রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে বৈঠক শেষে বাণিজ্যমন্ত্রী

বৈদ্যুতিক সামগ্রী ও চামড়া শিল্পে বিনিয়োগ করতে চায় ফিলিপাইন

প্রকাশ : ২৪ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  যুগান্তর রিপোর্ট

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, ফিলিপাইন বাংলাদেশে বৈদ্যুতিক সামগ্রী, অ্যাগ্রো ফুড প্রসেসিং ও চামড়া শিল্পে বিনিয়োগে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষিত স্পেশাল ইকোনমিক জোনেই তারা এসব খাতে বিনিয়োগে ইচ্ছুক। পাশাপাশি বাংলাদেশ থেকে তারা ওষুধ ক্রয়ে আগ্রহ দেখিয়েছে।

ঢাকায় নিযুক্ত ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত ভিসেনতি ভিভেনসিও টি বেনডিলোর সঙ্গে মতবিনিময় করে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন বাণিজ্যমন্ত্রী। বুধবার সচিবালয়ে বাণিজ্যমন্ত্রীর কার্যালয়ে দ্বিপক্ষীয় এ মতবিনিময় অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় বাণিজ্য সচিব মো. মফিজুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন। টিপু মুনশি সাংবাদিকদের বলেন, মতবিনিময়কালে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ উন্নয়নসহ স্বার্থসংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়। এ সময় ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূতকে সে দেশের ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের জন্য প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নেয়ার আহ্বান জানানো হয়। জবাবে ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত বলেন, আগামী দিনগুলোতে উভয় দেশের বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বৃদ্ধির জন্য প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করা হবে।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বর্তমানে ফিলিপাইনের সঙ্গে বাংলাদেশের বাণিজ্য খুব বেশি নয়। সেবা খাতে ফিলিপাইনের কিছু জনবল বাংলাদেশে কাজ করছে। বাংলাদেশ ফিলিপাইনে মূলত তৈরি পোশাক শিল্পের এক্সেসরিজ, ওষুধসহ কিছু পণ্য রফতানি করে আসছে। এ মুহূর্তে ৭ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের ওষুধ রফতানি হলেও এ খাতে বাংলাদেশের বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করা হবে। তিনি দুই দেশের বাণিজ্যের গতিবিধি উল্লেখ করে বলেন, ২০১৭-১৮ অর্থবছরে বাংলাদেশ ফিলিপাইনে ৪৭.০৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের পণ্য রফতানি করেছে। একই সময়ে ৮.০৭ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের পণ্য আমদানি করেছে। উভয় দেশ বাণিজ্য বৃদ্ধি করতে আগ্রহী।