অনিয়মের অভিযোগ : সাঁথিয়ায় ডিলারের লাইসেন্স বাতিল

শায়েস্তাগঞ্জে ১৭শ’ কেজি চাল জব্দ

  যুগান্তর ডেস্ক ১০ মে ২০২০, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির চাল বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ পাওয়ায় হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলায় এক ইউপি চেয়ারম্যানের জিম্মায় থাকা ১৭শ’ কেজি চাল জব্দ করা হয়েছে। এ ঘটনায় গ্রেফতার এড়াতে ওই চেয়ারম্যান পালিয়ে গেছেন।

পাবনার সাঁথিয়ায় চাল আত্মসাৎ করায় এক ডিলারের লাইসেন্স বাতিল করা হয়েছে। সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের মেম্বারের সম্মানীভাতা স্থগিত করা হয়েছে। এদিকে সাতক্ষীরার কালীগঞ্জে এক ইউপি চেয়ারম্যান মৃত ব্যক্তির নামে চাল উত্তোলন করে আত্মসাৎ করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। যুগান্তর প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

হবিগঞ্জ : অনিয়মের অভিযোগে হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলার নূরপুর ইউপি চেয়ারম্যান মখলিছ মিয়ার কাছ থেকে ১ হাজার ৭শ’ কেজি (৫৭ বস্তা) চাল জব্দ করা হয়েছে। আরও ৩শ’ কেজি চালের হদিস পাওয়া যায়নি।

এছাড়াও টিপসই নিলেও ভিজিডি কর্মসূচির চাল তিনি দেননি। শুক্রবার রাতে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইয়াছিন আরাফাত রানার নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান চালিয়ে এসব চাল জব্দ করে এবং অভিযোগের সত্যতা পায়। অভিযানের খবর পেয়ে গ্রেফতার এড়াতে পালিয়ে যান ইউপি চেয়ারম্যান মখলিছ মিয়া। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

সাঁথিয়া (পাবনা) : উপজেলার কাশিনাথপুর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের ডিলার কল্যাণপুর গ্রামের আবদুর রবের বিরুদ্ধে হত-দরিদ্রদের সরকারি চাল না দেয়ার অভিযোগ উঠেছে। চাল উত্তোলন করে কালোবাজারে বিক্রি করত ডিলার রব।

অভিযোগকারীরা চাল আনতে গেলে নকল তালিকা বের করে ভুয়া সিরিয়াল দেখিয়ে তাদের তাড়িয়ে দেয়া হতো। সাঁথিয়া উপজেলা নির্র্বাহী অফিসার এসএম জামাল আহমেদ জানান, অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় ডিলারের লাইসেন্স বাতিল ও ৯নং ওয়ার্ডের মেম্বার এনামুল হক সাগরের সম্মানীভাতা স্থগিত রাখা হয়েছে।

সাতক্ষীরা : কয়েকজন মৃত ব্যক্তির নামে চাল উত্তোলন করে তা আত্মসাৎ করার পরও কালীগঞ্জের ধলবাড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান গাজী শওকত হোসেনের বিরুদ্ধে এখনও কোনো ব্যবস্থা নেয়া হয়নি বলে অভিযোগ করেছেন মুক্তিযোদ্ধারা। শনিবার দুপুরে ধলবাড়িয়ার গণেশপুর গ্রামে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে লিখিতভাবে এ অভিযোগ করেন মুক্তিযোদ্ধা আনসার আলী। পরে চেয়ারম্যান গাজী শওকত হোসেনকে গ্রেফতারের দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত