ইউল্যাবে ৮ম এসএসইএএসআর আন্তর্জাতিক সম্মেলন
jugantor
ইউল্যাবে ৮ম এসএসইএএসআর আন্তর্জাতিক সম্মেলন

   

১৪ জুন ২০১৯, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস বাংলাদেশে (ইউল্যাব) শুরু হল ৮ম এসএসইএএসআর আন্তর্জাতিক সম্মেলন-২০১৯। এ বছরের সম্মেলনের প্রতিপাদ্য- ‘নদী ও ধর্ম : দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার সাংস্কৃতিক সম্পর্ক’। বৃহস্পতিবার ইউল্যাব মিলনায়তনে এ সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হয়েছে। উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি ও সম্মানিত অতিথি ছিলেন ভারতীয় দূতাবাসের হাইকমিশনার রিভা গাঙ্গুলী দাশ।

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, এ সম্মেলনে গবেষকদের সম্মিলিত চিন্তার মধ্য দিয়ে আমরা এগিয়ে যাওয়ার পথ খুঁজে পাব। উদ্বোধনী অধিবেশনে ভারতীয় হাইকমিশনার রিভা গাঙ্গুলী দাশ দু’দেশের মধ্যে সাংস্কৃতিক মিলগুলো তুলে ধরেন। শিক্ষামন্ত্রী আমন্ত্রিত অতিথিদের নিয়ে প্রদীপ প্রজ্বালনের মাধ্যমে সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।

অনুষ্ঠানে ইউল্যাবের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এইচএম জহিরুল হক শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন। মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ভারতের জাতীয় জাদুঘরের মহাপরিচালক ও ভারত সরকারের সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন এনএমআইয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. বিআর মানী। অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন সম্মেলনের সভাপতি ও ইউল্যাবের সেন্টার ফর আর্কিওলজিক্যাল স্টাডিজের পরিচালক অধ্যাপক ড. শাহনাজ হুসনে জাহান ও এসএসইএএসআরের সভাপতি অধ্যাপক ড. অমরজিভ লোচন, বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের সদস্য প্রফেসর ড. সাজ্জাদ হোসেন । ইউল্যাব বোর্ড অব ট্রাস্টিজের বিশেষ উপদেষ্টা অধ্যাপক ইমরান রহমানের ধন্যবাদ জ্ঞাপনের মধ্য দিয়ে সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষ হয়। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।

ইউল্যাবে ৮ম এসএসইএএসআর আন্তর্জাতিক সম্মেলন

  
১৪ জুন ২০১৯, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস বাংলাদেশে (ইউল্যাব) শুরু হল ৮ম এসএসইএএসআর আন্তর্জাতিক সম্মেলন-২০১৯। এ বছরের সম্মেলনের প্রতিপাদ্য- ‘নদী ও ধর্ম : দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার সাংস্কৃতিক সম্পর্ক’। বৃহস্পতিবার ইউল্যাব মিলনায়তনে এ সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হয়েছে। উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি ও সম্মানিত অতিথি ছিলেন ভারতীয় দূতাবাসের হাইকমিশনার রিভা গাঙ্গুলী দাশ।

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, এ সম্মেলনে গবেষকদের সম্মিলিত চিন্তার মধ্য দিয়ে আমরা এগিয়ে যাওয়ার পথ খুঁজে পাব। উদ্বোধনী অধিবেশনে ভারতীয় হাইকমিশনার রিভা গাঙ্গুলী দাশ দু’দেশের মধ্যে সাংস্কৃতিক মিলগুলো তুলে ধরেন। শিক্ষামন্ত্রী আমন্ত্রিত অতিথিদের নিয়ে প্রদীপ প্রজ্বালনের মাধ্যমে সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।

অনুষ্ঠানে ইউল্যাবের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এইচএম জহিরুল হক শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন। মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ভারতের জাতীয় জাদুঘরের মহাপরিচালক ও ভারত সরকারের সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন এনএমআইয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. বিআর মানী। অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন সম্মেলনের সভাপতি ও ইউল্যাবের সেন্টার ফর আর্কিওলজিক্যাল স্টাডিজের পরিচালক অধ্যাপক ড. শাহনাজ হুসনে জাহান ও এসএসইএএসআরের সভাপতি অধ্যাপক ড. অমরজিভ লোচন, বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের সদস্য প্রফেসর ড. সাজ্জাদ হোসেন । ইউল্যাব বোর্ড অব ট্রাস্টিজের বিশেষ উপদেষ্টা অধ্যাপক ইমরান রহমানের ধন্যবাদ জ্ঞাপনের মধ্য দিয়ে সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষ হয়। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।