খালেদা জিয়ার মুক্তি চেয়ে নতুন কর্মসূচি

সারা দেশে লিফলেট বিতরণ কাল

গ্যাস ও জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধির উদ্যোগ গণবিরোধী : রিজভী

  যুগান্তর রিপোর্ট ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

বিএনপির কারাবন্দি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে লিফলেট বিতরণের নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়েছে। আগামীকাল বৃহস্পতিবার ঢাকাসহ সারা দেশে বিএনপির বক্তব্য সম্বলিত লিফলেট বিতরণ করবে দলটি। প্রতিটি জেলায় স্থানীয় নেতারা কর্মসূচি পালন করবেন। মঙ্গলবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে নতুন এ কর্মসূচির কথা জানান দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আতাউর রহমান ঢালী, সহ-দফতর সম্পাদক তাইফুল ইসলাম টিপু, বেলাল আহমদ, মুক্তিযোদ্ধা দলের সভাপতি ইসতিয়াক আজিজ উলফাত, নির্বাহী কমিটির সদস্য আমিনুল ইসলাম প্রমুখ।

দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবিতে ধারাবাহিক কর্মসূচি পালন করছে বিএনপি। তিন দফায় আট দিন কর্মসূচি পালন শেষে বৃহস্পতিবার দলটি ঢাকায় সমাবেশ করতে চাইলে পুলিশ অনুমতি দেয়নি। প্রতিবাদে শনিবার ঢাকা মহানগরীতে কালো পতাকা প্রদর্শন কর্মসূচি পালন করলে সেখানেও পুলিশি বাধার সম্মুখীন হয় বিএনপি। এর প্রতিবাদে সোমবার সারা দেশে প্রতিবাদ মিছিল করে দলটি।

গ্যাস ও জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির উদ্যোগের সমালোচনা করে রিজভী বলেন, বিদ্যুতের অভাবে সেচ মৌসুমে কৃষিকাজ চরমভাবে ব্যাহত হচ্ছে। তার ওপর সরকার গ্যাস ও জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধির উদ্যোগ নিচ্ছে, তা শুধু ধ্বংসাত্মক নয়, গরিব মানুষকে পথে বসিয়ে দেয়ার ষড়যন্ত্র। সরকারের এই গণবিরোধী নীতির বিরুদ্ধে বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রতীক খালেদা জিয়া রুখে দাঁড়াবেন বলে আগেই তাকে কারারুদ্ধ করা হয়েছে।

‘দেশি-বিদেশি ষড়যন্ত্রকারীরা সরকার হটানোর ষড়যন্ত্র করছে’- আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের এমন বক্তব্যের সমালোচনা করেন রিজভী। তিনি বলেন, রাষ্ট্রক্ষমতা দীর্ঘ মেয়াদে ভোগ করতে নীলনকশা করছে আওয়ামী লীগ। বিএনপি চেয়ারপারসনকে মিথ্যা ও জাল নথির মাধ্যমে সাজানো মামলায় কারাগারে পাঠানো সেই নীলনকশারই অংশ। বিএনপিসহ বিরোধী দলগুলোকে সুযোগ না দিয়ে নিজেরা (ক্ষমতাসীন দল) একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে সরকারি খরচে নির্বাচনী প্রচার চালাচ্ছে। এতে প্রমাণ করে আওয়ামী লীগই ক্ষমতা ধরে রাখতে সুপরিকল্পিত ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। তিনি বলেন, সুতরাং সরকারই ষড়যন্ত্রের হেডমাস্টার। যারা ক্ষমতা জোর করে ধরে রেখে গণতন্ত্রকে নির্বাসনে পাঠিয়ে বিরোধী দলকে রাজপথে লাঠিপেটা করে তারাই বলছেন ষড়যন্ত্রের কথা। সত্যিই উদ্ভট উটের পিঠে চলেছে স্বদেশ।

রিজভী বলেন, খালেদা জিয়াকে প্রতিহিংসার জেদে আটকে রাখার পরিণতি তিনি (প্রধানমন্ত্রী) টের পাচ্ছেন না। পতনের হাতছানি শেখ হাসিনা অনুধাবন করতে পারছেন না। তিনি বলেন, মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকারও এখন কারাবন্দি। অপশাসনের মারাত্মক বিভীষিকায় সারা দেশের জনগণও যেন বন্দিশিবিরে আটকানো।

রিজভী বলেন, বিরোধী দলের ওপর দোষ চাপানোর মধ্য দিয়েই আওয়ামী লীগ দিন পার করছে। সেজন্য পুলিশ দিয়ে ক্ষমতা ধরে রেখেছে। এই দেশকে বাঁচাতে হলে ঐক্যবদ্ধভাবে বর্তমান দুর্নীতিবাজ সরকারের মূলোৎপাটন করতে হবে।

তিনি অভিযোগ করেন, কুষ্টিয়া জেলা বিএনপি নেতা আবদুল করিম এবং গোলাম রাব্বানীকে সোমবার রাতে ডিবি পুলিশ গ্রেফতার করলেও তারা বিষয়টি স্বীকার করছে না। এ সময় অবিলম্বে তাদের জনসমক্ষে হাজির করার দাবি জানান রিজভী।

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter