২৯৭ দিনে নিহত ২৪৯৬: সড়কে প্রাণ গেল জাতীয় হ্যান্ডবল দলের সোহানের
jugantor
২৯৭ দিনে নিহত ২৪৯৬: সড়কে প্রাণ গেল জাতীয় হ্যান্ডবল দলের সোহানের
একুশের অনুষ্ঠানে যাওয়ার পথে হালুয়াঘাটে প্রাণ গেল ৪ জনের

  যুগান্তর ডেস্ক  

২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জাতীয় হ্যান্ডবল দলের গোলরক্ষক সোহানুর রহমান সোহান ও তার বন্ধু সোলাইমান ইসলাম জয় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন। শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টায় দিকে কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার হোসেনাবাদ বাজারে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

এ ছাড়া দেশের ৭ জেলায় প্রাণ গেছে ১৩ জনের। নিহতদের মধ্যে ময়মনসিংহের হালুয়াঘাটে বিএনপির সমাবেশে যোগ দিতে এসে চার শিক্ষার্থী, বরিশালের বাবুগঞ্জে জাতীয় পার্টি নেতা, শরীয়তপুরের গোসাইরহাটে দুই কলেজছাত্র, শেরপুরের নকলায় দুই স্কুলছাত্র, মাদারীপুরে দুই তরুণ, গাইবান্ধায় এনজিওকর্মী ও খাগড়াছড়ির দীঘিনালায় একজন নিহত হয়েছে।

নরসিংদীর পলাশে পিকনিকের বাস উল্টে আটজন আহত হয়েছে। এ নিয়ে ২৯৭ দিনে প্রাণ গেল ২৪৯৬ জনের।

যুগান্তর প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

কুষ্টিয়া ও দৌলতপুর : সোহান ও জয় মোটরসাইকেলে কুষ্টিয়া শহরের দিকে যাচ্ছিলেন। পথে দৌলতপুর উপজেলার হোসেনাবাদে শ্যালো ইঞ্জিনচালিত গাড়ির সঙ্গে সংঘর্ষে সোহান ও জয় মারাত্মক আহত হন। তাদের কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় জয় মারা যান। পরে ঢাকা নেয়ার পথে রাজবাড়ীতে সোহানও মারা যান।

তাদের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের আরএমও ডা. তাপস কুমার সরকার।

সোহান দৌলতপুর উপজেলার ফিলিপনগর ইউনয়নের বাহিরমাদী গ্রামের কালু মণ্ডলের ছেলে ও জয় একই গ্রামের শহিদুল ইসলাম ছেলে। সোহান ছুটিতে বাড়িতে এসেছিলেন।

জয় যশোর পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র ছিলেন। জয়ের লাশ কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। সোহানের লাশ দৌলতপুরের নিজ বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

হালুয়াঘাট (ময়মনসিংহ) : হালুয়াঘাট উপজেলার রঘুনাথপুরে শুক্রবার বিকালে ইমাম ট্রেইলওয়েজ ও ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার সংঘর্ষে নিহত চারজন হলেন- রহেলা গ্রামের সজীব ও নজরুল ইসলামের ছেলে সাকিব, নিশ্চিন্তপুরের সোহাগ মিয়ার ছেলে মিজান ও বাঘমারার নুর ইসলামের ছেলে আরিফুল।

এ ঘটনায় আহতরা হলেন নিশ্চিন্তপুরের আলমগীরের ছেলে লিমন, আবুল কাশেমের ছেলে শামীম, আলমগীর হোসেনের ছেলে ইমন, আতুয়াজঙ্গল গ্রামের আবদুল হামিদের ছেলে জাহাঙ্গীর ও শহীদের ছেলে হৃদয়। হতাহতরা সবাই স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী।

উপজেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক আলী আজগর জানান, নিহত ও আহতরা সবাই বিএনপির কর্মী-সমর্থক। একুশে ফেব্রুয়ারি উদযাপন উপলক্ষে উপজেলা বিএনপি ও সহযোগী সংগঠনের অনুষ্ঠানে আসার পথে এ দুর্ঘটনা ঘটে। উন্নত চিকিৎসার জন্য আহতদের ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

বাবুগঞ্জ (বরিশাল) : বাবুগঞ্জে একুশে ফেব্রুয়ারি উপলক্ষে ভাষাশহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বাড়ি ফেরা পথে পিকআপ ভ্যান চাপায় নিহত হয়েছে জাতীয় পার্টির নেতা কাজী ওমর আলী। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন মো. মাহাবুব নামে একজন।

শুক্রবার দিনগত রাত দেড়টায় ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কের রহমতপুর ব্রিজে এ দুর্ঘটনা ঘটে। কাজী ওমর আলী রহমতপুর ইউনিয়নের রাজকর গ্রামের মোতাহার কাজীর ছেলে ও ৬নং ওয়ার্ডের জাতীয় পার্টির সভাপতি।

শরীয়তপুর : গোসাইরহাট উপজেলায় মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নিহত ছাত্রলীগ নেতাসহ দু’জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে আরও একজন। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮টায় কোদালপুর ইউনিয়নের সাইক্ষ্যা ব্রিজের পাশে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- গোসাইরহাট সামসুর রহমান বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স তৃতীয় বর্ষের ছাত্র, কোদালপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সরদারপাড়ার বাচ্চু খানের ছেলে রিবল মাহমুদ রাজ ও একই কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র কোদালপুর ইউনিয়নের বেপারীপাড়ার সায়েদ হোসেন বেপারীর ছেলে সাইফুল ইসলাম।

শেরপুর : নকলায় ট্রাকের সঙ্গে মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে দুই স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। শুক্রবার উপজেলার উরফা ইউনিয়নের বারমাইসা এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হল- দক্ষিণ বারমাইসা এলাকার সেলিম মিয়ার ছেলে ও মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি বিদ্যা নিকেতনের ৮ম শ্রেণির ছাত্র হামিদুল ও হাসনখিলা নয়াপাড়ার আবদুল হাকিমের ছেলে ও লয়খা নব উচ্চ বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্র মারুফ হোসেন।

মাদারীপুর : সদর উপজেলার পাঁচখোলা ইউনিয়নের মধ্যপাঁচখোলায় বৃহস্পতিবার বিকালে মোটরসইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নিহত হয়েছে দু’জন। এছাড়া গুরুতর আহত হয়েছে তিনজন। নিহতরা হলেন- মাদারীপুর সদর উপজেলার ইদ্রিস মাতুব্বরের ছেলে হৃদয় মাতুব্বর ও ফারুক শিকদারের ছেলে রাজন শিকদার।

গাইবান্ধা : সুন্দরগঞ্জে শুক্রবার ট্রাকচপায় নিহত এনজিওকর্মী মিজানুর রহমান ক্ষত্রিয়পাড়ার নুরুল ইসলামের ছেলে। সুন্দরগঞ্জ-রংপুর সড়কে বৈদ্যনাথ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কাছে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

খাগড়াছড়ি : দীঘিনালায় টমটম (ইজিবাইবক) উল্টে নিহত সোনারাম চাকমা বাবুছড়া ইউনিয়নের কিয়াংঘাট এলাকার জীবন কুমার ছেলে। শুক্রবার উপজেলার উদাল বাগান এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পলাশ (নরসিংদী) : পলাশ উপজেলার ঘোড়াশালে পিকনিকের বাস উল্টে আটজন গুরুতর আহত হয়েছেন। শুক্রবার টঙ্গী-সিলেট সড়কের ঘোড়াশাল শহীদ ময়েজউদ্দিন সেতুর টোল প্লাজার পূর্ব পাশে এ দুর্ঘটনা ঘটে। সিলেট থেকে পিকনিক শেষে বাসটি গাজীপুর যাচ্ছিল।

২৯৭ দিনে নিহত ২৪৯৬: সড়কে প্রাণ গেল জাতীয় হ্যান্ডবল দলের সোহানের

একুশের অনুষ্ঠানে যাওয়ার পথে হালুয়াঘাটে প্রাণ গেল ৪ জনের
 যুগান্তর ডেস্ক 
২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জাতীয় হ্যান্ডবল দলের গোলরক্ষক সোহানুর রহমান সোহান ও তার বন্ধু সোলাইমান ইসলাম জয় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন। শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টায় দিকে কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার হোসেনাবাদ বাজারে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

এ ছাড়া দেশের ৭ জেলায় প্রাণ গেছে ১৩ জনের। নিহতদের মধ্যে ময়মনসিংহের হালুয়াঘাটে বিএনপির সমাবেশে যোগ দিতে এসে চার শিক্ষার্থী, বরিশালের বাবুগঞ্জে জাতীয় পার্টি নেতা, শরীয়তপুরের গোসাইরহাটে দুই কলেজছাত্র, শেরপুরের নকলায় দুই স্কুলছাত্র, মাদারীপুরে দুই তরুণ, গাইবান্ধায় এনজিওকর্মী ও খাগড়াছড়ির দীঘিনালায় একজন নিহত হয়েছে।

নরসিংদীর পলাশে পিকনিকের বাস উল্টে আটজন আহত হয়েছে। এ নিয়ে ২৯৭ দিনে প্রাণ গেল ২৪৯৬ জনের।

যুগান্তর প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

কুষ্টিয়া ও দৌলতপুর : সোহান ও জয় মোটরসাইকেলে কুষ্টিয়া শহরের দিকে যাচ্ছিলেন। পথে দৌলতপুর উপজেলার হোসেনাবাদে শ্যালো ইঞ্জিনচালিত গাড়ির সঙ্গে সংঘর্ষে সোহান ও জয় মারাত্মক আহত হন। তাদের কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় জয় মারা যান। পরে ঢাকা নেয়ার পথে রাজবাড়ীতে সোহানও মারা যান।

তাদের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের আরএমও ডা. তাপস কুমার সরকার।

সোহান দৌলতপুর উপজেলার ফিলিপনগর ইউনয়নের বাহিরমাদী গ্রামের কালু মণ্ডলের ছেলে ও জয় একই গ্রামের শহিদুল ইসলাম ছেলে। সোহান ছুটিতে বাড়িতে এসেছিলেন।

জয় যশোর পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র ছিলেন। জয়ের লাশ কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। সোহানের লাশ দৌলতপুরের নিজ বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

হালুয়াঘাট (ময়মনসিংহ) : হালুয়াঘাট উপজেলার রঘুনাথপুরে শুক্রবার বিকালে ইমাম ট্রেইলওয়েজ ও ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার সংঘর্ষে নিহত চারজন হলেন- রহেলা গ্রামের সজীব ও নজরুল ইসলামের ছেলে সাকিব, নিশ্চিন্তপুরের সোহাগ মিয়ার ছেলে মিজান ও বাঘমারার নুর ইসলামের ছেলে আরিফুল।

এ ঘটনায় আহতরা হলেন নিশ্চিন্তপুরের আলমগীরের ছেলে লিমন, আবুল কাশেমের ছেলে শামীম, আলমগীর হোসেনের ছেলে ইমন, আতুয়াজঙ্গল গ্রামের আবদুল হামিদের ছেলে জাহাঙ্গীর ও শহীদের ছেলে হৃদয়। হতাহতরা সবাই স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী।

উপজেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক আলী আজগর জানান, নিহত ও আহতরা সবাই বিএনপির কর্মী-সমর্থক। একুশে ফেব্রুয়ারি উদযাপন উপলক্ষে উপজেলা বিএনপি ও সহযোগী সংগঠনের অনুষ্ঠানে আসার পথে এ দুর্ঘটনা ঘটে। উন্নত চিকিৎসার জন্য আহতদের ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

বাবুগঞ্জ (বরিশাল) : বাবুগঞ্জে একুশে ফেব্রুয়ারি উপলক্ষে ভাষাশহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বাড়ি ফেরা পথে পিকআপ ভ্যান চাপায় নিহত হয়েছে জাতীয় পার্টির নেতা কাজী ওমর আলী। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন মো. মাহাবুব নামে একজন।

শুক্রবার দিনগত রাত দেড়টায় ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কের রহমতপুর ব্রিজে এ দুর্ঘটনা ঘটে। কাজী ওমর আলী রহমতপুর ইউনিয়নের রাজকর গ্রামের মোতাহার কাজীর ছেলে ও ৬নং ওয়ার্ডের জাতীয় পার্টির সভাপতি।

শরীয়তপুর : গোসাইরহাট উপজেলায় মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নিহত ছাত্রলীগ নেতাসহ দু’জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে আরও একজন। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮টায় কোদালপুর ইউনিয়নের সাইক্ষ্যা ব্রিজের পাশে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- গোসাইরহাট সামসুর রহমান বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স তৃতীয় বর্ষের ছাত্র, কোদালপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সরদারপাড়ার বাচ্চু খানের ছেলে রিবল মাহমুদ রাজ ও একই কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র কোদালপুর ইউনিয়নের বেপারীপাড়ার সায়েদ হোসেন বেপারীর ছেলে সাইফুল ইসলাম।

শেরপুর : নকলায় ট্রাকের সঙ্গে মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে দুই স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। শুক্রবার উপজেলার উরফা ইউনিয়নের বারমাইসা এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হল- দক্ষিণ বারমাইসা এলাকার সেলিম মিয়ার ছেলে ও মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি বিদ্যা নিকেতনের ৮ম শ্রেণির ছাত্র হামিদুল ও হাসনখিলা নয়াপাড়ার আবদুল হাকিমের ছেলে ও লয়খা নব উচ্চ বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্র মারুফ হোসেন।

মাদারীপুর : সদর উপজেলার পাঁচখোলা ইউনিয়নের মধ্যপাঁচখোলায় বৃহস্পতিবার বিকালে মোটরসইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নিহত হয়েছে দু’জন। এছাড়া গুরুতর আহত হয়েছে তিনজন। নিহতরা হলেন- মাদারীপুর সদর উপজেলার ইদ্রিস মাতুব্বরের ছেলে হৃদয় মাতুব্বর ও ফারুক শিকদারের ছেলে রাজন শিকদার।

গাইবান্ধা : সুন্দরগঞ্জে শুক্রবার ট্রাকচপায় নিহত এনজিওকর্মী মিজানুর রহমান ক্ষত্রিয়পাড়ার নুরুল ইসলামের ছেলে। সুন্দরগঞ্জ-রংপুর সড়কে বৈদ্যনাথ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কাছে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

খাগড়াছড়ি : দীঘিনালায় টমটম (ইজিবাইবক) উল্টে নিহত সোনারাম চাকমা বাবুছড়া ইউনিয়নের কিয়াংঘাট এলাকার জীবন কুমার ছেলে। শুক্রবার উপজেলার উদাল বাগান এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পলাশ (নরসিংদী) : পলাশ উপজেলার ঘোড়াশালে পিকনিকের বাস উল্টে আটজন গুরুতর আহত হয়েছেন। শুক্রবার টঙ্গী-সিলেট সড়কের ঘোড়াশাল শহীদ ময়েজউদ্দিন সেতুর টোল প্লাজার পূর্ব পাশে এ দুর্ঘটনা ঘটে। সিলেট থেকে পিকনিক শেষে বাসটি গাজীপুর যাচ্ছিল।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন