গোপালগঞ্জে সড়কে গেল ১২ প্রাণ

বিভিন্ন স্থানে নিহত আরও ৬

  যুগান্তর ডেস্ক ২১ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

গোপালগঞ্জে সড়কে গেল ১২ প্রাণ

গোপালগঞ্জে বাস-থ্রি হুইলার সংঘর্ষে শিশুসহ ১২ জন নিহত ও ২৩ জন আহত হয়েছেন। ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার হরিদাসপুরের নীমতলায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

এ ছাড়া ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান, বাগেরহাটের রামপালে তিন ও গাজীপুরে কলেজছাত্রী, সাতক্ষীরার শ্যামনগরে এক শিশু নিহত হয়েছে।

গোপালগঞ্জ : প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা পৌনে ৭টায় ঢাকা থেকে খুলনাগামী গোল্ডেন লাইন পরিবহনের একটি বাস গোপালগঞ্জ থেকে আসা চন্দদীঘলিয়াগামী থ্রি-হুইলারের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে বাস ও থ্রি-হুইলার মহাসড়কের পাশে গভীর খাদে পড়ে দুমড়ে-মুচড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই ১২ জন নিহত হন। আহত হন ২৩ জন। নিহতদের পরিচয় পাওয়া যায়নি। গোপালগঞ্জের ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট ও পুলিশ উদ্ধার কাজ শুরু করে। আহতদের গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গোপালগঞ্জ থানার ওসি মনিরুল ইসলাম দুর্ঘটনায় নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া : নাসিরনগর উপজেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় গোকর্ন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. হাসান খাঁ নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে ওই ইউনিয়নের চৈয়ারকুড়িতে এ দুর্ঘটনা ঘটে। পুলিশ জানায়, ব্যাটারিচালিত অটোরিকশায় চৈয়ারকুড়ি যাচ্ছিলেন হাসান খাঁ। পথে একটি সিএনজি অটোরিকশার সঙ্গে ধাক্কা লাগলে আহত হন তিনি। তাকে নাসিরনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। পরে জেলা সদর হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

রামপাল (বাগেরহাট) : খুলনা-মোংলা মহাসড়কের বলিয়াঘাটা স্ট্যান্ডে বৃহস্পতিবার ভোরে বাস দুর্ঘটনায় ৩ জন নিহত ও ২৫ জন আহত হয়েছেন। নিহতদের মধ্যে দু’জনের নাম পরিচয় পাওয়া গেছে। এরা হলেন- মোংলা উপজেলার হেলপার কামরুর ইসলাম, রামপাল উপজেলার তেলিখালী গ্রামের ফেরদাউস হোসেন। রামপাল থানার এসআই মিজানুর রহমান জানান, ঢাকা থেকে মোংলাগামী আল আরাফাত পরিবহনের বাসটির চালক কাটাখালী মোড়ে নেমে যাওয়ার পর হেলপার কামরুল ইসলাম বাসটি চালিয়ে মোংলার দিকে আসছিলেন। ওই সময় বলিয়াঘাটা স্ট্যান্ডে বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সঙ্গে ধাক্কা কায়। এতে বাসটি দুমড়ে-মুচড়ে উল্টে গিয়ে এ হতাহতের ঘটনা ঘটে।

কালীগঞ্জ (গাজীপুর) : কালীগঞ্জে কাভার্ডভ্যান ও মোটরসাইকেল সংঘর্ষে মোটরসাইকেল আরোহী শামীমা শেখ নিহত ও চালক আহত হয়েছেন। শামীমা উপজেলার জামালপুর ইউনিয়নের গোল্লারটেকের সিরাজুল ইসলাম শেখের মেয়ে। সে নরসিংদী সরকারি কলেজের মাস্টার্স ১ম বর্ষের ছাত্রী ও এক সন্তানের জননী। আহত মোটরসাইকেল চালক মাহবুবুর রহমান জামালপুর গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় উপজেলার জামালপুরের গোল্লারটেক চৌরাস্তা স্কুলসংলগ্ন সড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

সাতক্ষীরা : শ্যামনগরে মোটরসাইকেল চাপায় নাঈম নামের এক শিশু নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার সুন্দরবন সিনেমা হলের কাছে এ ঘটনা ঘটে। নাঈম ভুরুলিয়া ইউনিয়নের সিরাজপুর গ্রামের লিটনের ছেলে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×