শিক্ষা উপকরণ নিয়ে বাণিজ্য

  যুগান্তর ডেস্ক    ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

রাজধানীর বিভিন্ন স্কুলে শিশু শিক্ষার্থীদের ওপর বাড়তি বই চাপানোর প্রতিযোগিতা চলছে। জাতীয় শিক্ষাক্রম অনুসারে দ্বিতীয় শ্রেণীতে যেখানে মাত্র কয়েকটি বই পড়ানোর কথা, সেখানে নিয়ম অমান্য করে কোনো কোনো স্কুলের প্লে-গ্রুপ, নার্সারি, কেজি শ্রেণীতেই ১০টির বেশি বই পড়ানোর খবর পাওয়া গেছে। প্লে-গ্রুপ কিংবা নার্সারির শিশুকে যখন ১০টি করে বই পড়তে দেয়া হয় তখন স্বাভাবিকভাবেই বই ও পড়ার প্রতি শিশুদের এক ধরনের আতঙ্ক তৈরি হয়। এ আতঙ্ক সহজে দূর হয় না। অনেক দিন ধরেই শিক্ষাবিদরা বলে আসছেন, শিশুদের আনন্দময় পরিবেশে শিক্ষা প্রদান করতে হবে, যাতে প্লে-গ্রুপ কিংবা নার্সারির শিশুরা আপন মনে খেলাধুলা করতে করতে শিক্ষার সঙ্গে পরিচিত হতে পারে। পরবর্তী শ্রেণীগুলোতেও শিশুরা আনন্দময় পরিবেশে পাঠ গ্রহণ করবে এটাই ছিল সবার প্রত্যাশা। কিন্তু বাস্তবে দেখা যাচ্ছে, বিভিন্ন স্কুলে শিশুদের পাঠ গেলানো হচ্ছে। অর্থাৎ একের পর এক মুখস্থ করানো হচ্ছে সবকিছু।

প্লে-গ্রুপ কিংবা নার্সারিতে দশটির বেশি বই পাঠ্য করার পেছনে ওইসব স্কুলের শিক্ষকদের মহৎ কোনো উদ্দেশ্য নেই। উদ্দেশ্য হল বাণিজ্য। যেসব প্রকাশকের বই তারা পাঠ্য করেন সেসব প্রকাশকের পক্ষ থেকে তারা পেয়ে থাকেন বিশেষ ধরনের উপহার। অর্থাৎ যত বেশি বই তত বেশি উপহার। বইয়ের চাপে শিক্ষার্থীদের কেমন দশা হয়েছে, শিক্ষকদের এসব দেখার সময় কোথায়?

মোহাম্মদ আসাদ তুহিন, বনানী, ঢাকা

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×