সড়কে দুই শিক্ষার্থীসহ ৭ জনের প্রাণহানি

  যুগান্তর ডেস্ক ২৬ মার্চ ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

সড়ক দুর্ঘটনা
সড়ক দুর্ঘটনা। প্রতীকী ছবি

দেশের ছয় জেলার সড়কে ঝরল আরও দুই শিক্ষার্থীসহ সাত প্রাণ। এ ছাড়া আরও দুই জেলায় আহত হয়েছেন অন্তত ১৫ জন। রোববার সন্ধ্যা থেকে সোমবার সন্ধ্যা পর্যন্ত এসব ঘটনা ঘটে।

এর মধ্যে রাজধানীর শেওড়াপাড়ায় তেঁতুলিয়া পরিবহনের একটি বাসের ধাক্কায় এক মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন। চট্টগ্রামে হবু বরের সঙ্গে বেড়াতে গিয়ে প্রাইভেট কার দুর্ঘটনায় মারা গেছেন শিক্ষার্থী তরুণী। লক্ষ্মীপুরে মায়ের সঙ্গে ডাক্তার দেখাতে এসে অটোরিকশার চাপায় প্রাণ গেছে শিশুর। চুয়াডাঙ্গায় স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার সময় ট্রাকচাপায় দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্রীর মৃত্যু হয়েছে।

এদিকে ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলায় নির্বাচনী খবর সংগ্রহ করে মোটরসাইকেলে ফেরার সময় ট্রাকের ধাক্কায় দুই সাংবাদিক আহত হয়েছেন। যুগান্তর রিপোর্ট, ব্যুরো ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

ঢাকা : রাজধানীর মিরপুরের শেওড়াপাড়ায় তেঁতুলিয়া পরিবহনের একটি বাসের ধাক্কায় এক মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন। তার নাম নুরুল ইসলাম শান্ত। এ ঘটনায় ওই বাস ও চালককে আটক করা হয়েছে। আটক চালকের নাম সাইফুল ইসলাম। নিহত শান্ত মোটর মেকানিক ছিলেন।

ওয়ান ব্যাংকের গাড়ির গ্যারেজে কাজ করতেন তিনি। স্ত্রী রেশমা ও দুই বছরের ছেলেকে নিয়ে থাকতেন মগবাজারের ভাড়া বাসায়। শান্তর আত্মীয় জাহাঙ্গীর আলম বলেন, সকালে বাসা থেকে বেরিয়ে মনিপুরি পাড়ায় কর্মস্থলে যান শান্ত। সেখান থেকে মোটরসাইকেলের কাগজপত্রের কাজে মিরপুরে বিআরটিএ কার্যালয়ে যাওয়ার পথে দুর্ঘটনায় পড়েন।

খবর পেয়ে দুই বছরের শিশুসন্তানকে নিয়ে ঘটনাস্থলে যান স্ত্রী রেশমা। স্বামীকে হারিয়ে তিনি বিলাপ করতে থাকেন। একমাত্র সন্তানের বাবা বাবা ডাকে ভারি হয়ে ওঠে পরিবেশ। এ সময় উপস্থিত লোকজনের চোখেও পানি এসে যায়। এ ঘটনায় নিহতের চাচা বাদী হয়ে তেঁতুলিয়া পরিবহনের চালককে আসামি করে মিরপুর থানায় মামলা করেছেন। মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখিয়েছে পুলিশ।

চট্টগ্রাম : হবু বরের সঙ্গে পতেঙ্গা সমুদ্রসৈকতে বেড়াতে গিয়ে ফেরার সময় প্রাইভেট কার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়ক বিভাজকে ধাক্কা খেলে এক তরুণী নিহত হন। রোববার রাত সাড়ে ১১টার দিকে নগরীর পতেঙ্গা থানার বোট ক্লাবের সামনে এ ঘটনা ঘটে। এতে প্রাইভেট কারে থাকা হবু বর ও তার বন্ধু আহত হয়েছেন। নিহত তরুণীর নাম যারিন জাহরা (২০)।

তিনি নগরীর চান্দগাঁও আবাসিক এলাকার ৯ নম্বর রোডের তিন নম্বর ব্লকের বাসিন্দা আবুল কালামের মেয়ে। যারিন ইস্ট ডেল্টা ইউনিভার্সিটির কম্পিউটার সায়েন্স বিভাগের দ্বিতীয় সেমিস্টারের ছাত্রী ছিলেন। চন্দনাইশ উপজেলার এলাহাবাদ এলাকার ইফতেখার আহমেদ জিসানের সঙ্গে তার বিয়ের কথাবার্তা হয়েছিল।

উভয় পরিবারের লোকজনের উপস্থিতিতে বিয়ের দিনক্ষণ চূড়ান্ত হওয়ার কথা ছিল শিগগির। তার আগেই যারিন চলে গেলেন না ফেরার দেশে। চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চামেক) হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির এএসআই আলাউদ্দিন তালুকদার সোমবার যুগান্তরকে বলেন, প্রাইভেট কারটি চালাচ্ছিলেন ইফতেখারের এক বন্ধু। তিনিও আহত হয়েছেন।

পতেঙ্গা থানার এসআই আমিরুল ইসলাম জানান, যারিনের বাবা-মা চিকিৎসার জন্য কয়েকদিন আগে ভারত যান। মেয়ের মৃত্যুর খবর শুনে তারা সোমবার ভারত থেকে দেশে ফেরেন। বিকাল ৩টার দিকে ময়নাতদন্ত ছাড়াই তারা লাশ নিয়ে গেছেন। এদিকে নগরীর চান্দগাঁও এলাকায় বাস থেকে পড়ে মো. সাকিব (১৮) নামে গাড়ির এক হেলপার নিহত হয়েছেন। সোমবার সকাল ৯টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। সাকিব নোয়াখালীর হাতিয়ার মো. বেলালের ছেলে।

জীবননগর (চুয়াডাঙ্গা) : জীবননগর-চুয়াডাঙ্গা সড়কের মনোহরপুর আখ সেন্টারের সামনে ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে এক স্কুলছাত্রী ঘটনাস্থলেই নিহত হয়েছে। নিহত জুঁই (৭) মনোহরপুর গ্রামের সিএনজিচালক জসিম উদ্দিনের মেয়ে। সোমবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। জুঁই মনোহরপুর ব্র্যাক স্কুলের দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্রী ছিল। এ সময় সে স্কুল থেকে বাড়ি ফিরছিল।

এদিকে দুর্ঘটনার পর বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী মহাসড়কে কাঠের গুঁড়ি ফেলে অবরোধ করে বিক্ষোভ করেন। প্রায় ১ ঘণ্টা বিক্ষোভের ফলে সড়কের উভয় পাশে বহু যানবাহন আটকা পড়ে। পরে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

লক্ষ্মীপুর : মায়ের সঙ্গে রাস্তা পার হওয়ার সময় অটোরিকশার চাপায় ঝর্ণা (৭) নামে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। সোমবার দুপুরে জেলা সদর হাসপাতালের সামনের সড়কে এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, নিহত ঝর্ণা সদর উপজেলার টুমচর গ্রামের মো. স্বপনের মেয়ে। তাকে ডাক্তার দেখাতে সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন মা মাহমুদা বেগম। ডাক্তার দেখানোর পর শিশুটিকে নিয়ে হাসপাতালের সামনের রাস্তা পার হচ্ছিলেন তিনি।

এ সময় বেপরোয়া অটোরিকশার চাপায় ঘটনাস্থলেই শিশুটির মৃত্যু হয়। ঘটনার পর শিশুটির মায়ের চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এলে অটোরিকশাটি রেখে চালক পালিয়ে যান। লক্ষ্মীপুর সদর থানার ওসি লোকমান হোসেন বলেন, অটোরিকশাটি পুলিশি হেফাজতে আছে। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ছাগলনাইয়া (ফেনী) : সোমবার সকালে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ফাজিলপুর মাদ্রাসা রোডে সড়ক দুর্ঘটনায় সুমাইয়া আক্তার (৮) নামে এক শিশু নিহত হয়েছে। রাস্তা পার হওয়ার সময় একটি কনটেইনার গাড়ি ধাক্কা দিলে সে গুরুতর আহত হয়। পরে হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

লোহাগড়া (নড়াইল) : উপজেলার এড়েন্দা ফুটবল খেলার মাঠ সংলগ্ন সড়কে দুটি মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে এক মোটরসাইকেল চালক নিহত হয়েছেন। নিহতের নাম মিঠু মোল্যা (৩৮)। তিনি উজেলার নলদী ইউপির মিঠাপুর গ্রামের রশিদ মোল্যার ছেলে।

ভোলা : রোববার দুপুরে ভোলা মোস্তফা কামাল বাসস্ট্যান্ড এলাকায় ট্রাকের ধাক্কায় ৭১ টিভির সাংবাদিক কামরুল ইসলাম ও ফটোসাংবাদিক লক্ষণ চন্দ্র দাস গুরুতর আহত হয়েছেন। কামরুলের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে ঢাকায় নিয়ে এসে সোমবার সকালে স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহত সাংবাদিক লক্ষণ ও স্থানীয়রা জানান, বেলা ৩টার দিকে বোরহানউদ্দিন উপজেলায় নির্বাচনের খবর সংগ্রহ করে মোটরসাইকেলে ফিরছিলেন তারা। এ সময় একটি ট্রাক পেছন থেকে তাদের ধাক্কা দেয়। প্রথমে তাদের ভোলা সদর হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখান থেকে কামরুলকে বরিশালে পাঠানো হয়।

বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসক জানান, দুর্ঘটনার পর কামরুলের হার্ট অ্যাটাক হয়েছে। তাই তাকে দ্রুত ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।

বরিশাল : সদর উপজেলার চরকাউয়া ইউনিয়নে বেপরোয়া গতির একটি যাত্রীবাহী থ্রি হুইলার মাহিন্দ্রা বিজিবির গাড়িতে ধাক্কা দিলে মাহিন্দ্রাটি দুমড়ে-মুচড়ে যায়। এতে মাহিন্দ্রার নারী যাত্রীসহ অন্তত ৩ জন আহত হয়েছেন।

আগৈলঝাড়া : সোমবার গৌরনদী-আগৈলঝাড়া-গোপালগঞ্জ মহাসড়কের আগৈলঝাড়ার গৈলা গ্রামের রশীদ ফকিরের ব্রিজের কাছে মোটরসাইকেল ও মাহিন্দ্রার মুখোমুখি সংঘর্ষে ১০ জন আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে গুরুতর অবস্থায় ৬ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×