ই-গভর্নেন্স: বাংলাদেশকে পাঁচ বছরে সেরা পঞ্চাশে চান জয়

  যুগান্তর রিপোর্ট ২১ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

বাংলাদেশকে পাঁচ বছরে সেরা পঞ্চাশে চান জয়
রাজধানীর আইসিটি টাওয়ারে রোববার প্রতিবন্ধীদের মাঝে ল্যাপটপ বিতরণ করেন সজীব ওয়াজেদ জয়। ছবি: যুগান্তর

ডিজিটাল সেবার বিস্তৃতি ও উন্নতি ঘটিয়ে বাংলাদেশ আগামী পাঁচ বছরে জাতিসংঘের ই-গভর্নেন্স উন্নয়ন সূচকে সেরা ৫০টি দেশের তালিকায় থাকবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তিবিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়। তিনি বলেন, গত কয় বছরে আমরা (ডিজিটাল গভর্নেন্স ইনডেক্সে) ৪০-৫০ ধাপ এগিয়েছি। আগামী ৫ বছরে আমরা কেন আরও ৫০ ধাপ এগোবো না?

রাজধানীর আইসিটি টাওয়ারে রোববার সকালে ই-গভর্নমেন্ট মাস্টার প্ল্যান রিপোর্ট প্রকাশ ও এটুআইয়ের তিনটি নাগরিক সেবা উদ্বোধনের সময় তিনি এসব কথা বলেন। সজীব ওয়াজেদ জয় বলেন, ইনফো সরকার-৩ প্রকল্পের আওতায় সরকার সারা দেশে ইউনিয়ন পর্যায়ে ফাইবার অপটিক ক্যাবল দিয়ে ব্রডব্যান্ড সেবা পৌঁছে দিচ্ছে। প্রায় সব কটি শহরেই রয়েছে ফোরজি সেবা।

দেশের ‘আইটি সিস্টেম’ আধুনিক দাবি করে প্রধানমন্ত্রীর আইসিটি উপদেষ্টা বলেন, সরকার ২০২১ সালের মধ্যে ৩০০টি পৌরসভায় ডিজিটাল সেবা পৌঁছে দিতে চায়। তিনি বলেন, ডিজিটাল মিউনিসিপ্যালিটি সার্ভিসে আমরা আরও অনেক সেবা যোগ করতে চাই। ২০২১ সালের মধ্যে নাগরিক সেবাগুলো মোবাইল ফোনে আঙুলের ছোঁয়ায় অথবা ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টারের মাধ্যমে আমরা নাগরিক সেবাগুলো পৌঁছে দিতে চাই।

আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, সরকারের সব সেবা আমরা একই প্লাটফর্মে নিয়ে আসতে চাই। পর্যায়ক্রমে সরকারের ৩ হাজার সেবাকে আমরা একসঙ্গে নিয়ে আসব। অনুষ্ঠানে আইসিটির ‘লার্নিং অ্যান্ড আর্নিং’ প্রকল্পের আওতায় ১০০ দৃষ্টি প্রতিবন্ধীকে ল্যাপটপ দেয়া হয়। পলক বলেন, দুই বছরের মধ্যে আইসিটি বিভাগ ৪০ হাজার ফ্রিল্যান্সার তৈরি করবে। তাদের জন্য ৬ থেকে ১ বছর মেয়াদি প্রশিক্ষণও দেয়া হবে। স্কুল পর্যায়ে শিশু-কিশোরদের প্রযুক্তি জ্ঞানে দক্ষ করতে ২০২১ সালের মধ্যে ৬৪টি শেখ কামাল আইটি ইউকিউবেশন সেন্টার স্থাপন করবে আইসিটি বিভাগ। বিশেষ অতিথি স্থানীয় সরকারমন্ত্রী তাজুল ইসলাম সরকারের ডিজিটাল সেবাগুলোর অটোমেশন চালু করতে আইসিটি বিভাগকে অনুরোধ করেন।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×