সিলেটে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৮
jugantor
সিলেটে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৮
আট জেলায় আরও ২০ জনের প্রাণহানি

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সিলেটের দক্ষিণ সুরমায় যাত্রীবাহী দুই বাসের সংঘর্ষে একজন চিকিৎসকসহ ৮ জন নিহত হয়েছেন। এ সময় ওই চিকিৎসকের স্ত্রীসহ অন্তত ১৫ জন আহত হয়েছেন। তাদের সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। শুক্রবার সকাল ৭টার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের রশিদপুরে এ দুর্ঘটনা ঘটে। বগুড়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন ৬ জন। এছাড়া বরিশাল, ঝিনাইদহ, হবিগঞ্জ, ময়মনসিংহ, কক্সবাজার, চুয়াডাঙ্গা, কুষ্টিয়া ও শেরপুরে সড়কে আরও ১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। ব্যুরো ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

সিলেট : সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার বিএম আশরাফ উল্লাহ তাহের জানান, সকাল ৭টার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের রশিদপুরে সিলেটগামী লন্ডন এক্সপ্রেস ও ঢাকাগামী এনা পরিবহনের যাত্রীবাহী বাসের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে দুই বাসের সামনের অংশ দুমড়ে-মুচড়ে যায়। ঘটনাস্থলেই মারা যান ৪ জন। হাসপাতালে নেওয়ার পর আরও ৩ জনের মৃত্যু হয়। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান আরেক যাত্রী। নিহতরা হলেন- সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলার সালমান খান (২৮), ছাতক উপজেলার রহিমা বেগম (৩০), ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলের নুরুল আমিন (৫০), সাগর (১৯), সিলেটের ওসমানী নগরের মঞ্জুর আহমদ মঞ্জু (৩৫), একই উপজেলার জাহাঙ্গীর হোসেন (৩০), ডা. ইমরান খান রুমেল (৪৮) ও সিলেট নগরের আখালিয়ার শাহ কামাল (৪৫)। এদের মধ্যে মঞ্জু এনা পরিবহনের চালক ও জাহাঙ্গীর তার সহযোগী। নুরুল আমিন লন্ডন এক্সপ্রেসের সুপারভাইজার আর ডা. ইমরান উইমেন্স মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের প্রভাষক ছিলেন।

পুলিশের এই কর্মকর্তা জানান, ঘটনার পরপরই দক্ষিণ সুরমা থানা পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উদ্ধার কাজ শুরু করে। আহত অন্তত ১৫ জনকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদিকে ঘটনার পর ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক বন্ধ হয়ে যায়। পরে সকাল ৯টার দিকে যান চলাচল ফের স্বাভাবিক হয়।

দুর্ঘটনার জন্য প্রাথমিকভাবে লন্ডন এক্সপ্রেসকেই দায়ী করেছেন সিলেট ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের উপপরিচালক কোবাদ আলী সরকার। তিনি বলেন, গাড়ি সব সময় বাঁ পাশ দিয়ে চলার কথা। কিন্তু দুর্ঘটনাকবলিত লন্ডন এক্সপ্রেস বাঁ পাশ ছেড়ে ডান পাশে চলে যায়। এতে বিপরীত দিক থেকে আসা বাসের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়।

সড়ক দুর্ঘটনায় তছনছ চিকিৎসক পরিবার : দুর্ঘটনায় নিহত চিকিৎসক ডা. ইমরান খান রুমেলের স্ত্রী ডা. অন্তরা গুরুতর আহত হয়ে হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে লড়ছেন। তিনি বিসিএস পরীক্ষার্থী। শুক্রবার বিকাল ৩টায় ঢাকায় পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার কথা ছিল তার। ডা. ইমরান সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের প্যাথলজি বিভাগের সাবেক প্রধান ডা. আমজাদ হোসেন খানের ছেলে। নগরীর ফাজিলচিস্ত এলাকার বাসিন্দা ডা. আমজাদের এক ছেলে এক মেয়ে দুজনেই চিকিৎসক। ছেলের বউ ও মেয়ের স্বামীও চিকিৎসক। পরিবারের ৬ সদস্যের ৫ জনই চিকিৎসক। এ দুর্ঘটনা তছনছ করে দিল চিকিৎসক পরিবারটিকে।

নিহত ডা. ইমরানের বোন ডা. ইন্নরী খান বলেন, আমার ভাইয়ের দুই মেয়ে। তার স্ত্রী বিসিএস পরীক্ষা দেবেন। সেজন্য সকালে তাকে নিয়ে ঢাকা যাচ্ছিলেন। যাওয়ার আগে তার দুই মেয়েকে আমাদের কাছে রেখে যান। সকাল সাড়ে ৭টায় খবর পাই তারা সড়ক দুর্ঘটনার শিকার হয়েছেন।

বগুড়া : বগুড়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ৬ জন নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে শুক্রবার সকালে শাজাহানপুর উপজেলার মাঝিড়া এলাকায় ঢাকা-রংপুর মহাসড়কে বাসের ধাক্কায় সিএনজি অটোরিকশার চালকসহ চারজন নিহত হন। তারা হলেন-বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার ডেমাজানি গ্রামের ক্ষিতিশ চন্দ্র দাসের ছেলে কালী দাস, ধুনট উপজেলার আনারপুর গ্রামের জামাল উদ্দিনের ছেলে শাহ্জামাল, বগুড়ার শেরপুরের গোসাইপাড়ার গীরেন্দ্র নাথ মোহন্তের ছেলে সুদয় কুমার মোহন্ত ও একই উপজেলার টাউন কলোনির মৃত নাদু মণ্ডলের ছেলে হারেজ মণ্ডল। দুপুরে দুপচাঁচিয়া উপজেলার তিষীগাড়ী এলাকায় বগুড়া-নওগাঁ সড়কে ট্রাকের ধাক্কায় অটোরিকশা চালকসহ দুজন নিহত হন। তারা হলেন- দুপচাঁচিয়া উপজেলার গোবিন্দপুর ইউনিয়নের মোড়গ্রামের আবদুল কাদেরের ছেলে অটোচালক আবদুর রউফ রাসেল ও যাত্রী একই ইউনিয়নের বেলোহালী গ্রামের ফজলুর রহমানের ছেলে ডেকরেটর ব্যবসায়ী মুক্তার হোসেন।

কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ) : শুক্রবার বিকাল ৪টার দিকে কালীগঞ্জ-কোটচাঁদপুর সড়কের পাতবিলায় তিন মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে তিনজন নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরও দুজন। নিহতরা হলেন-কোটচাঁদপুর পৌরসভাধীন দুধসর গ্রামের শিমুল বিশ্বাসের ছেলে সৌভিক বিশ্বাস (২৮), কালীগঞ্জ উপজেলার ভাটাডাঙ্গা গ্রামের জুয়েল হোসেনের ছেলে সোহেল হোসেন ও আনোয়ার আলীর ছেলে আকরাম হোসেন।

বরিশাল : চরমোনাই মাহফিলে যাওয়ার পথে ট্রাকের ধাক্কায় দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন। শুক্রবার সকালে বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়কের শহীদ আবদুর রব সেরনিয়াবাত সেতুর ঢালে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার আলগী এলাকার সিরাজ মাতুব্বরের ছেলে শরীফ মাতুব্বর (২১) ও একই এলাকার ইউসুফ আলীর ছেলে আল-আমীন (২০)। ঘাতক ট্রাকের চালক ও হেলপারকে আটক করেছে পুলিশ।

ধোবাউড়া (ময়মনসিংহ) : শুক্রবার সকালে উপজেলার মেকিয়ারকান্দা বাজারের পাশে ট্রাকের ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী দুই তরুণ নিহত হয়েছেন। তারা হলেন-খড়িয়া গ্রামের সাবির উদ্দিনের ছেলে জাহিদ হাসান রাসেল ও বাঘবেড় গ্রামের কুতুব উদ্দিনের ছেলে শহিদুল কায়সার রনি। এ ঘটনায় ঘাতক ট্রাক ও এর চালককে আটক করা হয়েছে।

শায়েস্তাগঞ্জ (হবিগঞ্জ) : শায়েস্তাগঞ্জে বাস ও অটোরিকশার সংঘর্ষে অটো চালক আব্দুর রহমান সোহাগ নিহত হয়েছেন। শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টায় হবিগঞ্জ-শায়েস্তাগঞ্জ সড়কের জগতপুরে এ ঘটনা ঘটে। নিহত সোহাগ হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার হাসেরগাঁও গ্রামের আজিজুর রহমানের ছেলে।

চুয়াডাঙ্গা : শুক্রবার সকালে আলমডাঙ্গা উপজেলার লক্ষ্মীপুর গ্রামের কাছারিপাড়ায় পাখিভ্যান খাদে পড়ে একজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও দুজন। নিহত শিপন আলী (৩৭) আলমডাঙ্গা উপজেলার পাইকপাড়া গ্রামের ইদ্রিস আলীর ছেলে।

শেরপুর : ট্রাকচাপায় আমেনা পারভিন (৪০) নামে এক পথচারী নিহত হয়েছেন। শুক্রবার সকাল ৭টায় শেরপুর-জামালপুর আঞ্চলিক মহাসড়কের শেরপুর টাউনের চাপাতলিতে সার্কিট হাউজের সামনে এ ঘটনা ঘটে। নিহত আমেনা পারভিন শেরপুর পৌরসভার বাগরাকসা মহল্লার বাসিন্দা নুরে আলম সিদ্দিকের স্ত্রী।

বাকেরগঞ্জ (বরিশাল) : বাকেরগঞ্জে ট্রলি খাদে পড়ে চালকের সহকারী জাহিদুল ইসলাম নিহত হয়েছেন। এ সময় ট্রলিচালকও গুরুতর আহত হন। বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার কবাই ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। নিহত জাহিদুল গারুড়িয়া ইউনিয়নের রবিপুর গ্রামের মো. বশির হাওলাদারের ছেলে।

চকরিয়া (কক্সবাজার) : চকরিয়ায় কয়েকজন পথচারীকে চাপা দিয়ে মোটরসাইকেল উল্টে মারা গেছেন এর চালক। এ সময় আহত তিন পথচারীর মধ্যে একজনের মৃত্যু হয়। শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়া উপজেলার বানিয়ারছড়া স্টেশনের কাছে এ ঘটনা ঘটে। নিহত মোটরসাইকেল চালকের নাম আবদুল ওয়াহাব। তিনি চকরিয়ার বরইতলী ইউনিয়নের মধ্যম বানিয়ারছড়া গ্রামের নেজাম উদ্দিনের ছেলে।

কুষ্টিয়া : মিরপুরে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষ্যে শোডাউনের সময় মোটরসাইকেলের ধাক্কায় নিহত পথচারী শেখ শহর আলী (৭০) তালবাড়িয়া এলাকার বাসিন্দা। কুষ্টিয়া-ঈশ্বরদী মহাসড়কের তালবাড়িয়ায় শুক্রবার বিকালে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

সিলেটে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৮

আট জেলায় আরও ২০ জনের প্রাণহানি
 যুগান্তর ডেস্ক 
২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সিলেটের দক্ষিণ সুরমায় যাত্রীবাহী দুই বাসের সংঘর্ষে একজন চিকিৎসকসহ ৮ জন নিহত হয়েছেন। এ সময় ওই চিকিৎসকের স্ত্রীসহ অন্তত ১৫ জন আহত হয়েছেন। তাদের সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। শুক্রবার সকাল ৭টার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের রশিদপুরে এ দুর্ঘটনা ঘটে। বগুড়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন ৬ জন। এছাড়া বরিশাল, ঝিনাইদহ, হবিগঞ্জ, ময়মনসিংহ, কক্সবাজার, চুয়াডাঙ্গা, কুষ্টিয়া ও শেরপুরে সড়কে আরও ১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। ব্যুরো ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর- 

সিলেট : সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার বিএম আশরাফ উল্লাহ তাহের জানান, সকাল ৭টার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের রশিদপুরে সিলেটগামী লন্ডন এক্সপ্রেস ও ঢাকাগামী এনা পরিবহনের যাত্রীবাহী বাসের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে দুই বাসের সামনের অংশ দুমড়ে-মুচড়ে যায়। ঘটনাস্থলেই মারা যান ৪ জন। হাসপাতালে নেওয়ার পর আরও ৩ জনের মৃত্যু হয়। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান আরেক যাত্রী। নিহতরা হলেন- সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলার সালমান খান (২৮), ছাতক উপজেলার রহিমা বেগম (৩০), ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলের নুরুল আমিন (৫০), সাগর (১৯), সিলেটের ওসমানী নগরের মঞ্জুর আহমদ মঞ্জু (৩৫), একই উপজেলার জাহাঙ্গীর হোসেন (৩০), ডা. ইমরান খান রুমেল (৪৮) ও সিলেট নগরের আখালিয়ার শাহ কামাল (৪৫)। এদের মধ্যে মঞ্জু এনা পরিবহনের চালক ও জাহাঙ্গীর তার সহযোগী। নুরুল আমিন লন্ডন এক্সপ্রেসের সুপারভাইজার আর ডা. ইমরান উইমেন্স মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের প্রভাষক ছিলেন। 

পুলিশের এই কর্মকর্তা জানান, ঘটনার পরপরই দক্ষিণ সুরমা থানা পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উদ্ধার কাজ শুরু করে। আহত অন্তত ১৫ জনকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদিকে ঘটনার পর ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক বন্ধ হয়ে যায়। পরে সকাল ৯টার দিকে যান চলাচল ফের স্বাভাবিক হয়। 

দুর্ঘটনার জন্য প্রাথমিকভাবে লন্ডন এক্সপ্রেসকেই দায়ী করেছেন সিলেট ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের উপপরিচালক কোবাদ আলী সরকার। তিনি বলেন, গাড়ি সব সময় বাঁ পাশ দিয়ে চলার কথা। কিন্তু দুর্ঘটনাকবলিত লন্ডন এক্সপ্রেস বাঁ পাশ ছেড়ে ডান পাশে চলে যায়। এতে বিপরীত দিক থেকে আসা বাসের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়। 

সড়ক দুর্ঘটনায় তছনছ চিকিৎসক পরিবার : দুর্ঘটনায় নিহত চিকিৎসক ডা. ইমরান খান রুমেলের স্ত্রী ডা. অন্তরা গুরুতর আহত হয়ে হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে লড়ছেন। তিনি বিসিএস পরীক্ষার্থী। শুক্রবার বিকাল ৩টায় ঢাকায় পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার কথা ছিল তার। ডা. ইমরান সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের প্যাথলজি বিভাগের সাবেক প্রধান ডা. আমজাদ হোসেন খানের ছেলে। নগরীর ফাজিলচিস্ত এলাকার বাসিন্দা ডা. আমজাদের এক ছেলে এক মেয়ে দুজনেই চিকিৎসক। ছেলের বউ ও মেয়ের স্বামীও চিকিৎসক। পরিবারের ৬ সদস্যের ৫ জনই চিকিৎসক। এ দুর্ঘটনা তছনছ করে দিল চিকিৎসক পরিবারটিকে। 

নিহত ডা. ইমরানের বোন ডা. ইন্নরী খান বলেন, আমার ভাইয়ের দুই মেয়ে। তার স্ত্রী বিসিএস পরীক্ষা দেবেন। সেজন্য সকালে তাকে নিয়ে ঢাকা যাচ্ছিলেন। যাওয়ার আগে তার দুই মেয়েকে আমাদের কাছে রেখে যান। সকাল সাড়ে ৭টায় খবর পাই তারা সড়ক দুর্ঘটনার শিকার হয়েছেন।

বগুড়া : বগুড়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ৬ জন নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে শুক্রবার সকালে শাজাহানপুর উপজেলার মাঝিড়া এলাকায় ঢাকা-রংপুর মহাসড়কে বাসের ধাক্কায় সিএনজি অটোরিকশার চালকসহ চারজন নিহত হন। তারা হলেন-বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার ডেমাজানি গ্রামের ক্ষিতিশ চন্দ্র দাসের ছেলে কালী দাস, ধুনট উপজেলার আনারপুর গ্রামের জামাল উদ্দিনের ছেলে শাহ্জামাল, বগুড়ার শেরপুরের গোসাইপাড়ার গীরেন্দ্র নাথ মোহন্তের ছেলে সুদয় কুমার মোহন্ত ও একই উপজেলার টাউন কলোনির মৃত নাদু মণ্ডলের ছেলে হারেজ মণ্ডল। দুপুরে দুপচাঁচিয়া উপজেলার তিষীগাড়ী এলাকায় বগুড়া-নওগাঁ সড়কে ট্রাকের ধাক্কায় অটোরিকশা চালকসহ দুজন নিহত হন। তারা হলেন- দুপচাঁচিয়া উপজেলার গোবিন্দপুর ইউনিয়নের মোড়গ্রামের আবদুল কাদেরের ছেলে অটোচালক আবদুর রউফ রাসেল ও যাত্রী একই ইউনিয়নের বেলোহালী গ্রামের ফজলুর রহমানের ছেলে ডেকরেটর ব্যবসায়ী মুক্তার হোসেন। 

কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ) : শুক্রবার বিকাল ৪টার দিকে কালীগঞ্জ-কোটচাঁদপুর সড়কের পাতবিলায় তিন মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে তিনজন নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরও দুজন। নিহতরা হলেন-কোটচাঁদপুর পৌরসভাধীন দুধসর গ্রামের শিমুল বিশ্বাসের ছেলে সৌভিক বিশ্বাস (২৮), কালীগঞ্জ উপজেলার ভাটাডাঙ্গা গ্রামের জুয়েল হোসেনের ছেলে সোহেল হোসেন ও আনোয়ার আলীর ছেলে আকরাম হোসেন। 

বরিশাল : চরমোনাই মাহফিলে যাওয়ার পথে ট্রাকের ধাক্কায় দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন। শুক্রবার সকালে বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়কের শহীদ আবদুর রব সেরনিয়াবাত সেতুর ঢালে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার আলগী এলাকার সিরাজ মাতুব্বরের ছেলে শরীফ মাতুব্বর (২১) ও একই এলাকার ইউসুফ আলীর ছেলে আল-আমীন (২০)। ঘাতক ট্রাকের চালক ও হেলপারকে আটক করেছে পুলিশ।

ধোবাউড়া (ময়মনসিংহ) : শুক্রবার সকালে উপজেলার মেকিয়ারকান্দা বাজারের পাশে ট্রাকের ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী দুই তরুণ নিহত হয়েছেন। তারা হলেন-খড়িয়া গ্রামের সাবির উদ্দিনের ছেলে জাহিদ হাসান রাসেল ও বাঘবেড় গ্রামের কুতুব উদ্দিনের ছেলে শহিদুল কায়সার রনি। এ ঘটনায় ঘাতক ট্রাক ও এর চালককে আটক করা হয়েছে। 

শায়েস্তাগঞ্জ (হবিগঞ্জ) : শায়েস্তাগঞ্জে বাস ও অটোরিকশার সংঘর্ষে অটো চালক আব্দুর রহমান সোহাগ নিহত হয়েছেন। শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টায় হবিগঞ্জ-শায়েস্তাগঞ্জ সড়কের জগতপুরে এ ঘটনা ঘটে। নিহত সোহাগ হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার হাসেরগাঁও গ্রামের আজিজুর রহমানের ছেলে। 

চুয়াডাঙ্গা : শুক্রবার সকালে আলমডাঙ্গা উপজেলার লক্ষ্মীপুর গ্রামের কাছারিপাড়ায় পাখিভ্যান খাদে পড়ে একজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও দুজন। নিহত শিপন আলী (৩৭) আলমডাঙ্গা উপজেলার পাইকপাড়া গ্রামের ইদ্রিস আলীর ছেলে। 

শেরপুর : ট্রাকচাপায় আমেনা পারভিন (৪০) নামে এক পথচারী নিহত হয়েছেন। শুক্রবার সকাল ৭টায় শেরপুর-জামালপুর আঞ্চলিক মহাসড়কের শেরপুর টাউনের চাপাতলিতে সার্কিট হাউজের সামনে এ ঘটনা ঘটে। নিহত আমেনা পারভিন শেরপুর পৌরসভার বাগরাকসা মহল্লার বাসিন্দা নুরে আলম সিদ্দিকের স্ত্রী।

বাকেরগঞ্জ (বরিশাল) : বাকেরগঞ্জে ট্রলি খাদে পড়ে চালকের সহকারী জাহিদুল ইসলাম নিহত হয়েছেন। এ সময় ট্রলিচালকও গুরুতর আহত হন। বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার কবাই ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। নিহত জাহিদুল গারুড়িয়া ইউনিয়নের রবিপুর গ্রামের মো. বশির হাওলাদারের ছেলে। 

চকরিয়া (কক্সবাজার) : চকরিয়ায় কয়েকজন পথচারীকে চাপা দিয়ে মোটরসাইকেল উল্টে মারা গেছেন এর চালক। এ সময় আহত তিন পথচারীর মধ্যে একজনের মৃত্যু হয়। শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়া উপজেলার বানিয়ারছড়া স্টেশনের কাছে এ ঘটনা ঘটে। নিহত মোটরসাইকেল চালকের নাম আবদুল ওয়াহাব। তিনি চকরিয়ার বরইতলী ইউনিয়নের মধ্যম বানিয়ারছড়া গ্রামের নেজাম উদ্দিনের ছেলে।

কুষ্টিয়া : মিরপুরে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষ্যে শোডাউনের সময় মোটরসাইকেলের ধাক্কায় নিহত পথচারী শেখ শহর আলী (৭০) তালবাড়িয়া এলাকার বাসিন্দা। কুষ্টিয়া-ঈশ্বরদী মহাসড়কের তালবাড়িয়ায় শুক্রবার বিকালে এ দুর্ঘটনা ঘটে। 
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন