যৌতুক না দেয়ার জের: নরসিংদীতে স্ত্রীর হাত কাটল পাষণ্ড স্বামী

  নরসিংদী প্রতিনিধি ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

পাষণ্ড স্বামী

যৌতুক না দেয়ায় দীপা সূত্রধরের (২৭) ডান হাত কেটে ফেলেছে তার পাষণ্ড স্বামী বিষ্ণু সূত্রধর। শ্বশুরের পেনশন থেকে ১০ লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে বিষ্ণু। কিন্তু যৌতুক না পেয়ে সোমবার রাত ৩টার দিকে সে স্ত্রীর ডান হাত কেটে বিচ্ছিন্ন করে।

এ ঘটনায় মঙ্গলবার রাতে দীপার ছোট ভাই রাজীব সূত্রধর নরসিংদী সদর মডেল থানায় বিষ্ণুকে আসামি করে হত্যা চেষ্টা মামলা করেন। মঙ্গলবার রাতেই তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। বুধবার আদালতে ১৬৪ ধারায় বিষ্ণু জবানবন্দি দিয়েছে। স্ত্রীর পরকীয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে সে এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে জানিয়েছে।

নরসিংদী শহরের পশ্চিম কান্দাপাড়া এলাকার বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) অবসরপ্রাপ্ত সদস্য দিলীপ সূত্রধরের মেয়ে দীপা। বিষ্ণুর বাড়ি কুড়িগ্রামে। পরিবারের সদস্যরা জানান, দীপার বাবা দিলীপ পেনশনের কিছু টাকা পেয়েছেন। শ্বশুরের সেই টাকার প্রতি লোভ জন্মায় বিষ্ণুর। সম্প্রতি সে ১০ লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে। কিন্তু দীপা একথা বাবাকে বলতে অস্বীকৃতি জানান। সোমবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে বিষ্ণু তার শ্বশুরবাড়ি নরসিংদীর পশ্চিম কান্দাপাড়ায় আসে।

রাতের খাওয়া-দাওয়া শেষে পরিবারের সবার সঙ্গে রাত ১টা পর্যন্ত আড্ডা দেয়। রাত ৩টার দিকে আকস্মিক বিষ্ণু চাপাতি দিয়ে দীপার ডান হাত শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন করে ফেলে। তার ডান গাল ও বাম হাতেও কোপ লাগে। গুরুতর আহতাবস্থায় প্রথমে তাকে নরসিংদী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এরপর সেখান থেকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও পরে পঙ্গু হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বর্তমানে ঢাকা হেলথ কেয়ার হাসপাতালে তাকে ভর্তি করা হয়েছে।

দীপা বলেন, ঘুমিয়ে ছিলাম। হঠাৎ চাপাতি দিয়ে বিষ্ণু আমার হাত কেটে ফেলে। এরপর সে আমাকে জবাই করতে চেয়েছিল। সেই আঘাতেই আমার গাল ও বাম হাতে কোপ লাগে। আমাকে খুন করার পর সে আমার দুই ছেলেমেয়েকেও খুন করতে চেয়েছিল। ঢাকা হেলথ কেয়ার হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. শরীফ বলেন, দীপার ডান হাত বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। এছাড়া তার মুখের ডান পাশে লম্বালম্বিভাবে মাংস আলাদা হয়ে গেছে। বাম হাতও আঘাতপ্রাপ্ত হয়েছে।

নরসিংদী সদর মডেল থানার উপপরিদর্শক রুহুল আমিন বলেন, এ ঘটনায় আহতের ছোট ভাই রাজীব বাদী হয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগে মামলা করেছেন। বিষ্ণু রায়কে গ্রেফতার দেখিয়ে বুধবার আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। নরসিংদী সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সৈয়দুজ্জামান বলেন, বিষ্ণু আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছে। স্ত্রীর পরকীয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে সে এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে আদালতে জানিয়েছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×