কুড়িগ্রাম-৩ উপনির্বাচন

আ’লীগ-জাপা প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে আহত ২০

জাপা প্রার্থীর নির্বাচন বর্জনের হুমকি

  কুড়িগ্রাম ও উলিপুর প্রতিনিধি ২২ জুলাই ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

কুড়িগ্রাম
ছবি-যুগান্তর

কুড়িগ্রাম-৩ আসনের উপনির্বাচনকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগ ও জাতীয় পার্টির প্রার্থীর কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষ ও ধাওয়া-পাল্টাধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ সময় গাড়ি-মোটরসাইকেল ও জাপা অফিস ভাংচুরের ঘটনা ঘটে।

সংঘর্ষে উভয় পক্ষের অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন। খবর পেয়ে কুড়িগ্রাম থেকে অতিরিক্ত দাঙ্গা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে এলাকায় এখনও থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। এ ঘটনার পর জাতীয় পার্টির প্রার্থী ডা. আক্কাছ আলী সরকার নির্বাচন বর্জনের হুমকি দিয়েছেন।

জানা গেছে, জাতীয় পার্টির প্রার্র্থী অধ্যাপক ডা. আক্কাছ আলীর পক্ষে উপজেলার তবকপুর ইউনিয়নের সাদুল্যা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে কয়েকটি ইউনিয়নের এজেন্টদের নিয়ে শুক্রবার বিকালে নির্বাচনী দায়িত্ব পালন সংক্রান্ত মতবিনিময় সভা চলছিল।

এর পাশ দিয়ে যাচ্ছিল আওয়ামী লীগ প্রার্থী অধ্যাপক এমএ মতিনের পক্ষে নৌকা প্রতীকের একটি মোটরসাইকেল র‌্যালি। এ সময় উভয় পক্ষের উসকানিমূলক স্লোগানকে কেন্দ্র করে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া ও সংঘর্ষের সৃষ্টি হয়।

সংঘর্ষে ধামশ্রেনী ইউনিয়ন জাপার নেতা আবদুর রশিদ (৫০), জাহাঙ্গীর মুন্সি (৩৮), তবকপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ৮নং ওয়ার্ড সভাপতি এনামুল হক জিন্নাহ (৫০), যুবলীগ নেতা বিপুল মিয়াসহ (৩৭) বেশ কয়েকজন আহত হন। এ সময় বেশ কয়েকটি মোটরসাইকেল ভাংচুর করা হয়।

এ খবর ছড়িয়ে পড়লে আওয়ামী লীগ ও জাতীয় পার্টির কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। সন্ধ্যার দিকে পৌর শহরের গুনাইগাছ মোড়ে নির্বাচনী প্রচারকালে জাপা প্রার্থী অধ্যাপক ডা. আক্কাছ আলী সরকারের গাড়িবহরে হামলা চালায় আওয়ামী লীগ প্রার্থীর সমর্থকরা।

এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ জাতীয় পার্টির নেতাকর্মীরা উলিপুর এমএস স্কুল অ্যান্ড কলেজের সামনে শেখ রাসেল শিশুকিশোর সংগঠনের নেতা প্রতীক (২৪) ও কৌশিককে (২৬) মারধর করে। পরে ক্ষমতাসীন দলের নেতাকর্মীরা সংগঠিত হয়ে রাত ১১টার দিকে উপজেলা জাপা কার্যালয়ে হামলা চালায়।

এ সময় পৌর জাপার সভাপতি আবদুল কাইয়ুম (৬০), আবদুল হাইসহ (৪৮) ৬-৭ জন আহত হন। এ ছাড়া জাপা কার্যালয়ের সামনে থাকা ডা. আক্কাছ আলী সরকারের পাজেরো গাড়ি ও কর্মীদের মোটরসাইকেল এবং অফিসের আসবাবপত্র ভাংচুর করা হয়।

খবর পেয়ে কুড়িগ্রাম থেকে অতিরিক্ত দাঙ্গা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে লাঠিচার্জ করলে ছাত্রলীগ নেতা জুলফিকার আলী জয়সহ ৫-৬ জন আহত হন। এদের মধ্যে গুরুতর আহত জুলফিকার আলী জয়কে কুড়িগ্রাম সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

উলিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোয়াজ্জেম হোসেন জানান, এ ঘটনায় কেউ থানায় লিখিত অভিযোগ করেননি। তারপরও আমরা খোঁজখবর রাখছি, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

সহকারী রিটার্নিং অফিসার জাহাঙ্গীর আলম রাকিব জানান, শনিবার সকালে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে নির্বাচন সংশ্লিষ্ট সবার সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। সেখানে এ ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি যাতে না ঘটে সে জন্য কঠোর হুশিয়ারি দেয়া হয়েছে।

এই অনাকাক্সিক্ষত ঘটনার জন্য নির্বাচন কমিশনও বিব্রত। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মাঠে তৎপর রয়েছে। যে কোনো ঘটনা তাৎক্ষণিকভাবে মোকাবেলার জন্য কমিশন প্রস্তুত রয়েছে।

নির্বাচন কমিশনারের মতবিনিময় : কুড়িগ্রাম-৩ শূন্য আসনের উপনির্বাচন উপলক্ষে শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় জেলা প্রশাসন সম্মেলন কক্ষে মতবিনিময় সভা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন নির্বাচন কমিশনার রফিকুল ইসলাম।

কুড়িগ্রামের জেলা প্রশাসক সুলতানা পারভীনের সভাপতিত্বে সভায় নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দিন আহমদ, রংপুর অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (রাজস্ব) আনওয়ার হোসেন, রংপুর ভারপ্রাপ্ত উপ-মহাপুলিশ পরিদর্শক বশির আহম্মদ, পুলিশ সুপার মেহেদুল করিম, রংপুর আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং অফিসার জিএম সাহাতাব উদ্দিন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় জাতীয় পার্টির প্রার্থী ও আওয়ামী লীগের প্রার্থী একে অপরের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন।

জাতীয় পার্টির প্রার্থীর নির্বাচন বর্জনের হুমকি : শনিবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে নির্বাচন বর্জনের হুমকি দিয়েছেন জাতীয় পার্টির প্রার্থী ডা. আক্কাছ আলী সরকার। তিনি অভিযোগ করেন, আমার নির্বাচনী প্রচারে আওয়ামী লীগ সমর্থকরা বাধা দিচ্ছে।

তারা উলিপুর উপজেলা জাতীয় পার্টি কার্যালয় ভাংচুর করেছে। আমার এজেন্ট সমাবেশে হামলা চালানো হয়েছে। এ রকম পরিস্থিতিতে নির্বাচনে যাওয়া সম্ভব নয়। বিষয়টি পার্টির চেয়ারম্যানকে অবগত করেছি।

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter