মনোহরগঞ্জে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ
jugantor
মনোহরগঞ্জে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

  কুমিল্লা ব্যুরো  

১১ জুন ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

কুমিল্লা-নোয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়কের বিপুলাসার বাজার এলাকায় অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার দিনব্যাপী মনোহরগঞ্জ উপজেলার বিপুলাসার বাজার এলাকায় সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের অধিগ্রহণ করা জায়গা থেকে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়। উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করেন, কুমিল্লা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আবু সাঈদ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন মনোহরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহেল রানা, সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর কুমিল্লার উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী মো. সফিকুল ইসলাম ভূঁইয়া,

উপ-সহকারী প্রকৌশলী আজিম উদ্দিন, ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান রানা বিল্ডার্সের প্রজেক্ট ম্যানেজার হাফিজুর রহমান, সার্ভেয়ার সাইফুল ইসলাম, নাথেরপেটুয়া পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের ইনচার্জ জাফর ইকবাল প্রমুখ। পুনরায় অবৈধ স্থাপনা গড়ে তুলে আঞ্চলিক মহাসড়ক ফোরলেনে উন্নীতকরণ কাজে বিঘ্ন ঘটালে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আবু সাঈদ। তিনি বলেন, ‘কুমিল্লা টমছম ব্রিজ থেকে নোয়াখালী পর্যন্ত আঞ্চলিক মহাসড়ক ফোরলেনে উন্নীতকরণের ফলে সড়কের পার্শ্ববর্তী জায়গাগুলো সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর (সওজ) অধিগ্রহণ করে। একাধিকবার নোটিশ দেওয়ার পরও সওজের অধিগ্রহণকৃত জায়গা থেকে যেসব স্থাপনা অপসারণ করা হয়নি, আমরা সেসব অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করেছি। সড়ক আইন অনুযায়ী দশ মিটার পর্যন্ত সড়কের পাশে কোনো স্থাপনা গড়ে তোলা যাবে না।’

মনোহরগঞ্জে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

 কুমিল্লা ব্যুরো 
১১ জুন ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

কুমিল্লা-নোয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়কের বিপুলাসার বাজার এলাকায় অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার দিনব্যাপী মনোহরগঞ্জ উপজেলার বিপুলাসার বাজার এলাকায় সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের অধিগ্রহণ করা জায়গা থেকে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়। উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করেন, কুমিল্লা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আবু সাঈদ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন মনোহরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহেল রানা, সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর কুমিল্লার উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী মো. সফিকুল ইসলাম ভূঁইয়া,

উপ-সহকারী প্রকৌশলী আজিম উদ্দিন, ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান রানা বিল্ডার্সের প্রজেক্ট ম্যানেজার হাফিজুর রহমান, সার্ভেয়ার সাইফুল ইসলাম, নাথেরপেটুয়া পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের ইনচার্জ জাফর ইকবাল প্রমুখ। পুনরায় অবৈধ স্থাপনা গড়ে তুলে আঞ্চলিক মহাসড়ক ফোরলেনে উন্নীতকরণ কাজে বিঘ্ন ঘটালে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আবু সাঈদ। তিনি বলেন, ‘কুমিল্লা টমছম ব্রিজ থেকে নোয়াখালী পর্যন্ত আঞ্চলিক মহাসড়ক ফোরলেনে উন্নীতকরণের ফলে সড়কের পার্শ্ববর্তী জায়গাগুলো সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর (সওজ) অধিগ্রহণ করে। একাধিকবার নোটিশ দেওয়ার পরও সওজের অধিগ্রহণকৃত জায়গা থেকে যেসব স্থাপনা অপসারণ করা হয়নি, আমরা সেসব অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করেছি। সড়ক আইন অনুযায়ী দশ মিটার পর্যন্ত সড়কের পাশে কোনো স্থাপনা গড়ে তোলা যাবে না।’

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন