মৌলভীবাজারে শ্রমিকদের দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১
jugantor
মৌলভীবাজারে শ্রমিকদের দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১

  সিলেট ব্যুরো ও কুলাউড়া (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি  

২৯ জুলাই ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

মৌলভীবাজার সদর উপজেলার ইমামবাজারে মঙ্গলবার সিএনজি অটোরিকশা স্ট্যান্ডের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে শ্রমিকদের দু’পক্ষের সংঘর্ষে ফজলু মিয়া (২৮) নামে অটোরিকশা চালক নিহত হয়েছেন। সংঘর্ষে আহত হয়েছেন অন্তত ১২ জন। ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ এক ইউপি সদস্যসহ দুইজনকে আটক করেছে। ফজলু মিয়া সদর উপজেলার আনিকেলি বড় গ্রামের কনর মিয়ার ছেলে।

লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ইমামবাজার স্ট্যান্ডের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে কমরু গ্রুপ ও রিপন গ্রুপ নামে শ্রমিকদের আলাদা দুটি গ্রুপ বিবদমান ছিল। মঙ্গলবার দুপুরে স্ট্যান্ড এলাকায় দু’পক্ষ দেশি অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়ায়। এ সময় ফজলু মিয়া নামে এক পরিবহন শ্রমিক ঘটনাস্থলেই মারা যান। সংঘর্ষে আহতরা হলেন জেসমিন, নজরুল, ছনর আলী, আমিনুল ইসলাম, শামীম, শওকত আহমদ, সাইফুর রহমান, আল আমীন, ফজল মিয়া, নাজমা বেগম, মো. মতিন, তাজুল ইসলাম। আহতদের উদ্ধার করে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

খবর পেয়ে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে গিয়াসনগর ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য সালেক মিয়া ও ইলিয়াছ মিয়াকে আটক করে। মৌলভীবাজার মডেল থানার ওসি আলমগীর হোসেন সংঘর্ষের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। অপরদিকে সিলেট ব্যুরো প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে জানায়, প্রথমে ইলিয়াস ও ফজলুর রহমানের মধ্যে সংঘর্ষ হয়।

মৌলভীবাজারে শ্রমিকদের দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১

 সিলেট ব্যুরো ও কুলাউড়া (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি 
২৯ জুলাই ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

মৌলভীবাজার সদর উপজেলার ইমামবাজারে মঙ্গলবার সিএনজি অটোরিকশা স্ট্যান্ডের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে শ্রমিকদের দু’পক্ষের সংঘর্ষে ফজলু মিয়া (২৮) নামে অটোরিকশা চালক নিহত হয়েছেন। সংঘর্ষে আহত হয়েছেন অন্তত ১২ জন। ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ এক ইউপি সদস্যসহ দুইজনকে আটক করেছে। ফজলু মিয়া সদর উপজেলার আনিকেলি বড় গ্রামের কনর মিয়ার ছেলে।

লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ইমামবাজার স্ট্যান্ডের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে কমরু গ্রুপ ও রিপন গ্রুপ নামে শ্রমিকদের আলাদা দুটি গ্রুপ বিবদমান ছিল। মঙ্গলবার দুপুরে স্ট্যান্ড এলাকায় দু’পক্ষ দেশি অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়ায়। এ সময় ফজলু মিয়া নামে এক পরিবহন শ্রমিক ঘটনাস্থলেই মারা যান। সংঘর্ষে আহতরা হলেন জেসমিন, নজরুল, ছনর আলী, আমিনুল ইসলাম, শামীম, শওকত আহমদ, সাইফুর রহমান, আল আমীন, ফজল মিয়া, নাজমা বেগম, মো. মতিন, তাজুল ইসলাম। আহতদের উদ্ধার করে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

খবর পেয়ে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে গিয়াসনগর ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য সালেক মিয়া ও ইলিয়াছ মিয়াকে আটক করে। মৌলভীবাজার মডেল থানার ওসি আলমগীর হোসেন সংঘর্ষের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। অপরদিকে সিলেট ব্যুরো প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে জানায়, প্রথমে ইলিয়াস ও ফজলুর রহমানের মধ্যে সংঘর্ষ হয়।