মধুপুর বন রক্ষায় নিয়োজিতদের ঋণ ও ভাতার ব্যবস্থা : কৃষিমন্ত্রী

  মধুপুর প্রতিনিধি ২২ জুলাই ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

কৃষিমন্ত্রী ড. আবদুর রাজ্জাক এমপি বলেছেন, মধুপুর বনের বর্তমান প্রকল্পে যারা বন রক্ষায় নিয়োজিত তাদের জীবনমান উন্নয়নে স্বল্পসুদে ঋণের ব্যবস্থা করা হবে। পাশাপাশি থাকবে ভাতার ব্যবস্থাও। তিনি বলেন, মধুপুরের বন আমাদের অহংকার। একে ধ্বংসের হাত থেকে রক্ষা করতে সবার বিশেষ ভূমিকা থাকতে হবে। মন্ত্রী রোববার দুপুরে টাঙ্গাইলের মধুপুর বনাঞ্চলের দোখলা রেস্ট হাউস মাঠে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন। ‘স্থানীয় ও নৃগোষ্ঠী জনগণের সহায়তায় মধুপুর জাতীয় উদ্যানের ইকো-ট্যুরিজম উন্নয়ন এ টেকসই ব্যবস্থাপনা প্রকল্প’ শীর্ষক মতবিনিময় সভায় মন্ত্রী বলেন, এ বন ঘিরে মধুপুরের বনবাসীদের জীবন-জীবিকা ও সংস্কৃতি গড়ে উঠেছে। জাতির জনকের স্মৃতিবিজড়িত এ বনের জীবজন্তু, প্রাণবৈচিত্র্য সম্ভাবনাময় ও ঐতিহ্যের দিক দিয়ে গুরুত্বপূর্ণ। এখানে এসে তিনি অবস্থান করেছেন। সেই স্মৃতি ধরে রাখতে দোখলায় ১৭ কোটি টাকা ব্যয়ে রেস্ট হাউস, জাতির জনকের ম্যুরাল তৈরির প্রকল্পের কাজ অচিরেই বাস্তবায়ন হবে।

টাঙ্গাইলের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা (ডিএফও) হারুন অর রশিদ খানের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় বক্তৃতা করেন মধুপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ছরোয়ার আলম খান, টাঙ্গাইল গণপূর্ত বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী আহমেদ আবদুল্লাহ নূর, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তাসলিমা আহমেদ পলি, টাঙ্গাইল উত্তরের সহকারী বন রক্ষক জামাল উদ্দিন তালুকদার, মধুপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ইয়াকুব আলী, জয়েন শাহী আদিবাসী উন্নয়ন পরিষদের সভাপতি ইউজিন নকরেক, গারো নেতা উইলিয়াম দাজেল, বেনেডিক্ট মাংসাং, ইউপি চেয়ারম্যান আবদুর রহিম, ফজলুল হক, জুলহাস উদ্দিন ও কমিউনিটি ফরেস্ট ওয়ার্কার (সিএফডব্লিউ) আবুল হোসন।

এছাড়াও মন্ত্রী রোববার ধনবাড়ী উপজেলার মুশুদ্দি ইউনিয়ন পরিষদ হলরুমে ন্যাশনাল অ্যাগ্রিকালচারাল টেকনোলজি প্রোগ্রাম (এনএটিপি)-২ প্রকল্পের আওতায় সিআইজি ও নন-সিআইজি কৃষকদের টেকনোলজি শেয়ারিং প্রশিক্ষণের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন। এতে সভাপতিত্ব করেন কৃষি সম্প্রসাধরণ অধিদফতর খামারবাড়ি টাঙ্গাইলের উপপরিচালক মো. আবদুর রাজ্জাক। বক্তব্য রাখেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরিফা সিদ্দিকা, ধনবাড়ী পৌর মেয়র খন্দকার মঞ্জুরুল ইসলাম তপন, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাইদা খানম, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মাহবুবুর রহমান, উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার জান্নাতুল ফেরদৌস, প্রেস ক্লাব সম্পাদক আনছার আলী, কৃষক লিয়াকত হোসেন, মফিজুল করিম লালু, মসলিম উদ্দিন প্রমুখ।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×