বাংলাদেশের পুষ্পিত ব্যাটিং
jugantor
বাংলাদেশের পুষ্পিত ব্যাটিং
দেশের বাইরে প্রথম টেস্ট শতক মুমিনুলের

  ক্রীড়া ডেস্ক  

২৩ এপ্রিল ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

পাল্লেকেলেতে পুষ্পিত ব্যাটিংশৈলীতে টানা দুদিন ভালো লাগার সুরভি ছড়ালেন বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা। তামিম, নাজমুল ও মুমিনুল ত্রয়ীর ব্যাটিং-বিভা প্রথম টেস্টের প্রথম দুদিনে ঘোষণা করল বাংলাদেশের ব্যাটিং-গরিমা।

আর শ্রীলংকাকে ঠেসে ধরল দেওয়ালে। আহা! নিজেদের আঙিনায় কী দুর্গতি করুনারত্নদের। উইকেটের জন্য হা-পিত্যেশ! কথায় বলে, প্রচ্ছদ দেখে কোনো বইয়ের মূল্যায়ন করা উচিত নয়।

ক্রিকেটে উইকেট দেখে তার সম্ভাব্য আচরণ সম্পর্কে তুরন্ত সিদ্ধান্তে পৌঁছাও উচিত নয়। উইকেটে সবুজের স্পর্শে প্রভাবিত হয়ে লংকানরা একাদশে সিম বোলারদের ভিড় জমিয়ে ভেবেছিল, কন্ডিশনের সদ্ব্যবহার করবে।

তাতে হলোটা কী। ৩০২/২-এ প্রথমদিন শেষ করা বাংলাদেশ দ্বিতীয়দিনে আরও জাঁকিয়ে বসল। বৃহস্পতিবার বৃষ্টি ও মরে যাওয়া আলোয় খেলা থমকে যাওয়ার সময় বাংলাদেশ ৪৭৪/৪। সেখানেই দ্বিতীয়দিনের খেলার ইতি টানা হয়। শেষ সেশনে খেলা হয়েছে মাত্র ১০ ওভার। পুরো দিনে ৬৫ ওভার। মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাস আজ তৃতীয়দিনের খেলা শুরু করবেন যথাক্রমে ১০৭ বলে ৪৩ ও ৩৯ বলে ২৫ রান নিয়ে। দেখার বিষয় হলো, স্কোর বোর্ডে আর কত রান জমা করে বাংলাদেশ তাদের প্রথম ইনিংস ঘোষণা করবে।

দৃষ্টিসীমায় ৫০০। উইকেটের আচরণ ক্রমশ আত্মবিশ্বাসী করে তুলেছে সফরকারীদের। ৬০০-ও অসম্ভব নয়। এদিন যে দুটি উইকেট পড়েছে তার একটি নাজমুল হোসেন শান্তর। ১৭ চার ও এক ছয়ে ৩৭৮ বলে ১৬৩ রানের একেবারে টেস্ট মেজাজের ইনিংস খেলে লাহিরু কুমারাকে ফিরতি ক্যাচ দেন নাজমুল। অধিনায়ক মুমিনুল হকের সঙ্গে তার ২৪২ রানের ম্যারাথন পার্টনারশিপের সেখানেই শেষ।

আগেরদিন নিজের প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরি পাওয়া নাজমুল এগোচ্ছিলেন দ্বিশতকের দিকে। ধীরে ধীরে দৃষ্টির সীমানায় চলে আসছিল মুশফিকুর রহিমের ২০০।

কিন্তু ৩৭ রান দূরে থাকতে আউট নাজমুল। আরেক বাঁ-হাতি মুমিনুল অবশ্য নিজের এগারোতম টেস্ট শতক স্পর্শ করতে সফল হলেন শেষতক।

১২৭ রান করতে তিনি বল খেলেছেন ৩০৪টি। ১১টি চার তার ইনিংসের শোভা বাড়ায়। অধিনায়কের একাদশতম সেঞ্চুরিই সম্ভবত তার সবচেয়ে প্রিয় সেঞ্চুরি হতে চলেছে। কেননা, এটাই যে দেশের বাইরে তার প্রথম টেস্ট শতক। তার আগের দশটি সেঞ্চুরিই ঘরের মাঠে।

আজ তৃতীয়দিনের খেলা শুরু হবে ১৫ মিনিট আগে। বাংলাদেশ সময় সকাল ১০টা ১৫ মিনিটে।

বাংলাদেশের পুষ্পিত ব্যাটিং

দেশের বাইরে প্রথম টেস্ট শতক মুমিনুলের
 ক্রীড়া ডেস্ক 
২৩ এপ্রিল ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

পাল্লেকেলেতে পুষ্পিত ব্যাটিংশৈলীতে টানা দুদিন ভালো লাগার সুরভি ছড়ালেন বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা। তামিম, নাজমুল ও মুমিনুল ত্রয়ীর ব্যাটিং-বিভা প্রথম টেস্টের প্রথম দুদিনে ঘোষণা করল বাংলাদেশের ব্যাটিং-গরিমা।

আর শ্রীলংকাকে ঠেসে ধরল দেওয়ালে। আহা! নিজেদের আঙিনায় কী দুর্গতি করুনারত্নদের। উইকেটের জন্য হা-পিত্যেশ! কথায় বলে, প্রচ্ছদ দেখে কোনো বইয়ের মূল্যায়ন করা উচিত নয়।

ক্রিকেটে উইকেট দেখে তার সম্ভাব্য আচরণ সম্পর্কে তুরন্ত সিদ্ধান্তে পৌঁছাও উচিত নয়। উইকেটে সবুজের স্পর্শে প্রভাবিত হয়ে লংকানরা একাদশে সিম বোলারদের ভিড় জমিয়ে ভেবেছিল, কন্ডিশনের সদ্ব্যবহার করবে।

তাতে হলোটা কী। ৩০২/২-এ প্রথমদিন শেষ করা বাংলাদেশ দ্বিতীয়দিনে আরও জাঁকিয়ে বসল। বৃহস্পতিবার বৃষ্টি ও মরে যাওয়া আলোয় খেলা থমকে যাওয়ার সময় বাংলাদেশ ৪৭৪/৪। সেখানেই দ্বিতীয়দিনের খেলার ইতি টানা হয়। শেষ সেশনে খেলা হয়েছে মাত্র ১০ ওভার। পুরো দিনে ৬৫ ওভার। মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাস আজ তৃতীয়দিনের খেলা শুরু করবেন যথাক্রমে ১০৭ বলে ৪৩ ও ৩৯ বলে ২৫ রান নিয়ে। দেখার বিষয় হলো, স্কোর বোর্ডে আর কত রান জমা করে বাংলাদেশ তাদের প্রথম ইনিংস ঘোষণা করবে।

দৃষ্টিসীমায় ৫০০। উইকেটের আচরণ ক্রমশ আত্মবিশ্বাসী করে তুলেছে সফরকারীদের। ৬০০-ও অসম্ভব নয়। এদিন যে দুটি উইকেট পড়েছে তার একটি নাজমুল হোসেন শান্তর। ১৭ চার ও এক ছয়ে ৩৭৮ বলে ১৬৩ রানের একেবারে টেস্ট মেজাজের ইনিংস খেলে লাহিরু কুমারাকে ফিরতি ক্যাচ দেন নাজমুল। অধিনায়ক মুমিনুল হকের সঙ্গে তার ২৪২ রানের ম্যারাথন পার্টনারশিপের সেখানেই শেষ।

আগেরদিন নিজের প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরি পাওয়া নাজমুল এগোচ্ছিলেন দ্বিশতকের দিকে। ধীরে ধীরে দৃষ্টির সীমানায় চলে আসছিল মুশফিকুর রহিমের ২০০।

কিন্তু ৩৭ রান দূরে থাকতে আউট নাজমুল। আরেক বাঁ-হাতি মুমিনুল অবশ্য নিজের এগারোতম টেস্ট শতক স্পর্শ করতে সফল হলেন শেষতক।

১২৭ রান করতে তিনি বল খেলেছেন ৩০৪টি। ১১টি চার তার ইনিংসের শোভা বাড়ায়। অধিনায়কের একাদশতম সেঞ্চুরিই সম্ভবত তার সবচেয়ে প্রিয় সেঞ্চুরি হতে চলেছে। কেননা, এটাই যে দেশের বাইরে তার প্রথম টেস্ট শতক। তার আগের দশটি সেঞ্চুরিই ঘরের মাঠে।

আজ তৃতীয়দিনের খেলা শুরু হবে ১৫ মিনিট আগে। বাংলাদেশ সময় সকাল ১০টা ১৫ মিনিটে।

 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন