বিনিয়োগের জন্য অনুকূল পরিবেশ জরুরি

-সালমান এফ রহমান

  যুগান্তর রিপোর্ট ১২ জুলাই ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

অনুকূল পরিবেশ

প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগবিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান বলেছেন, দেশের উদ্যোক্তারা অনেক কিছু করতে পারে। গার্মেন্ট শিল্পের মাধ্যমে সেটি প্রমাণ হয়েছে।

তবে বিনিয়োগের মাধ্যমে কিছু করার জন্য অনুকূল পরিবেশ দরকার। আর বতর্মান সরকার সেই পরিবেশ তৈরি করে দিয়েছে।

রাজধানীর হোটেল রেডিসনে বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিডা) আয়োজিত ‘উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও দক্ষতা উন্নয়ন’ প্রকল্পের প্রশিক্ষণের সমাপনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। প্রকল্পের স্লোগান- তারুণ্যের শক্তি, বাংলাদেশের সমৃদ্ধি। ২০২০ সালের মধ্যে মাঠপর্যায়ে ২৪ হাজার উদ্যোক্তা সৃষ্টি এ প্রকল্পের লক্ষ্য।

বিডার নির্বাহী চেয়ারম্যান কাজী এম আমিনুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব নজিবুর রহমান, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব সাজ্জাদুল হাসান ও এডিজিবিষয়ক মুখ্য সমন্বয়ক আবুল কালাম আজাদ। অনুষ্ঠানে ৬৪ জন প্রশিক্ষকের হাতে সনদ তুলে দেয়া হয়।

সালমান এফ রহমান বলেন, বাংলাদেশের উদ্যোক্তারা অনেক কিছু করতে পারে। এ জন্য অনুকূল পরিবেশ তৈরি করে দিতে হয়। উদাহরণ দিয়ে তিনি বলেন, ১৯৮২ সালে দেশে গার্মেন্ট ব্যবসা শুরু হয়। ওই সময় অনুকূল পরিবেশ তৈরি করে দেয়া হয়েছিল। যে কারণে তৈরি পোশাক খাত বিশ্ববাজারে জায়গা করে নিয়েছে। তিনি আরও বলেন, বর্তমান সরকার দশ বছরে দেশের উন্নয়নে অনেক কাজ করেছে। ব্যবসার পরিবেশ তৈরি করে দিয়েছে। যে কারণে মোট দেশজ উৎপাদনের (জিডিপি) প্রবৃদ্ধি ৮ শতাংশ ছাড়িয়ে গেছে।

তরুণদের উদ্দেশে সালমান এফ রহমান বলেন, তৈরি হওয়ার জন্য নিজের ওপর বিশ্বাস রাখতে হবে। এরপর দেশের ওপর বিশ্বাস করতে হবে। এ জন্য দেশের ইতিহাস জানা জরুরি। তার মতে, আমাদের সামনে চতুর্থ শিল্প বিপ্লব আসছে। এতে চ্যালেঞ্জ-সম্ভাবনা দুটিই রয়েছে। আর এ জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে। এ ক্ষেত্রে তিনি বাংলা, ইংরেজির পাশাপাশি আরও একটি ভাষা শেখার ওপর জোর দেন।

নজিবুর রহমান বলেন, তরুণ উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও দক্ষতা উন্নয়নে কাজ করছে বিডা। এই প্রকল্পের মাধ্যমে সমৃদ্ধ হবে দেশের তরুণ সমাজ এবং দেশব্যাপী গড়ে উঠবে নতুন নতুন উদ্যোক্তা। তার মতে, প্রশিক্ষকদের দায়িত্ব হবে মাঠপর্যায়ে নতুন উদ্যোক্তা সৃষ্টি করা এবং সবসময় তাদের সহযোগিতা ও মনোবল বৃদ্ধি করা।

আবুল কালাম আজাদ বলেন, তরুণরাই একটি দেশের প্রাণশক্তি। তারুণ্যের শক্তি ও গতিশীলতায় একটি দেশ উন্নয়নের চরম শিখরে পৌঁছে যেতে পারে। এই মানসিকতা নিয়ে এগোতে হবে যে, চাকুরি চাই না, চাকুরি দিতে চাই। শক্তি, সামর্থ্য ও মানসিক মনোবল নিয়ে লড়তে হবে। নিজেকে গড়ে তুলতে হবে সফল উদ্যোক্তা হিসেবে।

কাজী এম আমিনুল ইসলাম বলেন, এ প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দেশব্যাপী উদ্যোক্তা তৈরির যাত্রা শুরু হল। তিনি বলেন, আগামী পৃথিবী হবে জ্ঞান ও প্রযুক্তিনির্ভর। তাই দক্ষতা অর্জনের কোনো বিকল্প নেই।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×