চট্টগ্রামে অস্ত্র মাদকসহ কিশোর গ্যাং লিডার গ্রেফতার
jugantor
চট্টগ্রামে অস্ত্র মাদকসহ কিশোর গ্যাং লিডার গ্রেফতার

  চট্টগ্রাম ব্যুরো  

১৪ জুন ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

চট্টগ্রামে মোহাম্মদ শাহেদ ওরফে ভিখারি শাহেদ নামে এক কিশোর গ্যাং লিডার ও মাদক ব্যবসায়ীকে অস্ত্রসহ গ্রেফতার করেছে ডবলমুরিং থানা পুলিশ। নগরীর ডবলমুরিং থানার আগ্রাবাদ পানওয়ালা পাড়া থেকে রোববার ভোরে তাকে গ্রেফতার করা হয়। তার কাছ থেকে একটি এলজি, এক রাউন্ড কার্তুজ ও ৫০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে ইয়াবা ও অস্ত্র আইনে দুটি পৃথক মামলা হয়েছে। নগরীর বিভিন্ন থানায় তার বিরুদ্ধে আটটি মামলা রয়েছে। এসব মামলায় গত দুই বছরে অন্তত পাঁচবার গ্রেফতার হয়েছে শাহেদ। ডবলমুরিং থানার ওসি মো. মহসীন জানান, ‘ভিখারি শাহেদ অত্যন্ত ধূর্ত ও ভয়ঙ্কর সন্ত্রাসী।

ডবলমুরিং থানার শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী সে। কিশোরদের নিয়ে তার একটি গ্যাং আছে। সে বিভিন্ন স্থান থেকে মাদক এনে আগ্রাবাদ এলাকায় খুচরা পর্যায়ে বিক্রি করত। মাদক বিক্রির জন্য তার আলাদা ১২-১৪ জনের দল আছে। কেউ তার বা মাদকের বিরুদ্ধে কথা বললে কিশোর গ্যাং লেলিয়ে দেয়। তার দলের প্রত্যেকের বিরুদ্ধেই একাধিক মামলা রয়েছে। সর্বশেষ ব্যাপারিপাড়া এলাকায় মাদকবিরোধী কমিটি করায় কমিটির সদস্যদের ওপর অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে হামলা চালায় ভিখারি শাহেদ বাহিনী।

এতে দুজন গুরুতর আহত হন। এ ছাড়া তার একটি আলাদা টর্চার সেলও আছে। তার বিরুদ্ধে কেউ কিছু বললে সেখানে নিয়ে নির্যাতন করা হয়। এলাকাবাসী জানায়, ভিখারি শাহেদ দুটি বিয়ে করেছে ও তার কথিত একাধিক নারী বন্ধু রয়েছে। তাদের মাধ্যমে প্রেমের ফাঁদে ফেলে মানুষকে ব্ল্যাকমেইল করে মুক্তিপণ আদায় করে। একসময় অর্থ সংকটে থাকা শাহেদকে লোকজন ভিখারি শাহেদ হিসাবে জানলেও এখন সে অনেক টাকার মালিক।

চট্টগ্রামে অস্ত্র মাদকসহ কিশোর গ্যাং লিডার গ্রেফতার

 চট্টগ্রাম ব্যুরো 
১৪ জুন ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

চট্টগ্রামে মোহাম্মদ শাহেদ ওরফে ভিখারি শাহেদ নামে এক কিশোর গ্যাং লিডার ও মাদক ব্যবসায়ীকে অস্ত্রসহ গ্রেফতার করেছে ডবলমুরিং থানা পুলিশ। নগরীর ডবলমুরিং থানার আগ্রাবাদ পানওয়ালা পাড়া থেকে রোববার ভোরে তাকে গ্রেফতার করা হয়। তার কাছ থেকে একটি এলজি, এক রাউন্ড কার্তুজ ও ৫০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে ইয়াবা ও অস্ত্র আইনে দুটি পৃথক মামলা হয়েছে। নগরীর বিভিন্ন থানায় তার বিরুদ্ধে আটটি মামলা রয়েছে। এসব মামলায় গত দুই বছরে অন্তত পাঁচবার গ্রেফতার হয়েছে শাহেদ। ডবলমুরিং থানার ওসি মো. মহসীন জানান, ‘ভিখারি শাহেদ অত্যন্ত ধূর্ত ও ভয়ঙ্কর সন্ত্রাসী।

ডবলমুরিং থানার শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী সে। কিশোরদের নিয়ে তার একটি গ্যাং আছে। সে বিভিন্ন স্থান থেকে মাদক এনে আগ্রাবাদ এলাকায় খুচরা পর্যায়ে বিক্রি করত। মাদক বিক্রির জন্য তার আলাদা ১২-১৪ জনের দল আছে। কেউ তার বা মাদকের বিরুদ্ধে কথা বললে কিশোর গ্যাং লেলিয়ে দেয়। তার দলের প্রত্যেকের বিরুদ্ধেই একাধিক মামলা রয়েছে। সর্বশেষ ব্যাপারিপাড়া এলাকায় মাদকবিরোধী কমিটি করায় কমিটির সদস্যদের ওপর অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে হামলা চালায় ভিখারি শাহেদ বাহিনী।

এতে দুজন গুরুতর আহত হন। এ ছাড়া তার একটি আলাদা টর্চার সেলও আছে। তার বিরুদ্ধে কেউ কিছু বললে সেখানে নিয়ে নির্যাতন করা হয়। এলাকাবাসী জানায়, ভিখারি শাহেদ দুটি বিয়ে করেছে ও তার কথিত একাধিক নারী বন্ধু রয়েছে। তাদের মাধ্যমে প্রেমের ফাঁদে ফেলে মানুষকে ব্ল্যাকমেইল করে মুক্তিপণ আদায় করে। একসময় অর্থ সংকটে থাকা শাহেদকে লোকজন ভিখারি শাহেদ হিসাবে জানলেও এখন সে অনেক টাকার মালিক।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন