগ পেয়েছি। তাই আমার ছবিগুলো নিয়ে নতুন করে বলার কিছুই থাকে না। শুধু এটুকু বলব, যেসব ছবিতে অভিনয় করেছি বার করব, সবই আলাদা কিছু। না দেখলে মিস করবেন।’

অন্যদিকে শাহিন সুমন পরিচালিত ‘মাননীয় সরকার একটি প্রেম দরকার’ নামের একটি ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হলেও এ ছবিটির শুটিং আপাতত হচ্ছে না বলেই জানিয়েছেন বুবলী। তার আগে নতুন অন্য একটি ছবির শুটিং শুরু করবেন। পাশাপাশি শাকিব খানের প্রযোজনা সংস্থা থেকে নির্মিতব্য ছবি ‘প্রিয়তমা’র নায়িকাও তিনি।

সিনেমায় অভিনয়ের পাশাপাশি বিজ্ঞাপনেও কাজ করেছেন বুবলী। রোজার ঈদে একটি আড্ডানুষ্ঠানে অংশ নিয়েছিলেন কিং খান ও তিনি। কোরবানির ঈদেও একটি অনুষ্ঠানে তাকে কিং খানের সঙ্গেই দেখা গেছে। তবে ব্যস্ততা এবং ক্যারিয়ার তার চলচ্চিত্র ঘিরেই। চলচ্চিত্র অভিনয় নিয়েই ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা সাজাচ্ছেন বলে জানিয়েছেন এ নায়িকা।

তারা ঝিলমিল প্রতিবেদক