টাস্কফোর্সের অভিযান: পুরান ঢাকার ২৯ ভবনের ইউটিলিটি সার্ভিস বন্ধ

  যুগান্তর রিপোর্ট ০৫ মার্চ ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

কেমিক্যাল সামগ্রী সরানো হচ্ছে
কেমিক্যাল সামগ্রী সরানো হচ্ছে। ছবি: যুগান্তর

রাজধানীর পুরান ঢাকার আবাসিক ভবনে গড়ে তোলা ২৯টি কেমিক্যাল ও প্লাস্টিক গোডাউনের ইউটিলিটি সার্ভিস বন্ধ করে দিয়েছে টাস্কফোর্স। ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) নেতৃত্বে সরকারি বিভিন্ন সংস্থা নিয়ে গঠিত টাস্কফোর্স সোমবার বেলা সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর দেড়টা পর্যন্ত গ্যাস-পানি ও বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে।

টাস্কফোর্সের চারটি টিম একযোগে পুরান ঢাকার নাজিরাবাজার, সিদ্দিকবাজার, হাজারীবাগ, তাঁতীবাজার ও চকবাজার এলাকায় এই অভিযান পরিচালনা করে।

টাস্কফোর্সের টিম-৩ অভিযান চালায় নাজিরাবাজার ও সিদ্দিকবাজার এলাকায়। অভিযানে এলাকার ৭টি ভবনের তিনটি সিলিন্ডারের দোকান ও ৩টি কেমিক্যালের গোডাউন ও প্লাস্টিক কারখানার গ্যাস-বিদ্যুৎ ও পানির সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়। অভিযানের সঙ্গে থাকা বংশাল থানার ওসি সাহিদুর রহমান জানান, সিদ্দিকবাজারের হাজী ওসমান গনি রোডে দুপুর ১টা পর্যন্ত ৭টি সিলিন্ডার, প্লাস্টিক ও কেমিক্যালের দোকানের সব ধরনের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে। এর আগে তাদের সতর্ক করা হলেও কেউ মালামাল স্থানান্তর করেননি।

অন্যদিকে হাজারীবাগ এলাকার কেমিক্যাল গোডাউন অপসারণ অভিযান চালায় টাস্কফোর্সের টিম-১। এই টিমের নেতৃত্ব দেন ঢাকা জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সুবর্ণা শিরিন। ডিএসসিসির কর্মকর্তা জুনায়েদ আমিন জানান, হাজারীবাগ এলাকায় ৮টি আবাসিক ভবনে অভিযান পরিচালনা করা হয়। সেখানে মেটাডোর, রোক্সি, ডায়মন্ডসহ ৮টি গোডাউন ছিল। ওই ৮টি ভবনে থাকা গোডাউনের গ্যাস-বিদ্যুৎ ও পানির সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়। তাঁতীবাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৭টি আবাসিক ভবনে থাকা প্লাস্টিকের কেমিক্যাল গোডাউনের গ্যাস-বিদ্যুৎ ও পানির সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে টাস্কফোর্সের টিম-৫।

টিম-৫ পরিচালক ডিএসসিসির কর্মকর্তা উদয়ন দেওয়ান জানান, তাঁতীবাজার এলাকার ৭টি কারখানার গ্যাস-বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে। এর মধ্যে একটা ব্যাটারির কারখানা ছিল। টাস্কফোর্সের টিম-২ এর সঙ্গে থাকা ডিএসসিসির স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. মোস্তাফিজুর রহমান জানান, চকবাজারের বিভিন্ন আবাসিক ভবনে অভিযান চালানো হয়েছে। এর মধ্যে ৮টি প্লাস্টিক ও কসমেটিক্স গোডাউনের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে। তবে টাস্কফোর্সের টিম-৪ সোমবার কোনো অভিযান চালায়নি। টাস্কফোর্সের এই অভিযানগুলোতে ডিএসসিসি কর্মকর্তাসহ বিস্ফোরক অধিদফতর, পরিবেশ অধিদফতর, ঢাকা জেলা প্রশাসন, তিতাস গ্যাস, ঢাকা ওয়াসা ও ডিপিডিসি, ফায়ার সার্ভিস ও সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশ ও র‌্যাব সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

২০ ফেব্রুয়ারি রাতে পুরান ঢাকার চকবাজারের চুড়িহাট্টার ৬৪ নম্বর হাজী ওয়াহেদ ম্যানশনে ভয়াবহ আগুনের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৭১ জন মারা গেছেন। প্রাথমিক তদন্তে আগুনের কারণ হিসেবে কেমিক্যালকেই দায়ী করা হচ্ছে। তাই পুরান ঢাকার আবাসিক ভবনগুলো থেকে কেমিক্যাল সরানোর নির্দেশ দিয়েছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন। মেয়র সাঈদ খোকনের নির্দেশে টাস্কফোর্স গঠন করে গত বৃহস্পতিবার থেকে পুরান ঢাকার আবাসিক ভবন থেকে কেমিক্যাল গোডাউন অপসারণের অভিযান শুরু হয়। ১ এপ্রিল পর্যন্ত এই অভিযান চলবে বলে জানিয়েছে ডিএসসিসি।

ঘটনাপ্রবাহ : চকবাজার আগুনে মৃত্যুর মিছিল

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×