মাদকবিরোধী অভিযান

‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত আরও ৫

  যুগান্তর ডেস্ক ০১ জুন ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

বন্দুক যুদ্ধ

চলমান মাদকবিরোধী অভিযানের মধ্যে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ পাঁচজন নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে রাজশাহীতে দুইজন এবং মাদারীপুর, যশোর ও মৌলভীবাজারে একজন করে নিহত হয়েছেন। বুধবার সন্ধ্যা থেকে বৃহস্পতিবার রাত ১১টা পর্যন্ত এসব ঘটনা ঘটে।

এ নিয়ে মাদকবিরোধী অভিযানে এ পর্যন্ত ১৩৫ জন নিহত হলেন। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কর্মকর্তারা জানান, নিহতদের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে। ব্যুরো ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

রাজশাহী : রাজশাহীতে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে রাজশাহী মহানগরীর কর্ণহার থানার করমজা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। তাৎক্ষণিকভাবে নিহত দু’জনের পরিচয় পাওয়া যায়নি। তবে তারা মাদক ব্যবসায়ী বলে র‌্যাবের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

ঘটনার পর র‌্যাব-৫ এর পক্ষ থেকে মুঠোফোনে খুদেবার্তা পাঠিয়ে জানানো হয়, করমজা এলাকায় র‌্যাব-৫ এর সঙ্গে একদল মাদক ব্যবসায়ীর গুলিবিনিময় হয়েছে। এতে দুই মাদক ব্যবসায়ী গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে বিপুল পরিমাণ মাদক, অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

মাদারীপুর : জেলার শিবচর উপজেলায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ বাচ্চু খলিফা (৪৫) নামে একজন নিহত হয়েছেন। বুধবার রাতে উপজেলার বাঁশকান্দি ইউনিয়নের শুম্ভুক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ জানায়, বন্দুকযুদ্ধে নিহত ব্যক্তি একজন মাদক ব্যবসায়ী। তার বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে। সে শিবচর উপজেলার দ্বিতীয়রা খণ্ড গ্রামের সফর খলিফার ছেলে। ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশি পাইপগান, তিন রাউন্ড গুলি ও মাদকদ্রব্য উদ্ধার করা হয়েছে।

যশোর : যশোরের বাঘারপাড়ায় দু’দল মাদক ব্যবসায়ীদের মধ্যে ‘গোলাগুলিতে’ রাজু আহমেদ (৩২) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার ভোরে যশোর-মাগুরা মহাসড়কের বাঘারপাড়া উপজেলার খাজুরা ভাটার আমতলা নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থল থেকে একটি ওয়ান শুটারগান, এক রাউন্ড গুলি, একটি গুলির খোসা এবং তিন কেজি গাঁজা উদ্ধার করা হয়েছে। নিহত রাজু যশোরের চৌগাছা উপজেলার দিঘলসিংহা গ্রামের শহিদুল ইসলামের ছেলে। নিহত রাজুর বিরুদ্ধে মাদক ও চোরাচালানের ৮টি মামলা রয়েছে।

মৌলভীবাজার : জেলার কমলগঞ্জে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক ডাকাত নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার ভোরে কমলগঞ্জের পতনউষার ইউনিয়নের সরিষের তলা ও কুলাউড়া উপজেলার হাজীপুর ইউনিয়নের পাবই গ্রামের মাঝামাঝি স্থানে এ ঘটনা ঘটে। নিহত ডাকাতের নাম ইসলাম উদ্দীন (৪৫)। তার বাড়ি কমলগঞ্জ উপজেলার কুমড়াকাপন গ্রামে।

শমশেরনগর পুলিশ ফাঁড়ি সূত্রে জানা যায়, পুলিশের টহল দল ফেরার সময় ডাকাত দলের মুখোমুখি পড়ে। এ সময় ডাকাত দল পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। এতে ঘটনাস্থলে ডাকাত ইসলাম উদ্দীন মারা যায়। শমশেরনগর পুলিশ ফাঁড়ির দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা পরিদর্শক (তদন্ত) অরূপ রায় চৌধুরী জানান, নিহত ইসলাম উদ্দীন একজন কুখ্যাত ডাকাত।

ঘটনাপ্রবাহ : মাদকবিরোধী অভিযান ২০১৮

 

 

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
.