১০৯ দিনে নিহত ১০২৩

ময়মনসিংহে সড়কে প্রাণ গেল এক পরিবারের ৫ জনের

বিভিন্ন স্থানে আরও ৮ জনের মৃত্যু

  যুগান্তর ডেস্ক ১৭ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

দুর্ঘটনা কবলিত প্রাইভেটকার
দুর্ঘটনা কবলিত প্রাইভেটকার।ছবি: যুগান্তর

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে শুক্রবার সকালে বাসের ধাক্কায় প্রাইভেটকার আরোহী স্বামী-স্ত্রী ও তাদের ছেলেমেয়েসহ একই পরিবারের ৫ জনের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় পরিবারের একমাত্র বেঁচে যাওয়া ৩ বছরের শিশু নাহিদকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন প্রাইভেটকার চালক সেলিম।

নিহতরা হলেন- মাধবদী বাংলা টেক্সটাইলের মালিক রফিকুল ইসলাম (৪৫), তার স্ত্রী শামসুন্নাহার শাহীনা (৩৫), কলেজ পড়ুয়া ছেলে নাবিল ইসলাম (১৯), মেয়ে রওনক জাহান (১৩) এবং রফিকুলের শ্যালক আশরাফ (১৪)। তাদের গ্রামের বাড়ি নেত্রকোনা জেলার সুসং দুর্গাপুরে।

ব্যবসার কারণে সপরিবারে বসবাস করতেন নরসিংদীর মাধবদীতে। ঈদের ছুটিতে এক চাচার বিয়ে উপলক্ষে স্ত্রী-সন্তানদের নিয়ে ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলার মধুপুরে শ্বশুরবাড়ি এসেছিলেন রফিকুল ইসলাম। অনুষ্ঠান শেষে নরসিংদীতে ফিরছিলেন তারা।

এদিকে দেশের আরও কয়েকটি স্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় নবম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থীসহ আরও ৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে গত ১০৯ দিনে সড়কে ঝরল ১০২৩ জনের প্রাণ। ব্যুরো ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

ময়মনসিংহ ও গৌরীপুর : গৌরীপুর থানার ওসি কামরুল ইসলাম মিয়া জানান, বেলা ১১টার দিকে ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ আঞ্চলিক সড়কের গৌরীপুর উপজেলার রামগোপালপুরে দুর্ঘটনাটি ঘটে। কিশোরগঞ্জগামী এমকে পরিবহনের দ্রুতগতির একটি বাস অপর একটি বাসকে ওভারটেক করার সময় ওই প্রাইভেটকারে ধাক্কা দেয়।

এতে প্রাইভেটকারটি রাস্তার পাশের একটি বড় গাছে ধাক্কা লেগে দুমড়ে-মুচড়ে যায়। ঘটনাস্থলেই রফিকুল ইসলামের স্ত্রী শামসুন্নাহার শাহীনা মারা যান। পরে স্থানীয় বাসিন্দা, পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের লোকজন গুরুতর আহত অবস্থায় রফিকুল ইসলাম, তার ছেলে নাবিল ইসলাম, মেয়ে রওনক জাহান, শিশুপুত্র নাহিদ, শ্যালক আশরাফ এবং প্রাইভেটকার চালক সেলিমকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান।

সেখানে চিকিৎসক রফিকুল ইসলাম, নাবিল ইসলাম ও মেয়ে রওনক জাহানকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে বিকাল ৪টার দিকে মারা যান রফিকুলের শ্যালক আশরাফ। ওসি কামরুল ইসলাম মিয়া আরও জানান, পুলিশ বাসটি আটক করলেও চালক পালিয়ে গেছে।

এদিকে পরিবারের চার সদস্যকে হারিয়ে দিশেহারা নিকটাত্মীয় ও স্বজনরা। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিহত রফিকুলের চাচাতো বোন নাজনীন সুলতানা শম্পা ক্রন্দনরত কণ্ঠে বলেন, বিয়ের অনুষ্ঠানের আনন্দ শেষ করে ওরা চলে যাচ্ছিল।

সড়ক দুর্ঘটনায় সবাইকে এভাবে হারাব কখনও ভাবতে পারিনি। নিহত রফিকুলের চাচাতো ভাই আনিসুজ্জামান ভূঁইয়া বলেন, অলৌকিকভাবে বেঁচে গেছে পাঁচ সদস্যের পরিবারের একমাত্র সদস্য শিশু নাহিদ। তিনি তার জন্য সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন।

আইসিইউতে শিশু নাহিদ : পাঁচ সদস্যের পরিবারে সবচেয়ে ছোট শিশু নাহিদ। বাবা-মা, ভাই-বোন আর নিকটাত্মীয় খেলার সাথী ছাড়া কাউকে চেনে না সে। মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় বেঁচে যাওয়া একমাত্র শিশু নাহিদ এখন ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (আইসিইউ)।

অবুঝ শিশুটি এখনও জানে না, তার বাবা-মা আর দুই ভাই-বোন কেউই বেঁচে নেই। হাসপাতালের বেডে শুয়ে শুধু এদিক-সেদিক তাকাচ্ছে আর মাকে খুঁজছে। চিকিৎসক জানিয়েছেন, শিশুটির মাথায় আঘাত লেগেছে। তার সুচিকিৎসা চলছে।

ধামরাই : শুক্রবার সন্ধ্যায় ঢাকা-সাটুরিয়া সড়কের ধামরাইয়ের খাগুর্তা নামক স্থানে মোটরসাইকেল ও সিএনজি অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে দু’জন নিহত হয়েছেন। তারা হলেন খাগুর্তা এলাকার মো. জহির উদ্দিন (৩২) ও মো. আনোয়ার হোসেন রওশন (৩৬)।

ভালুকা (ময়মনসিংহ) : শুক্রবার ভোরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের জামিরদিয়া তেপান্তর শুটিং স্পটের সামনে বিটুমিনবাহী লরির সঙ্গে পিকআপের সংঘর্ষে পিকআপের এক যাত্রী নিহত এবং অপর একজন আহত হয়েছেন। নিহত উজ্জ্বল মিয়া (৩০) ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার বাশাডি গ্রামের মৃত আবুল কালামের ছেলে।

ভূঞাপুর (টাঙ্গাইল) : ভূঞাপুর-তারাকান্দি সড়কের তারাই এলাকায় মাইক্রোবাস-সিএনজির সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরও তিনজন। নিহত আবদুল মান্নান (৬২) সরিষাবাড়ি উপজেলার পিংনা গ্রামের বাসিন্দা।

কাপাসিয়া : গাজীপুরের কাপাসিয়ায় ফকির মজনু শাহ সেতুর পূর্ব পাশের টোল প্লাজাসংলগ্ন এলাকায় বৃহস্পতিবার রাতে দুই মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে সিঙ্গাপুর প্রবাসী রফিকুল ইসলামের (২৩) মৃত্যু হয়েছে। নিহত রফিকুল তরগাঁও ইউনিয়নের দক্ষিণ খামের গ্রামের মৃত আবদুল আজিজ ওরফে আরজুর ছেলে। দুর্ঘটনায় অপর মোটরসাইকেলের ২ আরোহী গুরুতর আহত হয়েছেন।

রাজবাড়ী : কালুখালীতে পিকনিকের বাস উল্টে শামীম (১৬) নামে এক স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। এসময় আরও কয়েকজন আহত হয়েছেন। তাদের রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার ভোর রাতে কালুখালী উপজেলার দুর্গাপুর এলাকায় রাজবাড়ী-কুষ্টিয়া আঞ্চলিক মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত শামীম মেহেরপুর জেলার গাংনী উপজেলার খাসমহল গ্রামের শফির ছেলে। সে স্থানীয় একটি স্কুলে নবম শ্রেণিতে পড়ত।

কুষ্টিয়া : কুষ্টিয়ায় একটি যাত্রীবাহী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে উল্টে ঘটনাস্থলেই এক নারী নিহত হয়েছেন। নিহত ওই নারীর নাম হোসনেআরা বেগম (৪৫)। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন বাসের অন্তত ১১ যাত্রী। শুক্রবার দুপুরে কুষ্টিয়া-চুয়াডাঙ্গা আঞ্চলিক সড়কের আমবাড়িয়া ইউনিয়নের বালুচর মোড়ে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত হোসনেআরা জেলার মিরপুর উপজেলার কুর্শা ইউনিয়নের হাউসপুর গ্রামের রিয়াজুল ইসলামের স্ত্রী।

নেত্রকোনা : পূর্বধলা উপজেলার শ্যামগঞ্জ-বিরিশিরি সড়কের আতকাপাড়া নামক স্থানে শুক্রবার সকালে বাস ও মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে মোটরসাইকেল চালক রতন খাঁ (৪৫) নিহত হয়েছেন। এ সময় আরোহী রমজান খাঁ (৩৫) গুরুতর আহত হয়েছেন। নিহত রতন খাঁ পূর্বধলা উপজেলার জারিয়া ইউনিয়নের ছনধরা পশ্চিম পাড়া গ্রামের সিরাজ খাঁর ছেলে।

সাভার : আমিনবাজার এলাকায় একটি যাত্রীবাহী বাস উল্টে ৩০ জন আহত হয়েছেন। আহতদের উদ্ধার করে সাভার ও রাজধানীর বিভিন্ন হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। শুক্রবার বিকালে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের সাভারের আমিনবাজারের চাঁনপুর এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×