বিয়ের পরও উত্ত্যক্ত করায় ঝিনাইদহে মুয়াজ্জিন খুন

প্রেমিকাসহ গ্রেফতার ২

  ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ২০ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ঝিনাইদহে মসজিদের মুয়াজ্জিন সোহেল রানাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। লাশ উদ্ধারের ৫ ঘণ্টার মধ্যে হত্যারহস্য উদঘাটন করা হয়। গ্রেফতার করা হয়েছে প্রেমিকা জুলিয়া খাতুন ও তার স্বামী রাজু আহম্মদকে। আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে প্রেমিকা জুলিয়া। জবানবন্দি রেকর্ড করেছেন ঝিনাইদহ চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. মিজানুর রহমান। উদ্ধার করা হয়েছে হত্যাকারীদের রক্তমাখা জামা-কাপড়, হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত চাপাতি ও নিহতের মোবাইল ফোন। জুলিয়ার অন্যত্র বিয়ে হওয়ার পরও তাকে টেলিফোনে উত্ত্যক্ত করত সাবেক প্রেমিক সোহেল রানা। এ কারণেই তাকে হত্যা করা হয়।

ঝিনাইদহ পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে বুধবার দুপুরে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান পুলিশ সুপার মো. হাসানুজ্জামান পিপিএম। অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মিলু মিয়া বিশ্বাস, সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কনক কুমার, জেলার বিশেষ শাখার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মীর শরিফুল হক ও সদর থানার ওসি মিজানুর রহমান খান।

পুলিশ সুপার বলেন, নিহতের শয়নকক্ষ থেকে প্রেমপত্রসহ কিছু কাগজপত্র উদ্ধার করা হয়। সেই সূত্র ধরে মঙ্গলবার দুপুরে প্রেমিকা জুলিয়াকে শ্বশুরবাড়ি থেকে আটক করা হয়। রাত সোয়া ৮টায় আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয় জুলিয়া। এরপর হত্যারহস্য বেরিয়ে আসে বলে জানান তিনি। বুধবার সকালে হত্যাকাণ্ডের প্রধান আসামি জুলিয়ার স্বামী রাজু আহম্মদকে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বাগুটিয়া গ্রাম থেকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশ সুপার বলেন, সোহেল রানা জুলিয়ার সাবেক প্রেমিক। বিয়ের আগে জুলিয়ার সঙ্গে দৈহিক সম্পর্ক হয় তার। পরবর্তীকালে রাজু আহম্মদের সঙ্গে বিয়ে হয় জুলিয়ার। রাজু সোহেলের সঙ্গে জুলিয়ার সম্পর্কের বিষয়টি জানতে পারে। জুলিয়ার বিয়ের পরও সোহেল তাকে টেলিফোনে উত্ত্যক্ত করত।

এরপরই সোহেলকে হত্যার পরিকল্পনা করে রাজু। মঙ্গলবার তাকে হত্যা করা হয়। জুলিয়ার বাবার নাম আবদুল হাকিম। বাড়ি কালিগঞ্জ উপজেলার বলরামপুর গ্রামে। রাজু আহম্মদ ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বাগুটিয়া গ্রামের চান্দ আলীর ছেলে। আর সোহেল রানার বাড়ি কোটচাঁদপুরের লক্ষ্মীপুর গ্রামে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×