করোনার বিবর্তিত সব রূপের প্রভাবই এক
jugantor
বিশ্বে আক্রান্ত ৬ কোটি ১৪ লাখ
করোনার বিবর্তিত সব রূপের প্রভাবই এক
৪৬ হাজার নমুনা থেকে ১২ হাজারের বেশি রূপ শনাক্ত

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৮ নভেম্বর ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

করোনাভাইরাসের বিবর্তিত কোনো রূপ নিয়েই চিন্তত নন বিজ্ঞানীরা। কারণ কোনো রূপই মানুষের শরীরে নতুন ধরনের কোনো সমস্যা তৈরি করেনি।

ইউনিভার্সিটি কলেজ লন্ডনের গবেষক ফ্রাঙ্কয়িস বালাউক্স ও লুসি ভ্যান বলেন, ৯৯টি দেশ থেকে সংগ্রহ করা ৪৬ হাজার নমুনা থেকে করোনার ১২ হাজারের বেশি বিবর্তিত রূপ পাই আমরা। কিন্তু সংক্রমণের মাত্রার ক্ষেত্রে এগুলোর তেমন কোনো পার্থক্য দেখা যায়নি। তারা বলেন, আগে মনে করা হতো, করোনার কোনো রূপ খুব দ্রুত সংক্রমিত হয়। কিন্তু আমরা দেখেছি, তা সঠিক নয়। প্রায় সব ধরনের রূপই একই গতিতে ছড়াচ্ছে। তবে এটি ভালো দিক নাকি খারাপ, তা এখনই আমাদের পক্ষে বলা সম্ভব নয়।

এদিকে বিশ্বে প্রতিদিনই পাল্লা দিয়ে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। গেল ২৪ ঘণ্টায় আরও প্রায় সাড়ে পাঁচ লাখ মানুষ এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এতে রোগীর সংখ্যা ৬ কোটি ১৪ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। একই সময়ে মারা গেছেন আরও প্রায় ১১ হাজার মানুষ। প্রাণহানি ১৪ লাখ পেরিয়ে গেছে।

বিশেষ করে যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের বিভিন্ন দেশে করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ রূপ নিয়েছে। এসব দেশে বাড়ছে মৃত্যু হারও। বৃহস্পতিবার যুক্তরাষ্ট্রে ১৩শ’র বেশি মারা গেছেন। এছাড়া ইতালি ও মেক্সিকোতে প্রায় সাড়ে ৮শ’ করে এবং ভারত, ব্রাজিল, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য ও পোল্যান্ডে ৫শ’র বেশি করে মৃত্যু হয়েছে।

এক গবেষণায় দেখা গেছে, করোনাভাইরাসের কোনো বিবর্তিত রূপই বড় ধরনের সমস্যা তৈরি করে না। খবর বিবিসি, এএফপি ও রয়টার্সসহ বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমের।

বাংলাদেশ সময় শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টা পর্যন্ত ওয়ার্ল্ডওমিটারসের তথ্য অনুযায়ী- বিশ্বে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৬ কোটি ১৪ লাখ ৪৮ হাজার ৮৪২ জন। মারা গেছেন ১৪ লাখ ৪০ হাজার ৫২৫ জন। অবস্থা আশঙ্কাজনক ১ লাখ ৫ হাজার ১০ জনের। সুস্থ হয়েছেন ৪ কোটি ২৫ লাখ ২৬ হাজার ২৪০ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ লাখ ৪১ হাজার ৮৪২ জন। একই সময়ে বিশ্বে ১০ হাজার ৯৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে শুধু যুক্তরাষ্ট্রেই মারা গেছেন ১ হাজার ৩১১ জন।

বিশ্ব তালিকায় আক্রান্ত ও মৃত্যুতে শীর্ষে থাকা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে মোট আক্রান্ত ১ কোটি ৩২ লাখ ৪৯ হাজার ৪২০, মারা গেছেন ২ লাখ ৬৯ হাজার ৫৪৬ জন। তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে থাকা ভারতে রোগী ৯৩ লাখ ৯ হাজার ৮৫৮, মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৩৫ হাজার ৭৭৩ জনের। বিশ্বে তৃতীয় স্থানে থাকা ব্রাজিলে আক্রান্ত ৬২ লাখ ৪ হাজার ৫২১, মারা গেছেন ১ লাখ ৭১ হাজার ৪২৪ জন। চতুর্থ স্থানে রাশিয়ায় করোনা রোগীর সংখ্যা ২২ লাখ ১৫ হাজার ৫৪৭ জন। দেশটিতে মারা গেছেন ৩৮ হাজার ৫৫৮ জন। পঞ্চম স্থানে ফ্রান্সে করোনা রোগীর সংখ্যা ২১ লাখ ৪৩ হাজার ৬৬০। দেশটিতে মারা গেছেন ৫০ হাজার ৯৫৭ জন।

বিশ্বে আক্রান্ত ৬ কোটি ১৪ লাখ

করোনার বিবর্তিত সব রূপের প্রভাবই এক

৪৬ হাজার নমুনা থেকে ১২ হাজারের বেশি রূপ শনাক্ত
 যুগান্তর ডেস্ক 
২৮ নভেম্বর ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

করোনাভাইরাসের বিবর্তিত কোনো রূপ নিয়েই চিন্তত নন বিজ্ঞানীরা। কারণ কোনো রূপই মানুষের শরীরে নতুন ধরনের কোনো সমস্যা তৈরি করেনি।

ইউনিভার্সিটি কলেজ লন্ডনের গবেষক ফ্রাঙ্কয়িস বালাউক্স ও লুসি ভ্যান বলেন, ৯৯টি দেশ থেকে সংগ্রহ করা ৪৬ হাজার নমুনা থেকে করোনার ১২ হাজারের বেশি বিবর্তিত রূপ পাই আমরা। কিন্তু সংক্রমণের মাত্রার ক্ষেত্রে এগুলোর তেমন কোনো পার্থক্য দেখা যায়নি। তারা বলেন, আগে মনে করা হতো, করোনার কোনো রূপ খুব দ্রুত সংক্রমিত হয়। কিন্তু আমরা দেখেছি, তা সঠিক নয়। প্রায় সব ধরনের রূপই একই গতিতে ছড়াচ্ছে। তবে এটি ভালো দিক নাকি খারাপ, তা এখনই আমাদের পক্ষে বলা সম্ভব নয়।

এদিকে বিশ্বে প্রতিদিনই পাল্লা দিয়ে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। গেল ২৪ ঘণ্টায় আরও প্রায় সাড়ে পাঁচ লাখ মানুষ এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এতে রোগীর সংখ্যা ৬ কোটি ১৪ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। একই সময়ে মারা গেছেন আরও প্রায় ১১ হাজার মানুষ। প্রাণহানি ১৪ লাখ পেরিয়ে গেছে।

বিশেষ করে যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের বিভিন্ন দেশে করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ রূপ নিয়েছে। এসব দেশে বাড়ছে মৃত্যু হারও। বৃহস্পতিবার যুক্তরাষ্ট্রে ১৩শ’র বেশি মারা গেছেন। এছাড়া ইতালি ও মেক্সিকোতে প্রায় সাড়ে ৮শ’ করে এবং ভারত, ব্রাজিল, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য ও পোল্যান্ডে ৫শ’র বেশি করে মৃত্যু হয়েছে।

এক গবেষণায় দেখা গেছে, করোনাভাইরাসের কোনো বিবর্তিত রূপই বড় ধরনের সমস্যা তৈরি করে না। খবর বিবিসি, এএফপি ও রয়টার্সসহ বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমের।

বাংলাদেশ সময় শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টা পর্যন্ত ওয়ার্ল্ডওমিটারসের তথ্য অনুযায়ী- বিশ্বে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৬ কোটি ১৪ লাখ ৪৮ হাজার ৮৪২ জন। মারা গেছেন ১৪ লাখ ৪০ হাজার ৫২৫ জন। অবস্থা আশঙ্কাজনক ১ লাখ ৫ হাজার ১০ জনের। সুস্থ হয়েছেন ৪ কোটি ২৫ লাখ ২৬ হাজার ২৪০ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ লাখ ৪১ হাজার ৮৪২ জন। একই সময়ে বিশ্বে ১০ হাজার ৯৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে শুধু যুক্তরাষ্ট্রেই মারা গেছেন ১ হাজার ৩১১ জন।

বিশ্ব তালিকায় আক্রান্ত ও মৃত্যুতে শীর্ষে থাকা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে মোট আক্রান্ত ১ কোটি ৩২ লাখ ৪৯ হাজার ৪২০, মারা গেছেন ২ লাখ ৬৯ হাজার ৫৪৬ জন। তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে থাকা ভারতে রোগী ৯৩ লাখ ৯ হাজার ৮৫৮, মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৩৫ হাজার ৭৭৩ জনের। বিশ্বে তৃতীয় স্থানে থাকা ব্রাজিলে আক্রান্ত ৬২ লাখ ৪ হাজার ৫২১, মারা গেছেন ১ লাখ ৭১ হাজার ৪২৪ জন। চতুর্থ স্থানে রাশিয়ায় করোনা রোগীর সংখ্যা ২২ লাখ ১৫ হাজার ৫৪৭ জন। দেশটিতে মারা গেছেন ৩৮ হাজার ৫৫৮ জন। পঞ্চম স্থানে ফ্রান্সে করোনা রোগীর সংখ্যা ২১ লাখ ৪৩ হাজার ৬৬০। দেশটিতে মারা গেছেন ৫০ হাজার ৯৫৭ জন।