আধুনিক হচ্ছে ২১ রেল ইঞ্জিন

ব্যয় ২৪১ কোটি টাকা

  যুগান্তর রিপোর্ট ২৬ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ইঞ্জিন

আধুনিকায়ন করা হচ্ছে রেলের ২১টি ইঞ্জিন। এজন্য ‘বাংলাদেশ রেলওয়ের ২১টি মিটারগেজ ডিজেল ইলেকট্রিক লোকোমোটিভ নবরূপায়ণ’ শীর্ষক একটি প্রকল্প নেয়া হয়েছে।

এতে ব্যয় ধরা হয়েছে ২৪১ কোটি টাকা। মঙ্গলবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় এটিসহ ১০ প্রকল্প অনুমোদন দেয়া হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন প্রধানমন্ত্রী ও একনেক চেয়ারপারসন শেখ হাসিনা। বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান। এসব প্রকল্প বাস্তবায়নে ব্যয় হবে ৬ হাজার ৯৬৭ কোটি ২৩ লাখ টাকা। এর মধ্যে সরকারের নিজস্ব তহবিল থেকে ৬ হাজার ৬৮৬ কোটি ১৩ লাখ টাকা, বৈদেশিক সহায়তা থেকে ৩৯ কোটি ৫৮ লাখ টাকা এবং বাস্তবায়নকারী সংস্থার নিজস্ব তহবিল থেকে ২৪১ কোটি ৫২ লাখ টাকা ব্যয় করা হবে।

পরিকল্পনামন্ত্রী জানান, রেলের ২১টি ইঞ্জিন আধুনিকায়ন করে নবরূপ দান করা হবে। যাতে যাত্রীসেবা নিশ্চিত হয়। তিনি আরও জানান, এখন থেকে সারা দেশে সমন্বিতভাবে সরকারি অফিস স্থাপনের নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তাছাড়া ছোট, মাঝারি ও বড়- এই তিনভাবে ভাগ করে জেলা হেডকোয়ার্টারের সরকারি অফিসগুলো যাতে একই ডিজাইনের হয়, সেজন্যও নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। সূত্র জানায়, বাংলাদেশ রেলওয়ের প্রকল্পভুক্ত রেলের ২১টি ইঞ্জিন ১৯৯৫ সালে জার্মানি থেকে সংগ্রহ করা হয়েছিল। বর্তমানে এগুলো ভারি সিডিউল ওভারডিউ অবস্থায় চলাচল করছে। ফলে এগুলোর প্রাপ্যতা এবং কার্যক্ষমতা অনেকাংশে কমেছে। এ পরিপ্রেক্ষিতে ২১টি মিটারগেজ ডিজেল ইলেকট্রিক লোকোমোটিভ নবরূপায়ণ প্রকল্পটি অনুমোদন দেয়া হয়েছে। অনুমোদিত অন্য প্রকল্পগুলো হচ্ছে- বামনডাংগা (গাইবান্ধা)-শঠিবাড়ী-আফতাবগঞ্জ জেলা মহাসড়ক প্রশস্তকরণ প্রকল্প, ব্যয় ৪২৫ কোটি ৮১ লাখ টাকা। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের বিভিন্ন জোনের প্রধান সংযোগ রাস্তাগুলো প্রশস্তকরণসহ নর্দমা ও ফুটপাত নির্মাণ, ব্যয় ৩ হাজার ৮২৮ কোটি টাকা। অফিসার্স ক্লাব, ঢাকার ক্যাম্পাসে বহুতল ভবন নির্মাণ, ব্যয় ২২৮ কোটি টাকা। মানিকগঞ্জ বহুতল বিশিষ্ট সমন্বিত সরকারি অফিস ভবন নির্মাণ, ব্যয় ৯৫ কোটি ৬৫ লাখ টাকা। ঢাকার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামের অধিকতর উন্নয়ন, ব্যয় ৯৮ কোটি ৩৬ লাখ টাকা। দুস্থ শিশু প্রশিক্ষণ ও পুনর্বাসন কেন্দ্র পুনঃনির্মাণ, কোনাবাড়ী, গাজীপুর প্রকল্প, ব্যয় ৮১ কোটি ৬৬ লাখ টাকা। সন্ত্রাসবাদ মোকাবেলা ও জননিরাপত্তা নিশ্চিতকল্পে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সক্ষমতা বৃদ্ধি, ব্যয় ৭৯ কোটি ৬৬ লাখ টাকা। বৃহত্তর ফরিদপুর সেচ এলাকা উন্নয়ন, ব্যয় ২০০ কোটি ৬০ লাখ টাকা এবং ওয়েস্ট জোন এলাকায় বিদ্যুৎ বিতরণ ব্যবস্থার সম্প্রসারণ ও আপগ্রেডেশন প্রকল্পের ব্যয় ধরা হয়েছে ১ হাজার ৬৮৭ কোটি ২৮ লাখ টাকা। সভায় পরিকল্পনা সচিব মো. নূরুল আমিন, সাধারণ অর্থনীতি বিভাগের সদস্য (সিনিয়র সচিব) ড. শামসুল আলম, পরিসংখ্যান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের সচিব সৌরেন্দ্রনাথ চক্রবর্তী, আইএমইডি সচিব আবুল মনসুর মো. ফয়জুল্লাহসহ পরিকল্পনা কমিশনের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×