ফতুল্লায় ২শ’ শ্রমিকের বেতন-বোনাস অনিশ্চিত

শুধু কান্না, হতাশা

  ফতুল্লা প্রতিনিধি ০৪ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় একটি রফতানিমুখী পোশাক কারখানায় ২শ’ শ্রমিকের দুই মাসের বেতন ও ঈদ বোনাস হয়নি। ফতুল্লার তক্কার মাঠের এবি নিট অ্যাপারেলস নামের ওই কারখানার শ্রমিকরা ক্ষুব্ধ। সোমবার সকালে তারা কারখানায় এসে গেটে তালা ঝুলতে দেখে হতাশ হন। এরপর কারখানার মালিক আমির খানসহ মালিক পক্ষের লোকজনদের মোবাইলে ফোন করলেও তা বন্ধ পেয়েছেন। ফলে হতাশ শ্রমিকরা কান্নায় ভেঙে পড়েন।

শ্রমিকরা জানান, কারখানায় ২শ’ শ্রমিক রোববার রাত পর্যন্ত কাজ করেছেন এবং রাতেই মালিক সেই তৈরি পোশাক শিপমেন্ট দিয়েছেন। মালিক আমির খান রাতে সব শ্রমিককে বলেছেন, সকালে এসে সব পাওনা পরিশোধ করবেন, বোনাস দেবেন। সকালে এসে দেখি কারখানার গেটে তালা ঝুলছে। কারখানার জমি ও ভবনের মালিক ইউসুফ মিয়া জানান, আমির খান নামে ব্যবসায়ী প্রতি মাসে ৯৫ হাজার টাকা পরিশোধের শর্তে তার তিন তলা ভবন ভাড়া নিয়েছেন। ৪ মাস ধরে ভাড়া দেই-দিচ্ছি বলে ঘোরাচ্ছেন। রোববারও বলেছেন, শিপমেন্ট দিয়ে ভাড়া পরিশোধ করবেন। এখন গেটে তালা।

কারখানার ঝাড়ুদার মর্জিনা বেগম বলেন, ৫ হাজার টাকা বেতনে কাজ করে অসুস্থ স্বামী ও ৬ শিশু সন্তানের সংসার চালাই। দুই মাস ধরে মালিক বেতন দেন না। তারপরও আশায় ছিলাম ঈদের আগে দুই মাসের বেতন ও বোনাস পাব। এ টাকা দিয়ে সন্তানদের নতুন জামা-কাপড় কিনে দেব। অনেক আশা আর স্বপ্ন নিয়ে সকালে কারখানায় আসি। কিন্তু স্বপ্ন এখন হতাশায় পরিণত হল। কান্না ছাড়া এখন কিছুই করার নেই। বাড়ি গিয়ে সন্তানদের কি বলব। ভিক্ষে করে এতদিন দু’মুঠো খাবার জুটিয়েছি। নারী শ্রমিক রুবি বেগম বলেন, মাসে ৬ হাজার টাকা বেতনে কাজ করি। দুই মাসে দোকান বাকি পড়েছে। ঘর ভাড়া দিতে পারিনি। এখন কান্না ছাড়া কি করতে পারি। ঘটনাস্থল থেকে শিল্প পুলিশের পরিদর্শক মাসুদ জানান, মালিক বেতন নিয়ে আসবেন, এ আশায় কারখানার সামনে শ্রমিকরা শান্ত হয়ে বসে আছেন। মালিকের সন্ধান পেতে তিনি নানা ভাবে চেষ্টা করেছেন।

কিন্তু কোথাও সন্ধান পাননি। অসহায় শ্রমিকদের দেখে কষ্ট হচ্ছে। বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের জানানো হয়েছে। কারখানার মালিক আমির খানের দুটি মোবাইল নম্বরে একাধিকবার ফোন দিয়ে তা বন্ধ পাওয়া গেছে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: jugantor.mai[email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×