শপথ নিলেন সংরক্ষিত আসনের এমপিরা

সংসদে জনগণের পক্ষে কথা বলব -অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম

  সংসদ রিপোর্টার ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

সংরক্ষিত নারী এমপি
সংরক্ষিত নারী এমপি হিসেবে বুধবার শপথ নিচ্ছেন অ্যাডভোকেট সালমা ইসলামসহ জাতীয় পার্টির ৪ জন -জাতীয় সংসদ

একাদশ জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনে নির্বাচিত সদস্যরা বুধবার শপথ নিয়েছেন। স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী সকাল সাড়ে ১০টায় জাতীয় সংসদ ভবনের শপথকক্ষে জাতীয় পার্টির অ্যাডভোকেট সালমা ইসলামসহ ৪৯ সদস্যকে শপথ পড়ান।

প্রথমে আওয়ামী লীগ, পরে ওয়ার্কার্স পার্টি, জাতীয় পার্টি ও স্বতন্ত্র সংসদ সদস্যরা শপথ নেন। সংসদ সচিবালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত সচিব আ ই ম গোলাম কিবরিয়া শপথ অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন। শপথ নিয়ে নতুন সদস্যরা শপথ বইয়ে স্বাক্ষর করেন। এরপর তারা ভিআইপি ক্যাফেটেরিয়ায় গিয়ে চা-চক্রে অংশ নেন।

সংরক্ষিত আসনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত নারী সদস্যদের মধ্যে আওয়ামী লীগের ৪৩ জন, জাতীয় পার্টির চারজন, ওয়ার্কার্স পার্টির একজন ও একজন স্বতন্ত্র সদস্য রয়েছেন। বিএনপি-জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সদস্যরা এখনও শপথ নেননি। তাই তাদের জন্য নির্ধারিত একটি সংরক্ষিত আসন এখনও শূন্য আছে।

৩ ফেব্রুয়ারি এ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়। তফসিল অনুযায়ী ১১ ফেব্রুয়ারি ছিল মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন। এদিন ৪৯টি সংরক্ষিত নারী আসনে ৪৯ প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। শনিবার প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন ছিল। এদিন কেউ প্রার্থিতা প্রত্যাহার করেননি। পরে রিটার্নিং কর্মকর্তা এ ৪৯ জনকে নির্বাচিত ঘোষণা করেন।

যারা শপথ নেন তাদের মধ্যে আওয়ামী লীগের ৪৩ জন হলেন- ঢাকার শিরীন আহমেদ, জিন্নাতুল বাকিয়া, শবনম জাহান শিলা, সুবর্ণা মোস্তফা ও নাহিদ ইজহার খান, চট্টগ্রামের খাদিজাতুল আনোয়ার ও ওয়াশিকা আয়েশা খানম, কক্সবাজারের কানিজ ফাতেমা আহমেদ, খাগড়াছড়ির বাসন্তী চাকমা, কুমিল্লার আঞ্জুম সুলতানা ও এ্যারোমা দত্ত, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উম্মে ফাতেমা নাজমা বেগম, গাজীপুরের শামসুন্নাহার ভূঁইয়া ও রুমানা আলী, বরগুনার সুলতানা নাদিরা, জামালপুরের মিসেস হোসনে আরা, নেত্রকোনার হাবিবা রহমান খান ও জাকিয়া পারভীন খানম, পিরোজপুরের শেখ এ্যানী রহমান, টাঙ্গাইলের অপরাজিতা হক ও খন্দকার মমতা হেনা লাভলী, সুনামগঞ্জের শামীমা আক্তার খানম, মুন্সীগঞ্জের ফজিলাতুন্নেছা, নীলফামারীর রাবেয়া আলী, নরসিংদীর তামান্না নুসরাত বুবলী, গোপালগঞ্জের নার্গিস রহমান, ময়মনসিংহের মনিরা সুলতানা, ঝিনাইদহের খালেদা খানম, বরিশালের সৈয়দা রুবিনা মিরা, পটুয়াখালীর কানিজ সুলতানা, খুলনার অ্যাডভোকেট গ্লোরিয়া ঝর্ণা সরকার, দিনাজপুরের জাকিয়া তাবাসসুম, নোয়াখালীর ফরিদা খানম সাকী, ফরিদপুরের রুশেমা বেগম, কুষ্টিয়ার সৈয়দা রাশেদা বেগম, মৌলভীবাজারের সৈয়দা জোহরা আলাউদ্দিন, রাজশাহীর আদিবা আনজুম মিতা, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ফেরদৌসী ইসলাম জেসী, শরীয়তপুরের পারভীন হক শিকদার, রাজবাড়ীর খোদেজা নাসরীন আক্তার হোসেন, মাদারীপুরের তাহমীনা বেগম, পাবনার নাদিয়া ইয়াসমিন জলি ও নাটোরের রত্না আহমেদ।

জাতীয় পার্টির চারজন হলেন- সাবেক মহিলা ও শিশুবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী, দলটির প্রেসিডিয়াম সদস্য, মহিলা পার্টির সভানেত্রী অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম, অধ্যাপিকা মাসুদা এম রশিদ চৌধুরী, অধ্যক্ষ রওশন আরা মান্নান ও নাজমা আকতার। অন্যদিকে ওয়ার্কার্স পাটির লুৎফুন নেসা খান ও স্বতন্ত্র সেলিনা ইসলাম।

জঙ্গি-মাদক-সন্ত্রাস-দুর্নীতির বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থান নারী সংসদ সদস্যদের : জাতীয় সংসদে জনগণের পক্ষে কথা বলার প্রত্যয় জানিয়েছেন সংরক্ষিত নারী আসনের নবনির্বাচিত সংসদ সদস্যরা। তারা বলছেন, জাতির জনকের স্বপ্ন বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে কাজ করে যাবেন তারা। প্রধান বিরোধী দল জাতীয় পার্টির সদস্যরা বলছেন, সরকার জনগণের পক্ষে কাজ না করলে তার বিরুদ্ধে সরব থাকবেন সংসদে। পাশাপাশি জঙ্গিবাদ, মাদক, সন্ত্রাস ও দুর্নীতির বিরুদ্ধেও সোচ্চার থাকবেন তারা। বুধবার শপথ নেয়ার পর দেয়া তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় এমন কথাই বলেছেন সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্যরা।

শপথ অনুষ্ঠান শেষে জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম বলেন, তৃতীয়বারের মতো সংসদে এসেছি। আমরা এখন সংসদে বিরোধী দলে আছি। সংসদে আমরা সরকারের ভালো কাজকে ভালো বলব, খারাপ কাজের বিরোধিতা করব। জনগণের পক্ষে কথা বলব। আমার বিশ্বাস এ সংসদ জনগণের আশা-আকাঙ্ক্ষা ও প্রত্যাশা পূরণ করবে।

অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম এ সময় জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান। পাশাপাশি অভিনন্দন জানান প্রধানমন্ত্রী ও স্পিকারকেও। তিনি বলেন, এ নিয়ে চারবারের মতো প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পেয়েছেন শেখ হাসিনা। তাকে অভিনন্দন জানাই। আমাদের স্পিকারও তৃতীয়বারের মতো নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি দেশের নারীদের মুখ উজ্জ্বল করেছেন। নারীর ক্ষমতায়নে তাদের দু’জনেই প্রশংসনীয় ভূমিকা রেখেছেন। তাদের অভিনন্দন জানাই।

তিনি আরও বলেন, আমরা সংসদের বিরোধী দল। তাই বিরোধী দলের ভূমিকাই আমরা পালন করব। আমি জনগণের কথা বলার জন্য সবসময় প্রস্তুত। জঙ্গি, মাদক, সন্ত্রাস, দুর্নীতি- এরাই আমার দেশের শত্রু, আমার শত্রু। আমার বাংলার জনগণ আমার মিত্র। তাই তাদের পক্ষে কাজ করব।

আওয়ামী লীগ থেকে নারী এমপি হিসেবে শপথ নেয়া হোসনে আরা বলেন, ভালো লাগছে, তা তো দেখতেই পাচ্ছেন। সংসদে আসার সুযোগ পেয়েছি, জনগণের সেবা করব। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে যেখানে ঝাঁপিয়ে পড়া দরকার, পড়ব। আমরা রাজপথের লড়াকু সৈনিক। পিছু হটতে জানি না।

সংরক্ষিত মহিলা আসনে আওয়ামী লীগের আরেক নারী এমপি অপরাজিতা হক তাকে মনোনয়ন দেয়ায় দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান। তিনি বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে যা কিছু করা প্রয়োজন, তার সবই করব। তিনি বলেন, সংসদে মানুষের কথা বলব। এ সরকার নারীবান্ধব, নারীর ক্ষমতায়নের জন্য অনেক কিছু করেছে। আমিও নারীর ক্ষমতায়নের জন্য কাজ করতে চাই।

আওয়ামী লীগের সংরক্ষিত মহিলা এমপি হিসেবে মনোনয়ন দেয়ায় দলটির সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানান সুবর্ণা মোস্তফা। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাই। তিনি আমার ওপর আস্থা রেখে আমাকে এমপি বানিয়েছেন। আমি আমার ওপর অর্পিত দায়িত্ব নিষ্ঠার সঙ্গে পালন করব।

অভিনেত্রী হিসেবে নব্বইয়ের দশক থেকেই মানুষের মনে স্থান করে নিয়েছেন সুবর্ণা মুস্তাফা। এবার জাতীয় সংসদে গিয়ে মানুষের জন্য কথা বলতে চান, কাজ করতে চান। তিনি বলেন, সংসদে জনগণের পক্ষেই কথা বলব, উন্নয়নের জন্য কথা বলব। আমার ওপর যে দায়িত্ব পড়বে, তা পূরণ করব। সন্ত্রাস, দুর্নীতি, মাদক, জঙ্গিবাদ ও জামায়াত-শিবিরের বিরুদ্ধে আমার বলিষ্ঠ পদক্ষেপ থাকবে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×