আওয়ামী লীগের অর্ধশত নেতাকর্মীর নামে মামলা
jugantor
এমপি পঙ্কজ নাথের গাড়িবহরে হামলা
আওয়ামী লীগের অর্ধশত নেতাকর্মীর নামে মামলা

  বরিশাল ব্যুরো ও হিজলা প্রতিনিধি  

১১ জুন ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

বরিশালের হিজলায় সংসদ সদস্য পঙ্কজ দেবনাথের গাড়িবহরে হামলার ঘটনায় পাঁচজনকে আটক করা হয়েছে। পাশাপাশি এ ঘটনায় আওয়ামী লীগের অর্ধশত নেতাকর্মীর নামে মামলা হয়েছে। বুধবার বিকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেন হিজলা থানার ওসি অসীম কুমার সিকদার। আর আটক ব্যক্তিরা হলেন শ্রীপুর গ্রামের মোশাররফ হোসেন, সৈয়দ মঞ্জুর মোরশেদ, মহিম দেওয়ান, বড়জালিয়া ইউনিয়নের অলিউদ্দিন ও হেলাল সিকদার।

মামলার বাদী হিজলা উপজেলার শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম সরদার জানান, স্থানীয় খেয়াঘাট নিয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি এনায়েত হোসেন হাওলাদারের সঙ্গে দ্বন্দ্বের জেরে সংসদ সদস্যের ওপর হামলা হয়েছে। তার (পঙ্কজ নাথ) গাড়ির গ্লাস ভাংচুর হয়। এ ঘটনায় ২৪ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরও ২৫-৩০ জনকে আসামি করে মামলা হয়েছে। এ প্রসঙ্গে এনায়েত হোসেন হাওলাদার জানান, ইউপি নির্বাচনে তাকে পরাজিত করার ষড়যন্ত্রের অংশ হলো এই হামলা। তিনি বলেন, এমপি পঙ্কজ দেবনাথ ঘটনার রাতের সভায় চশমা প্রতীকের প্রার্থী শাহাবুদ্দিন পণ্ডিতকে বিজয়ী করতে ভোট চেয়ে বক্তৃতা করেন।

এতে নেতাকর্মীরা ক্ষুব্ধ হন। এ সংক্রান্ত ভিডিও জেলা আওয়ামী লীগের কাছে পাঠিয়েছি। তিনি বলেন, এ মামলা সাজানো। এর সঙ্গে কোনো সম্পৃক্ততা না থাকা সত্ত্বেও পুলিশ দুজন মেম্বর প্রার্থীসহ তার কর্মীদের গ্রেফতার করেছে। বরিশাল জেলার সহকারী পুলিশ সুপার (হিজলা) মতিউর রহমান জানান, বড়জালিয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে উপজেলার শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম সরদারের সঙ্গে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী এনায়েত হোসেন হাওলাদারের দ্বন্দ্বের জেরে এ ঘটনা ঘটে। জানা যায়, ঐতিহাসিক ছয় দফা দিবস উপলক্ষ্যে মঙ্গলবার রাতে হিজলা উপজেলার বড়জালিয়া ইউনিয়নের গুয়াবাড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ আয়োজিত আলোচনাসভা শেষে উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে দিয়ে যাচ্ছিলেন পঙ্কজ দেবনাথ। এ সময় তার গাড়িবহরে হামলা হয়। এতে গাড়ির গ্লাস ভেঙে চালক আহত হন।

এমপি পঙ্কজ নাথের গাড়িবহরে হামলা

আওয়ামী লীগের অর্ধশত নেতাকর্মীর নামে মামলা

 বরিশাল ব্যুরো ও হিজলা প্রতিনিধি 
১১ জুন ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

বরিশালের হিজলায় সংসদ সদস্য পঙ্কজ দেবনাথের গাড়িবহরে হামলার ঘটনায় পাঁচজনকে আটক করা হয়েছে। পাশাপাশি এ ঘটনায় আওয়ামী লীগের অর্ধশত নেতাকর্মীর নামে মামলা হয়েছে। বুধবার বিকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেন হিজলা থানার ওসি অসীম কুমার সিকদার। আর আটক ব্যক্তিরা হলেন শ্রীপুর গ্রামের মোশাররফ হোসেন, সৈয়দ মঞ্জুর মোরশেদ, মহিম দেওয়ান, বড়জালিয়া ইউনিয়নের অলিউদ্দিন ও হেলাল সিকদার।

মামলার বাদী হিজলা উপজেলার শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম সরদার জানান, স্থানীয় খেয়াঘাট নিয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি এনায়েত হোসেন হাওলাদারের সঙ্গে দ্বন্দ্বের জেরে সংসদ সদস্যের ওপর হামলা হয়েছে। তার (পঙ্কজ নাথ) গাড়ির গ্লাস ভাংচুর হয়। এ ঘটনায় ২৪ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরও ২৫-৩০ জনকে আসামি করে মামলা হয়েছে। এ প্রসঙ্গে এনায়েত হোসেন হাওলাদার জানান, ইউপি নির্বাচনে তাকে পরাজিত করার ষড়যন্ত্রের অংশ হলো এই হামলা। তিনি বলেন, এমপি পঙ্কজ দেবনাথ ঘটনার রাতের সভায় চশমা প্রতীকের প্রার্থী শাহাবুদ্দিন পণ্ডিতকে বিজয়ী করতে ভোট চেয়ে বক্তৃতা করেন।

এতে নেতাকর্মীরা ক্ষুব্ধ হন। এ সংক্রান্ত ভিডিও জেলা আওয়ামী লীগের কাছে পাঠিয়েছি। তিনি বলেন, এ মামলা সাজানো। এর সঙ্গে কোনো সম্পৃক্ততা না থাকা সত্ত্বেও পুলিশ দুজন মেম্বর প্রার্থীসহ তার কর্মীদের গ্রেফতার করেছে। বরিশাল জেলার সহকারী পুলিশ সুপার (হিজলা) মতিউর রহমান জানান, বড়জালিয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে উপজেলার শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম সরদারের সঙ্গে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী এনায়েত হোসেন হাওলাদারের দ্বন্দ্বের জেরে এ ঘটনা ঘটে। জানা যায়, ঐতিহাসিক ছয় দফা দিবস উপলক্ষ্যে মঙ্গলবার রাতে হিজলা উপজেলার বড়জালিয়া ইউনিয়নের গুয়াবাড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ আয়োজিত আলোচনাসভা শেষে উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে দিয়ে যাচ্ছিলেন পঙ্কজ দেবনাথ। এ সময় তার গাড়িবহরে হামলা হয়। এতে গাড়ির গ্লাস ভেঙে চালক আহত হন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন