হোয়াটসঅ্যাপও অনিরাপদ!
jugantor
হোয়াটসঅ্যাপও অনিরাপদ!

  আইটি ডেস্ক  

২২ নভেম্বর ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক মালিকানাধীন মেসেজিং প্ল্যাটফরম হোয়াটসঅ্যাপে কথোপকথন কিংবা বার্তা আদানপ্রদানকে ব্যবহারকারীরা অন্য যে কোনো প্ল্যাটফর্মের চেয়ে নিরাপদ মনে করেন।

এমনটি হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষও দাবি করছে, এটি সিকিওরড ম্যাসেজিং সার্ভিস। এমনকি টেলিগ্রাম ও সিগন্যালের সঙ্গে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে একই কথা দাবি করে স্বয়ং হোয়াটসঅ্যাপও। কিন্তু এর মাঝেই কিছু ত্রুটি প্রকাশ্যে এসেছে। যা ব্যবহারকারীর গোপনীয়তা ভঙ্গ করতে পারে। যার জেরে এ চ্যাটিং অ্যাপে আপনার নিরাপত্তা নিয়েও চিন্তায় পড়তে পারেন।

প্রশ্ন উঠছে, হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজের আইওএস ব্যাকআপ নিয়ে। যার সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে আইক্লাইড ড্রাইভ। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, আপনি যখন অ্যাপের মাধ্যমে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করেন, তখন হোয়াটসঅ্যাপের পক্ষে এন্ড টু এন্ড এনক্রিপশনের বিষয়টি সুনিশ্চিত করা হয়।

কিন্তু আইক্লাইড ড্রাইভে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যাকআপের সময় সেই একই স্ট্যান্ডার্ডের এনস্ক্রিপশনের দাবি করা হয় না। এর ফলে আপনার চ্যাটসহ হোয়াটসঅ্যাপে পাঠানো নানা ছবি ও তথ্য কিন্তু বিপদের মুখে পড়ছে। তবে শুধু চ্যাট বা হোয়াটসঅ্যাপের সাধারণ কয়েকটি ফাইল নয়, এ সিকিওরিটি ভঙ্গের বিষয়টির গুরুতর প্রভাব রয়েছে।

হোয়াটসঅ্যাপও অনিরাপদ!

 আইটি ডেস্ক 
২২ নভেম্বর ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক মালিকানাধীন মেসেজিং প্ল্যাটফরম হোয়াটসঅ্যাপে কথোপকথন কিংবা বার্তা আদানপ্রদানকে ব্যবহারকারীরা অন্য যে কোনো প্ল্যাটফর্মের চেয়ে নিরাপদ মনে করেন।

এমনটি হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষও দাবি করছে, এটি সিকিওরড ম্যাসেজিং সার্ভিস। এমনকি টেলিগ্রাম ও সিগন্যালের সঙ্গে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে একই কথা দাবি করে স্বয়ং হোয়াটসঅ্যাপও। কিন্তু এর মাঝেই কিছু ত্রুটি প্রকাশ্যে এসেছে। যা ব্যবহারকারীর গোপনীয়তা ভঙ্গ করতে পারে। যার জেরে এ চ্যাটিং অ্যাপে আপনার নিরাপত্তা নিয়েও চিন্তায় পড়তে পারেন।

প্রশ্ন উঠছে, হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজের আইওএস ব্যাকআপ নিয়ে। যার সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে আইক্লাইড ড্রাইভ। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, আপনি যখন অ্যাপের মাধ্যমে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করেন, তখন হোয়াটসঅ্যাপের পক্ষে এন্ড টু এন্ড এনক্রিপশনের বিষয়টি সুনিশ্চিত করা হয়।

কিন্তু আইক্লাইড ড্রাইভে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যাকআপের সময় সেই একই স্ট্যান্ডার্ডের এনস্ক্রিপশনের দাবি করা হয় না। এর ফলে আপনার চ্যাটসহ হোয়াটসঅ্যাপে পাঠানো নানা ছবি ও তথ্য কিন্তু বিপদের মুখে পড়ছে। তবে শুধু চ্যাট বা হোয়াটসঅ্যাপের সাধারণ কয়েকটি ফাইল নয়, এ সিকিওরিটি ভঙ্গের বিষয়টির গুরুতর প্রভাব রয়েছে।