উদ্ভাবনে পুরস্কার পেলেন তিন নারী

  আইটি ডেস্ক ০৯ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

উদ্ভাবনে পুরস্কার পেলেন তিন নারী
পুরস্কার গ্রহণ করছেন একজন বিজয়ী

তিনটি জাতীয় সমস্যার মোবাইল অ্যাপ্লিকেশনভিত্তিক সমাধান দিয়ে শ্রেষ্ঠ উদ্ভাবকের পুরস্কার জিতেছেন তিন নারী।

উইমেন্স ইনোভেশন ক্যাম্প ২০১৮ আয়োজনে লিপি খাতুনের উইমেন হোম, তানজিনা ইসলামের ‘আমাদের শিশু আমাদের গর্ব’ এবং আফরোজা আহমেদের বিশ্ববিদ্যালয় কাউন্সিলিং ও মানসিক স্বাস্থ্যসেবা উদ্ভাবনটি এ পুরস্কার জিতেছে।

তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগ, ইউএনডিপি এবং ইউএসএইডর সহায়তায় এটুআই এবং মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় যৌথভাবে উইমেন্স ইনোভেশন ক্যাম্পের আয়োজন করে। এক বুট ক্যাম্পের মাধ্যমে এই তিনজনকে চূড়ান্ত নির্বাচন করা হয়।

প্রতিযোগিতার বিচারক ছিলেন তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের সচিব জুয়েনা আজিজ, এটুআইয়ের প্রকল্প পরিচালক এবং অতিরিক্ত সচিব মো. মোস্তাফিজুর রহমান, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব জাবেদ আহমেদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন ড. সাদেকা হালিম এবং বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের যন্ত্র প্রকৌশল বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ড. মো. আশরাফুল ইসলাম। উইমেন্স ইনোভেশন ক্যাম্প ২০১৮ আয়োজনে এক বিজয়ী পুরস্কার নিচ্ছেন

‘জাতীয় সমস্যা সমাধানে নারীর উদ্ভাবন’ স্লোগান নিয়ে বিগত দুই বছরের মতো এবারও প্রতিযোগিতাটি হয়। যেখানে বিভিন্ন পেশার নারীদের থেকে ৩১৬টি উদ্ভাবন জমা পড়েছিল। বিজয়ী তিন নারী উদ্ভাবককে এক লাখ টাকা করে পুরস্কার প্রদান করা হয়েছে।

অন্যান্য আইডিয়ার মধ্য থেকে বাস্তবায়ন উপযোগী সমাধানগুলোকে সফলভাবে বাস্তবায়নের জন্য পরবর্তীতে আর্থিক অনুদান ও কারিগরি সহায়তা প্রদান করা হবে বলে জানায় এটুআই।

কর্মজীবী নারীদের ঢাকা শহরে খালি বাসা খুঁজে দেবে ‘উইমেন হোম’। ‘আমাদের শিশু আমাদের গর্ব’ ধারণটির মাধ্যমে মূলত যৌন অত্যাচার এবং এ বিষয়ক বিভিন্ন জ্ঞানমূলক শিক্ষা অর্জনে শিশুদের সচেতনতা বৃদ্ধি করবে। যেখানে অ্যাপের মাধ্যমে যৌন-শিক্ষা ও যৌন নির্যাতন সম্পর্কে দিকনির্দেশনা দেয়া থাকবে। এটা মূলত ভিডিও গেম। যাতে খেলাচ্ছলে শিখতে পারবেন শিশুরা।

বিশ্ববিদ্যালয় কাউন্সিলিং এবং মানসিক স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করার কাজ করবে মোবাইল অ্যাপ। যাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা মানসিক এবং সামাজিক সমস্যা দ্বারা বিভিন্নভাবে প্রভাবিত হচ্ছে কিন্তু সব বিশ্ববিদ্যালয় মানসিক স্বাস্থ্যসেবা নিয়মিত প্রদানে সক্ষম নয়।

একটি অ্যাপের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা তাদের মৌলিক ও সামাজিক সমস্যা, তাদের মনস্তাত্ত্বিক অ্যাসেসমেন্ট এবং এর প্রতিকার সম্পর্কে জানতে পারবেন। বিজয়ী ধারণাগুলোকে এটুআই ইনোভেশন ফান্ডের আওতায় প্রকল্প আকারে বিবেচনাপূর্বক সফল বাস্তবায়নের জন্য অর্থায়ন করা হবে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter