বগুড়ায় স্বামী গ্রেফতার

বিয়ের এক মাসের মাথায় লাশ হল কিশোরী বধূ

  বগুড়া ব্যুরো ১৪ মে ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

বিয়ের এক মাসের মাথায় লাশ হল কিশোরী বধূ
বগুড়ার নন্দীগ্রামে ঘাতক সন্দেহে গ্রেফতার স্বামী রকির সঙ্গে নিহত ফারজানা খাতুন

বিয়ের এক মাসের মাথায় লাশ হল বগুড়ার নন্দীগ্রামের কিশোরী বধূ ফারজানা খাতুন (১৫)। পারশুন গ্রামের এই নববধূকে শ্বাসরোধে হত্যার পর বাড়ির পাশে ড্রেনে ফেলা দেয়া হয়।

পুলিশ সোমবার সকালে লাশ উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। ঘটনার পর বাড়িতে তালা দিয়ে ফারজানার শ্বশুরবাড়ির লোকজন পালিয়ে গেছে। তবে পুলিশ মেয়েটির স্বামী দিনমজুর গোলাম রব্বানী রকিকে (২২) গ্রেফতার করেছে।

ফারজানার বাবা যৌতুকের জন্য তার মেয়েকে হত্যার অভিযোগ করলেও রকি বলেছেন, দাম্পত্য কলহের কারণে মারধরের এক পর্যায়ে ফারজানা মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে। রকির এটা দ্বিতীয় বিয়ে।

নন্দীগ্রামের থালতা মাঝগ্রাম ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবদুল মতিন ও স্থানীয়রা জানান, পারশুন গ্রামের মঞ্জুরুল ইসলামের ছেলে রকি প্রায় এক মাস আগে পার্শ্ববর্তী আগাপুর গ্রামের আবুল কালাম আজাদের মেয়ে স্থানীয় মাদ্রাসার সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রী ফারজানাকে বিয়ে করে। প্রায় ১৫ দিন আগে ফারজানা স্বামীর বাড়িতে আসে। সোমবার তার লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত ফারজানার বাবা আবুল কালাম আজাদ সাংবাদিকদের বলেন, রকি প্রথম স্ত্রীকে তালাক দেয়ার পর তার মেয়েকে বিয়ে করে। বিয়ের সময় ২৫ হাজার টাকা যৌতুক দেয়ার কথা হয়। যৌতুকের টাকার জন্য তার মেয়েকে হত্যা করা হয়েছে।

প্রতিবেশীরা বলছেন, ফারজানা শ্বশুরবাড়িতে আসার পরই স্বামীর বিরুদ্ধে পরনারীতে আসক্তির অভিযোগ করেন। এ নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে বিরোধ চলছিল।

কুমিরা পুলিশ কর্মকর্তা এসআই নূর মোহাম্মদ বলেছেন, ফারজানা খাতুনের গলায় ও গালে আঘাতের চিহ্ন দেখা গেছে। নন্দীগ্রাম থানার ওসি শওকত কবীর জানান, রকিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সে দাম্পত্য কলহের কারণে স্ত্রী ফারজানাকে হত্যার কথা স্বীকার করেছে। ফারজানার বাবা রকিরকে প্রধান আসামি করে থানায় হত্যা মামলা করেছেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×