ভোলা থমথমে শুভর ভগ্নিপতি অপহৃত

ভোলার এসপির ফেসবুক আইডি হ্যাকড, থানায় জিডি * সারা দেশে হেফাজতের বিক্ষোভ, সর্বদলীয় ঐক্য পরিষদের সমাবেশ হয়নি

  ভোলা, ভোলা (দক্ষিণ) ও বোরহানউদ্দিন প্রতিনিধি ২৩ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ভোলা থমথমে শুভর ভগ্নিপতি অপহৃত

ভোলার বোরহানউদ্দিনে বিপ্লব চন্দ্র শুভর ফেসবুক আইডি হ্যাক করে ধর্ম অবমাননার জেরে ভোলায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। যে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ভোলা শহর ও বোরহানউদ্দিনের সর্বত্রই বিজিবি, র‌্যাব ও পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতায় সর্বদলীয় মুসলিম ঐক্য পরিষদের পূর্ব ঘোষিত ভোলা শহরের হাটখোলা মসজিদ চত্বরে জনসভা করা সম্ভব হয়নি। বাদ আসর মসজিদের পেশ ইমাম মাওলানা ফয়েজউল্লাহ মুসল্লিদের উদেশে বলেছেন, সভাসমাবেশ না করার জন্য প্রশাসনের নির্দেশ থাকায় মসজিদের সামনে কোনো প্রকার সমাবেশ হবে না। সবাই বাড়ি চলে যান।

সংগঠনের নেতা মাওলানা তরিকুল ইসলাম জানান, পুলিশ বেষ্টনীর কারণে তারা ওই মসজিদ চত্বরে যাননি। এদিকে উসকানি দেয়ার অভিযোগে মঙ্গলবার ভোলা থেকে তিন জনকে আটক করা হয়েছে। এদিকে আগের দিন রাতে যার ফেসবুক আইডি হ্যাক করে ধর্ম নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করা হয়েছিল সেই বিপ্লব চন্দ্র শুভর ভগ্নিপতি বিধান চন্দ্র মজুমদারকে ডিবি পরিচয়ে তুলে নেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় থানায় জিডি করা হয়েছে। তবে ডিবি ও স্থানীয় পুলিশ বলেছে, বিষয়টি তাদের জানা নেই। ভোলার ঘটনার প্রতিবাদে মঙ্গলবার সারা দেশে হেফাজতের উদ্যোগে শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ সমাবেশ হয়েছে।

এদিকে ভোলার পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সারের ফেসবুক আইডি হ্যাক করা হয়েছে। মঙ্গলবার তিনি থানায় জিডিও করেছেন। ভোলা মডেল থানার ওসি এনায়েত হোসেন বলেছেন, সকালেই তার ব্যক্তিগত ফেসবুক আইডিটি হ্যাক করা হয়েছে মর্মে জিডি করা হয়েছে। একের পর এক ফেসবুক হ্যাক হওয়ার ঘটনায় আতঙ্ক বিরাজ করছে। অনেকেই ফেসবুক ব্যবহার থেকে বিরত রয়েছেন।

নাশকতার চেষ্টা, আটক ৩ : এদিকে নাশকতা সৃষ্টির চেষ্টার অভিযোগে মঙ্গলবার যে ৩ যুবককে আটক করা হয়েছে তারা হচ্ছেন- বোরহানউদ্দিনের দেউলা ইউনিয়নের হাসনাইন উদ্দিন (১৮), দৌলতখান উপজেলার দক্ষিণ চরপাতা গ্রামের মো. সুমন (২২), জেলা সদর উপজেলার চরগাজি গ্রামের মো. ইউনুছ (২২)। ভোলা থানার ওসি এনায়েত হোসেন বলেছেন, তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে বলে জানান।

মাঠে আ’লীগ ও বিএনপি : পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে ৪ ব্যক্তি নিহতের প্রতিবাদে বুধবার বিক্ষোভ মিছিলের ঘোষণা দিয়েছে স্থানীয় বিএনপি। জেলা বিএনপি সভাপতি গোলাম নবী আলমগীর এ ঘোষণা দিয়ে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কর্মসূচি সফল করতে দলীয় অফিসে বৈঠকও করেছেন।

এদিকে জেলা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি এড়াতে ভূমিকা রাখতে শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে মঙ্গলবার অবস্থান নেন। বুধবারও তারা মোড়ে মোড়ে অবস্থান কর্মসূচি পালন করবেন।

জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবদুল মমিন টুলু জানান, রাজনৈতিক পরাজিত শক্তিরা নৈরাজ্য সৃষ্টির পাঁয়তারা করছে। জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মাসুদ আলম ছিদ্দিক জানান, সভাসমাবেশ অনির্দিষ্টকালের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে। কেউ আমান্য করলে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

পুলিশ সুপার কায়সার জানান, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে ব্যাপক পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবি মোতায়েন রয়েছে। ফেসবুক আইডি হ্যাক হওয়ার নিয়ে তিনি বলেন, সকালে ঘুম থেকে উঠে দেখি আমার ফেসবুক হ্যাক করে নানা মন্তব্য লেখা হয়েছে। পরে আমি জিডি করি। আমি দুটি ফেসবুক আইডি ব্যবহার করছিলাম। একটি ভোলা জেলা পুলিশের নামে। অপরটি সরকার কায়সার নামে। ব্যক্তিগতটি হ্যাক করা হয়।

বিপ্লব চন্দ্র শুভর ভগ্নিপতিকে অপহরণ : এদিকে সেই বিপ্লব চন্দ্র শুভর ভগ্নিপতি বিধান চন্দ্র মজুমদারকে অপহরণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। সোমবার রাতে চরফ্যাশন উপজেলার দুলারহাট থানার রোদেরহাট বাজারের দোকান থেকে ডিবি পরিচয়ে তাকে তুলে নেয়া হয়েছে বলে তার স্বজনরা জানিয়েছেন।

তবে ভোলার পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার, ডিবির ওসি শহিদুল ইসলাম বলেছেন, তাদের কোনো টিম ওই অভিযানে যায়নি। বিষয়টি তারা জানেন না।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান সিরাজ উদ্দিন জানান, সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে একটি কালো গ্লাসের মাইক্রোবাস বাজারে আসে। ওই মাইক্রো থেকে কয়েকজন নেমে বিধানকে ডেকে মাইক্রোতে করে তুলে নিয়ে যায়। এর পর থেকে তার মোবাইল ফোনটিও বন্ধ রয়েছে। ওই বাজারে বিধানের ছোট আকারের জুয়েলারি দোকান রয়েছে।

প্রয়োজনে ফের শাপলা চত্বর কায়েমের হুমকি হেফাজতের : চট্টগ্রাম ব্যুরো জানায়, হেফাজতে ইসলামের চট্টগ্রাম মহানগরীর উদ্যোগে সমাবেশে মহাসচিব আল্লামা জুনাইদ বাবু নগরী বলেছেন, মহানবীর ইজ্জত রক্ষায় জীবন দিতে প্রস্তুত লাখো মুসলিম। প্রয়োজনে দেশে আবার শাপলা চত্বর কায়েম করা হবে।

দুপুরে নগরীর জমিয়তুল ফালাহ মসজিদ চত্বরে ভোলার বোরহানউদ্দিনের ঘটনার প্রতিবাদে সমাবেশে বাবুনগরী বলেন, মুসলিম অধ্যুষিত বাংলাদেশে আল্লাহ তায়া’লা ও বিশ্বনবীকে (সা.) নিয়ে কেউ কটূক্তি করবে- তা সহ্য করা হবে না।

বাংলাদেশ গণতান্ত্রিক দেশ, শান্তিপূর্ণ মিছিল মিটিংয়ের মাধ্যমে দাবি-দাওয়া পেশ করা এবং দোষীদের বিচার চাওয়া নাগরিক অধিকার। তিনি কটূক্তিকারী বিপ্লব চন্দ্র শুভর সর্বোচ্চ শাস্তির পাশাপাশি তৌহিদী জনতার মিছিলে গুলিবর্ষণকারীদেরও শাস্তি দাবি করেন তিনি।

নগর সভাপতি মাওলানা তাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা লোকমান হাকীম, শোলকবহর মাদ্রাসার সহকারী পরিচালক মাওলানা মোহাম্মদ হারুন, নাসিরাবাদ মাদরাসার মুহতামিম মাওলানা আবদুল জাব্বার, ঝাউতলা মাদরাসার মুহতামিম মাওলানা আলী ওসমান, সেগুনবাগান মাদ্রাসার পরিচালক হাফেজ মোহাম্মদ তৈয়ব, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মাওলানা নাছির উদ্দিন মুনীর, দারুল মাআরিফের মুহাদ্দিস মাওলানা এনামুল হক মাদানী, দামপারা মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা এনায়েত উল্লাহ, মদুনাঘাট ইউনুছিয়ার মুহতামিম মাওলানা শেহাব উদ্দিন, হেফাজত নেতা মাওলানা আজিজুল হক ইসলামাবাদী প্রমুখ। পরে বিক্ষোভ মিছিল নগরীর বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে।

সিলেটে হেফাজতের বিক্ষোভ : সিলেট ব্যুরো জানায়, বন্দরবাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের সামনে থেকে মিছিল শুরু হয়ে নগরীর বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে সিটি পয়েন্টে সমাবেশ করে হেফাজত।

হেফাজত নেতা মাওলানা রেজাউল করিম জালালীর সভাপতিত্বে মহানগর নেতা হাফিজ মাওলানা আহমদ সগীরের পরিচালনায় সমাবেশে বক্তারা করেন। তিনি বলেন, ধর্ম অবমাননা মুসলমানরা বরদাশত করতে পারেন না। শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে নির্বিচারে গুলিতে আহতদের অনতিবিলম্বে সঠিক চিকিৎসা ও গুলিবর্ষণকারী পুলিশের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানানো হয়।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন- মহানগর সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মোস্তাক আহমদ খান, মাওলানা খলিলুর রহমান, মাওলানা ইকবাল আহমদ, মাওলানা আতাউর রহমান, মাওলানা শাহ মমশাদ আহমদ, মাওলানা হাবিব আহমদ শিহাব, মাওলানা আবদুল মুছব্বির, মুফতি ফয়জুল হক জালালাবাদী, গাজী রহমত উল্লাহ, প্রিন্সিপাল মাহমুদুল হাসান, মাওলানা এমরান আলম, মাওলানা আব্দুল আজিজ, মাওলানা জাহিদ উদ্দিন চৌধুরী, মাওলানা সামিউর রহমান মুসা, মাওলানা সামসুদ্দিন মোহাম্মদ ইলিয়াছ, মাওলানা এমরান আলম, মাওলানা তাজুল ইসলাম হাসান, মাওলানা মখলিছুর রহমান প্রমুখ।

চাঁদপুর প্রতিনিধি জানান, ধর্ম অবমাননাকারীদের বিচার দাবিতে হেফাজতের চাঁদপুর জেলা শাখার উদ্যোগে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিল করা হয়েছে। দুপুরে চাঁদপুর শহরের শাপলা চত্বর এলাকায় বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তৃতা করেন হেফাজতের চাঁদপুর জেলা শাখার সভাপতি মাওলানা লিয়াকত হোসাইন, সহসভাপতি মুফতি মো. সিরাজুল ইসলাম, সহ- সভাপতি মুফতি মাওলানা ইদ্রিস।

উপস্থিত ছিলেন মুফতি মাহবুবুর রহমান, মুফতি শাহাদৎ হোসেন, মাওলানা হাবিবুর রহমান, মুফতি রশিদ আহমেদ, হাফেজ আবুল হাসানাত, মাওলানা আবু জাফর সিদ্দিক, মাওলানা কবির আহমেদ, হাফেজ ফারুক নোয়াইম, মাওলানা তারেক হাসান, মাওলানা ইয়াছিন প্রমুখ। এছাড়া দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে হেফাজতের উদ্যোগে মিছিল সমাবেশ হয়েছে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×