ইসির নির্দেশ অমান্য করে নির্বাচনী এলাকায় এমপি ফারুক

  রাজশাহী ব্যুরো ০১ মার্চ ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ইসির নির্দেশ অমান্য করে নির্বাচনী এলাকায় এমপি ফারুক

নির্বাচনী আচরণবিধি ভঙ্গের অভিযোগে রাজশাহী-১ (তানোর-গোদাগাড়ী) আসনের এমপি ওমর ফারুক চৌধুরীকে নির্বাচন কমিশন (ইসি) থেকে নির্বাচনী এলাকা ছাড়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

কিন্তু তিনি এলাকা ছাড়েননি। নির্দেশ অমান্য করে বৃহস্পতিবার বিকালেও তিনি তানোর উপজেলায় একটি আলোচনা সভায় বক্তব্য দিয়েছেন।

আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস উপলক্ষে উপজেলার মুণ্ডুমালা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে উপজেলা আওয়ামী লীগ আলোচনা সভার আয়োজন করে। এতে ওমর ফারুক চৌধুরী প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন।

শুরুতে মঞ্চে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ চেয়ারম্যান প্রার্থী লুৎফর হায়দার রশিদ ময়না বক্তব্য দেন। অবশ্য তখনও ফারুক চৌধুরী সভামঞ্চে গিয়ে পৌঁছাননি। প্রার্থী বক্তব্য দিয়ে চলে যাওয়ার পরে এমপি মঞ্চে যান।

প্রত্যক্ষদর্শী কয়েকজন জানান, দলীয় প্রার্থীসহ অনুষ্ঠানের অন্য বক্তারা চেয়ারম্যান প্রার্থীর জন্য নৌকায় ভোট চেয়েছেন। তবে এমপি ওমর ফারুক চৌধুরী সরাসরি ভোট চাননি।

অনুষ্ঠানের অন্য নেতাদের বক্তব্যের সঙ্গে একমত পোষণ করে তিনি বক্তব্য শেষ করেন। ১০ মার্চ প্রথম দফা উপজেলা নির্বাচনে তার সংসদীয় এলাকা (রাজশাহী-১ আসন) গোদাগাড়ী ও তানোরে উপজেলা নির্বাচন হচ্ছে।

এমপি ওমর ফারুক চৌধুরী আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের অনুষ্ঠানের ব্যানারে নির্বাচনী প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। সর্বশেষ ২৫ ফেব্রুয়ারি তিনি গোদাগাড়ীতে একই ইস্যুতে অনুষ্ঠান করে নির্বাচনী বক্তব্য দেন।

এ বিষয়ে একজন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে নির্বাচন কমিশন বুধবার এমপি ওমর ফারুক চৌধুরীকে নির্বাচনী এলাকা ছাড়ার নির্দেশ দেন। এরপরেও তিনি নির্বাচনী এলাকায় অবস্থান করছেন।

নির্বাচন কমিশনের চিঠি ওমর ফারুক চৌধুরীর কাছে পৌঁছানো হয়েছে কিনা জানতে চাইলে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় রাজশাহী জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম বলেন, চিঠি পাওয়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই তা এমপি ওপর ফারুক চৌধুরীর ব্যক্তিগত সহকারীর হাতে পৌঁছে দেয়া হয়েছে।

তানোর উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের ময়না ছাড়াও ওয়ার্কার্স পার্টি মনোনীত একজন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। ওমর ফারুক চৌধুরী এলাকা না ছেড়ে ইসির নির্দেশনাকে ‘বৃদ্ধাঙুলি’ দেখিয়েছেন বলে মন্তব্য করেছেন ওয়ার্কার্স পার্টির নেতারা।

পার্টির রাজশাহী মহানগরের সভাপতি লিয়াকত আলী লিকু, জেলা সভাপতি রফিকুল ইসলাম পিয়ারুল, মহানগর সাধারণ সম্পাদক দেবাশীষ প্রামাণিক দেবু ও জেলা সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল হক তোতা এক বিবৃতিতে এ মন্তব্য করেন।

জানতে চাইলে তানোর উপজেলা নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা ও রাজশাহীর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) জুলকার নায়ন বলেন, নির্বাচন কমিশনের নির্দেশনা পৌঁছে দেয়ার পাশাপাশি এমপিকে ফোনেও বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে। এরপরেও তিনি নির্বাচনী এলাকায় গিয়েছেন এটা আমাদের জানা নেই।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×