ভাসানচরে যেতে আগ্রহ দেখাচ্ছে রোহিঙ্গারা

  উখিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি ২১ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

কিছু এনজিও ও রোহিঙ্গাদের চালানো ভাসানচরবিরোধী প্রচারণার পরও সেখানে যেতে আগ্রহী হচ্ছেন রোহিঙ্গারা। কক্সবাজারে অবস্থিত শরণার্থী, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনারের (আরআরআরসি) কার্যালয়ের একাধিক কর্মকর্তা এ তথ্য জানান। আশ্রয়শিবিরে থাকা রোহিঙ্গাদের সঙ্গে কথা বলেও এর সত্যতা পাওয়া যায়। প্রত্যাবাসন নিয়ে মিয়ানমারের ‘সদিচ্ছা’র অভাবে তারা এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

টেকনাফের উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে কর্মরত নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক আরআরআরসির এক কর্মকর্তা বলেন, ভাসানচরে কারা কারা যাবে তাদের একটি তালিকা তৈরি করার জন্য সরকারের পক্ষ থেকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আমরা এ নিয়ে কাজ করছি। ভাসানচরে যাওয়ার ব্যাপারে রোহিঙ্গাদের মধ্যেও আগ্রহ দেখা যাচ্ছে।

রোহিঙ্গারা জানান, ইতিমধ্যে টেকনাফের লেদা রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরে আরআরআরসির প্রতিনিধি, ১৫ রোহিঙ্গা নেতা, আইওএমসহ কিছু এনজিও কর্মকর্তা ভাসানচরে যাওয়ার বিষয়ে একটি বৈঠক করেছেন। সেখানে রোহিঙ্গা নেতাদের নিজ নিজ শিবির থেকে ভাসানচরে স্বেচ্ছায় যাওয়ার জন্য উদ্বুদ্ধ করতে বলা হয়েছে। এ সময় তাদের কাছে ফরম দেয়া হয়। এর আগে আরআরআরসি কমিশনার মাহাবুব আলম তালুকদার লেদা ক্যাম্প ঘুরে দেখেন বলে জানান তারা।

নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা গেছে, চলতি সপ্তাহে ভাসানচরে যেতে আগ্রহী রোহিঙ্গাদের একটি তালিকা আরআরআরসি কার্যালয় থেকে মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হবে। আগ্রহী ১৭টি পরিবারের একটি তালিকা সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের হাতে পৌঁছেছে। এ বিষয়ে শরণার্থী, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মাহাবুব আলম বলেন, ভাসানচরে যেতে ইচ্ছুক রোহিঙ্গাদের তালিকা নেয়া হচ্ছে, এটি চলমান রয়েছে। এ উদ্যোগে প্রত্যাবাসন বাধাগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা আছে কি না- এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, এরকম কোনো আশঙ্কা করছি না। রোহিঙ্গারা তো বোঝে, বাংলাদেশে তাদের স্থায়ীভাবে থাকা সম্ভব না। মিয়ানমারও তাদের জন্য এখন নিরাপদ হয়ে উঠছে। কক্সবাজার এলাকার চাপ কমানোর জন্য এবং রোহিঙ্গারা যাতে একটু ভালোভাবে থাকতে পারে সে জন্যই তাদের ভাসানচরে নেয়ার কথা ভাবা হচ্ছে। এটা স্থায়ী কেনো ব্যবস্থা নয়।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×