এক দশক পর অ্যান্ড্রয়েড ১০-এর পরিবর্তিত সংস্করণ

এখন শুধু সংখ্যা দিয়ে পরিচিতি

বিশ্বব্যাপী স্মার্টফোনের অপারেটিং সিস্টেমের মধ্যে বহুল ব্যবহৃত এবং জনপ্রিয় ‘অ্যান্ড্রয়েড’ অপারেটিং সিস্টেম। কিছুদিনের মধ্যেই বাজারে ছাড়ার ১০ বছর পূর্ণ করতে যাচ্ছে গুগলের অপারেটিং সিস্টেমটি। দশ বছর পূর্তিতে প্রতিষ্ঠানটি আগে থেকে চলে আসা বিভিন্ন সংস্করণের মিষ্টিজাতীয় খাবারের নামের বদলে সংখ্যায় চলে এসেছে। তাই আনুষ্ঠানিকভাবে তাদের পরের সংস্করণটির নাম দিতে যাচ্ছে অ্যান্ড্রয়েড ১০। কেন এ নাম বদল, কী থাকছে অ্যান্ড্রয়েডের দশম সংস্করণে- এসব নিয়ে আজকের আয়োজন

  সাইফ আহমাদ ২৫ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেম প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই মিষ্টি বা সুস্বাদু খবারের নামে ভার্সনের নামকরণ হতো। কিটক্যাট, ললিপপ, জেলিবিন এসব মিষ্টিজাতীয় খাবারের নামেই ডাকা হতো। তবে বাজারে আসার ১০ বছর পূর্তিতে ওই নামগুলোর জায়গায় শুধু সংখ্যা স্থান পেয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার নামকরণের এ পরিবর্তন বিষয়ে ঘোষণা দেয় গুগল, দশ বছর পূর্তিতে আনুষ্ঠানিকভাবে অ্যান্ড্রয়েডের পরের সংস্করণটির নাম হবে অ্যান্ড্রয়েড ১০। শুধু নামই নয় অ্যান্ড্রয়েড লোগোতেও কিছুটা পরিবর্তন আনতে যাচ্ছে গুগল। সবুজ থেকে রং বদলে কালো ব্যবহার করা হয়েছে লোগোতে।

অ্যান্ড্রয়েডের ভাইস প্রেসিডেন্ট অব প্রোডাক্ট সামির সমেত এক বিবৃতিতে বলেন, অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন বাজারে আসার ১০ বছর পূর্তিতে নাম রাখার পদ্ধতিতে কিছু পরিবর্তন আনছি আমরা। শুরু থেকে সুস্বাদু কিছু খাবারের নামের সঙ্গে মিলিয়ে এর নাম রাখা হয়েছে। কিন্তু এবার থেকে এটি রাখা হবে সংখ্যার ক্রমানুসারে।

তিনি বলেন, কিটক্যাট, ললিপপ বা মার্শমেলো এমন নাম রাখার প্রথাটি যদিও বেশ আনন্দদায়ক তবে বিশ্বের বেশিরভাগ প্রান্তের মানুষ এসব নামের সঙ্গে পরিচিত নন। তাই সেই নামের স্বার্থকতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন অনেকেই। এ কারণেই অপারেটিং সিস্টেমটির দশম ভার্সনের নাম অ্যান্ড্রয়েড ১০ রাখা হয়েছে বলে জানান তিনি।

তিনি যোগ করেন, এখন থেকে অ্যান্ড্রয়েড-১০-এর পরে অ্যান্ড্রয়েড-১১ আসবে। এবার নামের বিষয়টি বিশ্বের সব দেশের ব্যবহারকারীদের খুব সহজেই বোধগম্য হবে।

অ্যান্ডয়েড ১০-এর কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ ফিচার

ডার্ক মোড : অ্যান্ড্রয়েড দশম সংস্করণে সব প্রি-ইনস্টল করা অ্যাপের মধ্যে থাকবে ডার্ক মোডের সুবিধা, যা ব্যবহারের ফলে অ্যামোলেড ডিসপ্লে যুক্ত মোবাইলে ব্যাটারি সেভ করতে সাহায্য করবে। ডার্ক থিম চোখের জন্য খুবই স্বস্তিদায়ক। বিশেষ করে রাতে উজ্জ্বল সাদা ব্যাকগ্রাউন্ড ব্যবহারকারীদের চোখের ঘুমের ব্যাঘাত ঘটায়। অ্যান্ড্রয়েড কিউচালিত ডিভাইস ব্যবহারকারীরা ব্যাটারি সেভার ফিচার অন করলে স্বয়ংক্রিয়ভাবে চালু হবে ডার্ক থিম।

ফাইল শেয়ারিং : অ্যান্ড্রয়েড বিটা সংস্করণে দেখা গেছে আন্ড্রয়েড ১০-এ ফাইল শেয়ারিং আরও সহজ করা হয়েছে। গ্রাহক এখন ফাইল শেয়ারিংয়ের ক্ষেত্রে দ্রুত লোডিং এবং আরও কার্যকর মেন্যু দেখতে পারবেন। দ্রুত স্মার্টফোন থেকে ফাইল শেয়ার করা যাবে। এর আগে অ্যান্ড্রয়েড বিম নামে এ ধরনের সেবা এনেছিল গুগল যা পরে বন্ধ হয়ে যায়। ইউআরএল শেয়ারিংয়ের ক্ষেত্রে লিংক কপির অপশন মেন্যুর উপরের দিকে পাওয়া যাবে।

ডেস্কটপ মোড : অ্যান্ড্রয়েড ১০ অপারেটিং সিস্টেমে নতুন ‘ডেস্কটপ মোড’ ফিচার থাকছে। এ সংস্করণে চালিত হ্যান্ডসেট সহজে ডেস্কটপের সঙ্গে যুক্ত করা যাবে। অ্যান্ড্রয়েড ১০ অপারেটিং সিস্টেমে ফোল্ডেবল স্ক্রিন সমর্থন এনেছে গুগল। অ্যান্ড্রয়েডের এ সংস্করণ ফোল্ডেবল ডিভাইসে ব্যবহার করা হলে ইউআই পজিশন এবং হোম স্ক্রিন স্বয়ংক্রিয়ভাবে পরিবর্তন হবে।

পাসওয়ার্ড ছাড়া ওয়াই-ফাই : অ্যান্ড্রয়েড ১০-এ ওয়াই-ফাই সংযোগ সুবিধা আরও উন্নত ও নিরাপদ করা হয়েছে। এখন পাসওয়ার্ড প্রদর্শন না করেই ওয়াই-ফাই নেটওয়ার্কে সংযোগ স্থাপন করতে পারবেন ব্যবহারকারীরা। অর্থাৎ কিউআর কোড স্ক্যান করে ওয়াই-ফাই নেটওয়ার্কে যুক্ত হওয়ার সুবিধা মিলবে। এ ছাড়া পারসোনাল ওয়াই-ফাই নেটওয়ার্ক শেয়ার করতে চাইলে পাসওয়ার্ড ছাড়া কিউআর কোড স্ক্যান করেই নেটওয়ার্ক আরও এক বা একাধিক জনের সঙ্গে শেয়ার করা যাবে।

ব্যক্তিগত তথ্যের সুরক্ষা ও নিরাপত্তা : গুগল জানিয়েছে, ব্যক্তিগত তথ্যের সুরক্ষার বিষয়টি সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব পেয়েছে অপারেটিং সিস্টেমটির এ সংস্করণে। ব্যবহারকারীর তথ্যের সুরক্ষা ও নিরাপত্তা নিশ্চিতে নানা চমকপ্রদ ফিচার থাকছে।

কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই বিশ্বের আড়াইশ’ কোটি অ্যান্ড্রয়েড ফোনে অ্যান্ড্রয়েড ১০ আপডেট পৌঁছাতে শুরু করবে। শুরুতে গুগল পিক্সেল সিরিজের ফোনগুলোয় এ আপডেট পৌঁছাবে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×