তিন লাখ ইয়াবাসহ মিয়ানমারের ৭ নাগরিক আটক
jugantor
তিন লাখ ইয়াবাসহ মিয়ানমারের ৭ নাগরিক আটক

  টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি  

০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

টেকনাফে প্রায় ৩ লাখ ইয়াবাসহ মিয়ানমারের ৭ নাগরিককে আটক করেছে কোস্টগার্ড। এ সময় ইয়াবা পাচারে ব্যবহৃত ট্রলার জব্দ করা হয়। বুধবার ভোরে টেকনাফের কাটাবুনিয়া এলাকার অদূরে বঙ্গোপসাগরে এ অভিযান চালানো হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে ২ লাখ ৮০ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়। টেকনাফ কোস্টগার্ড স্টেশনের ইনচার্জ লে. কমান্ডার আমিরুল হক বলেন, কোস্টগার্ড নিয়মিত টহলকালে কাটাবুনিয়া এলাকায় নাইট ভিশন যন্ত্রের মাধ্যমে একটি ট্রলার দেখতে পায়। তখন সন্দেহ হলে কোস্টগার্ডের টহল দলটি সামনে এগিয়ে ট্রলারটি থামাতে বলে। কিন্তু ট্রলারটি না থামিয়ে আরোহীরা কোস্টগার্ডের টহল দলের ওপর গুলতি নিক্ষেপ করতে থাকে। পরে কোস্টগার্ড গতিপথ পরিবর্তন করে ট্রলারটি ধরতে সক্ষম হয়। এরপর তাতে তল্লাশি চালিয়ে ২টি জেরিক্যান পাওয়া যায়। জেরিক্যান দুটি কেটে মোট ২৮টি প্যাকেট পাওয়া যায়। যার মধ্যে ২ লাখ ৮০ হাজার ইয়াবা লুকানো ছিল। এ সময় ইয়াবা পাচার কাজে নিয়োজিত মিয়ানমারের ৭ নাগরিককে আটক করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানায়, মিয়ানমার থেকে ইয়াবা এনে তারা নিয়মিত বাংলাদেশে পাচার করে। লে. কমান্ডার আমিরুল বলেন, ইয়াবা পাচার কাজে ব্যবহৃত ট্রলারটি জব্দ করা হয়েছে। মিয়ানমারের ৭ নাগরিককে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা করে টেকনাফ থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

তিন লাখ ইয়াবাসহ মিয়ানমারের ৭ নাগরিক আটক

 টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি 
০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

টেকনাফে প্রায় ৩ লাখ ইয়াবাসহ মিয়ানমারের ৭ নাগরিককে আটক করেছে কোস্টগার্ড। এ সময় ইয়াবা পাচারে ব্যবহৃত ট্রলার জব্দ করা হয়। বুধবার ভোরে টেকনাফের কাটাবুনিয়া এলাকার অদূরে বঙ্গোপসাগরে এ অভিযান চালানো হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে ২ লাখ ৮০ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়। টেকনাফ কোস্টগার্ড স্টেশনের ইনচার্জ লে. কমান্ডার আমিরুল হক বলেন, কোস্টগার্ড নিয়মিত টহলকালে কাটাবুনিয়া এলাকায় নাইট ভিশন যন্ত্রের মাধ্যমে একটি ট্রলার দেখতে পায়। তখন সন্দেহ হলে কোস্টগার্ডের টহল দলটি সামনে এগিয়ে ট্রলারটি থামাতে বলে। কিন্তু ট্রলারটি না থামিয়ে আরোহীরা কোস্টগার্ডের টহল দলের ওপর গুলতি নিক্ষেপ করতে থাকে। পরে কোস্টগার্ড গতিপথ পরিবর্তন করে ট্রলারটি ধরতে সক্ষম হয়। এরপর তাতে তল্লাশি চালিয়ে ২টি জেরিক্যান পাওয়া যায়। জেরিক্যান দুটি কেটে মোট ২৮টি প্যাকেট পাওয়া যায়। যার মধ্যে ২ লাখ ৮০ হাজার ইয়াবা লুকানো ছিল। এ সময় ইয়াবা পাচার কাজে নিয়োজিত মিয়ানমারের ৭ নাগরিককে আটক করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানায়, মিয়ানমার থেকে ইয়াবা এনে তারা নিয়মিত বাংলাদেশে পাচার করে। লে. কমান্ডার আমিরুল বলেন, ইয়াবা পাচার কাজে ব্যবহৃত ট্রলারটি জব্দ করা হয়েছে। মিয়ানমারের ৭ নাগরিককে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা করে টেকনাফ থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।