গৃহায়ন কর্তৃপক্ষের সম্পত্তি দখলমুক্ত করা হবে

শ ম রেজাউল করিম

  যুগান্তর রিপোর্ট ১৭ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম
গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম। ফাইল ছবি

গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, জাতীয় গৃহায়ন কর্তৃপক্ষের (এনএইচএ) বেদখল সম্পত্তি দখলমুক্ত করা হবে। এ সংস্থার জমি বা সম্পত্তি রাষ্ট্রীয় সম্পদ। সব ধরনের প্রভাব-প্রতিপত্তি উপেক্ষা করে রাষ্ট্রীয় এ সম্পদ রক্ষা করা হবে। এজন্য সবাইকে তৎপর থাকতে হবে। বুধবার এনএইচএ’র কার্যক্রম পর্যবেক্ষণে গিয়ে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী বলেন, সাধারণত বিত্তবৈভবের মালিক ও প্রভাবশালীরা সরকারি সম্পত্তি অবৈধভাবে দখল করে থাকে। এজন্য প্রয়োজনে তারা আদালতের আশ্রয়সহ নানা কৌশল গ্রহণ করে। এসব অবৈধ দখলদার আদালতের আশ্রয় নিলে সরকারের পক্ষ থেকে অভিজ্ঞ, দক্ষ ও বিজ্ঞ আইনজীবীর সহায়তা নেয়া হবে। বিদ্যমান মামলা নিষ্পত্তির জন্যও এসব বিজ্ঞ আইনজীবীর সহায়তা নিয়ে দ্রুত মামলার নিষ্পত্তি করা হবে। কথিত প্রভাবশালীদের অবৈধ তৎপরতা বন্ধ করতে হলে কর্মক্ষেত্রে সততা, স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও দুর্নীতিমুক্ত পরিবেশ নিশ্চিত করতে হবে। একই সঙ্গে জনগণের সেবা নিশ্চিত করতে কাজের গতিশীলতা আরও বাড়াতে হবে।

তিনি আরও বলেন, সাংবিধানিকভাবেই আবাসন মানুষের মৌলিক অধিকার। এ অধিকার নিশ্চিত করার দায়িত্ব গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয় এবং তার অধীনস্ত সংস্থাগুলোর। তাই মন্ত্রণালয় বা সংস্থাগুলোতে জনবান্ধব পরিবেশ গড়ে তুলতে হবে। এখানে এসে জনগণ যাতে কোনো হয়রানির শিকার না হন, সেদিকে দৃষ্টি রাখতে হবে। ভূমি বা ফ্ল্যাটের নামজারিতে যাতে কেউ কষ্ট না পায়, বা অহেতুক কালক্ষেপনের শিকার না হয়- সে বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের সজাগ থাকতে হবে। এনএইচএ’র পর্যবেক্ষণ সভায় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- গৃহায়ন ও গণপূর্ত সচিব মো. শহীদ উল্লা খন্দকার, জাতীয় গৃহায়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান মো. রাশিদুল ইসলাম, মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ড. মো. আফজাল হোসেন, জাতীয় গৃহায়ন কর্তৃপক্ষের সদস্য ফজলুল কবীর প্রমুখ।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×