সিলেটে বেশি দুর্নীতি পাসপোর্ট, বিআরটিএ ও সেটেলমেন্ট অফিসে
jugantor
সিলেটে বেশি দুর্নীতি পাসপোর্ট, বিআরটিএ ও সেটেলমেন্ট অফিসে

  সিলেট ব্যুরো  

২৯ নভেম্বর ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সিলেট বিভাগীয় সদরে সবচেয়ে বেশি দুর্নীতির অভিযোগ তিন সরকারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে। প্রতিষ্ঠান তিনটি হচ্ছে পাসপোর্ট অফিস, সেটেলমেন্ট অফিস ও বিআরটিএ। রোববার সকালে সিলেটের কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে দুদক আয়োজিত গণশুনানিতে এই তথ্য দেন দুদক কমিশনার মো. জহুরুল হক।

দুদক কমিশনার বলেন, গণশুনানির মাধ্যমে এই তিন প্রতিষ্ঠানসহ দুদক সবাইকে সতর্ক করে দিচ্ছে। গণশুনানিতে সিটি করপোরেশন, পাসপোর্ট অফিস, বিআরটিএ, ওসমানী হাসপাতালসহ সিলেটের ৩২টি অফিসকে তাদের আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য ডাকা হয়। তিনি বলেন, করোনার কারণে দুদকের গণশুনানি কার্যক্রম স্তিমিত থাকলেও এখন থেকে মাঝেমধ্যেই গণশুনানির আয়োজন করা হবে। সব দুর্নীতির বিরুদ্ধে মানুষকে সোচ্চার হয়ে প্রতিবাদ করতে হবে, তাহলেই এর সুফল মানুষ পাবে বলেও মন্তব্য করেন দুদক কমিশনার।

সিলেট জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলামের সভাপতিত্বে গণশুনানিতে প্রধান অতিথি ছিলেন দুদকের কমিশনার (তদন্ত) মো. জহুরুল হক। এ সময় বিভিন্ন অফিসের ৫৩ জন সেবাগ্রহীতা দুদক কমিশনার বরাবরে সংশ্লিষ্ট অফিসের বিরুদ্ধে তাদের অভিযোগ তুলে ধরেন।

সিলেটে বেশি দুর্নীতি পাসপোর্ট, বিআরটিএ ও সেটেলমেন্ট অফিসে

 সিলেট ব্যুরো 
২৯ নভেম্বর ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সিলেট বিভাগীয় সদরে সবচেয়ে বেশি দুর্নীতির অভিযোগ তিন সরকারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে। প্রতিষ্ঠান তিনটি হচ্ছে পাসপোর্ট অফিস, সেটেলমেন্ট অফিস ও বিআরটিএ। রোববার সকালে সিলেটের কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে দুদক আয়োজিত গণশুনানিতে এই তথ্য দেন দুদক কমিশনার মো. জহুরুল হক।

দুদক কমিশনার বলেন, গণশুনানির মাধ্যমে এই তিন প্রতিষ্ঠানসহ দুদক সবাইকে সতর্ক করে দিচ্ছে। গণশুনানিতে সিটি করপোরেশন, পাসপোর্ট অফিস, বিআরটিএ, ওসমানী হাসপাতালসহ সিলেটের ৩২টি অফিসকে তাদের আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য ডাকা হয়। তিনি বলেন, করোনার কারণে দুদকের গণশুনানি কার্যক্রম স্তিমিত থাকলেও এখন থেকে মাঝেমধ্যেই গণশুনানির আয়োজন করা হবে। সব দুর্নীতির বিরুদ্ধে মানুষকে সোচ্চার হয়ে প্রতিবাদ করতে হবে, তাহলেই এর সুফল মানুষ পাবে বলেও মন্তব্য করেন দুদক কমিশনার।

সিলেট জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলামের সভাপতিত্বে গণশুনানিতে প্রধান অতিথি ছিলেন দুদকের কমিশনার (তদন্ত) মো. জহুরুল হক। এ সময় বিভিন্ন অফিসের ৫৩ জন সেবাগ্রহীতা দুদক কমিশনার বরাবরে সংশ্লিষ্ট অফিসের বিরুদ্ধে তাদের অভিযোগ তুলে ধরেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন