মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক

১১ হাজার অবৈধ বিদেশিকে ফেরত পাঠাবে বাংলাদেশ

এসপি হারুনের বিরুদ্ধে তদন্ত হবে -স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

  যুগান্তর রিপোর্ট ০৮ নভেম্বর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ভিসার মেয়াদ শেষ হওয়ার পরও বাংলাদেশে অবৈধভাবে অবস্থান করা প্রায় ১১ হাজার বিদেশিকে নিজ খরচে ফেরত পাঠানোর পরিকল্পনা করেছে সরকার। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির সভা শেষে বৃহস্পতিবার সাংবাদিকদের সামনে এ তথ্য জানান কমিটির সভাপতি ও মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক। এ সময় নারায়ণগঞ্জের বহুল আলোচিত পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ হারুন অর রশীদের বিষয়ে তদন্ত হবে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।

অবৈধ বিদেশিদের প্রসঙ্গে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী বলেন, অনেক বিদেশি নাগরিক এ দেশে আসার পর ভিসার মেয়াদ শেষ হলেও যান না। তারা মেয়াদোত্তীর্ণ অবস্থায় আছেন। আমাদের গত সভায় সিদ্ধান্ত হয়েছিল তাদের চিহ্নিত করার। গোয়েন্দা সংস্থা তাদের চিহ্নিত করেছে। এখন সমস্যা দেখা দিয়েছে, ফেরত যাওয়ার টাকাও তাদের কাছে নেই। সরকারের কাছে অনুরোধ করব, কিছু টাকা বরাদ্দ দেয়ার জন্য। যাতে অবৈধভাবে বসবাসকারীদের তাদের দেশে ফেরত পাঠানো যায়। কত সংখ্যক অবৈধ বিদেশি বাংলাদেশে আছে- জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ১১ হাজারের মতো। এরা বিভিন্ন দেশের, বিশেষ করে, আফ্রিকার দেশগুলোরই বেশি; নাইজেরিয়া, তানজানিয়া- এসব দেশের নাগরিক। মূলত ক্রিমিনাল টাইপের লোকই থেকে যায়। রোহিঙ্গাদের পাসপোর্টের বিষয়ে তিনি বলেন, রোহিঙ্গারা অতীতে বাংলাদেশি পাসপোর্ট নিয়ে বিদেশে গেছে। আগের মিটিংয়ে সিদ্ধান্ত হয়েছিল যাতে পাসপোর্ট না হয়। এখন থেকে কোনো রোহিঙ্গা বাংলাদেশি পাসপোর্ট পাবে না।

অবৈধ বিদেশিদের নিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, এরা ভিসা নিয়েই ঢুকেছিল। তাদের ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে কিংবা অবৈধভাবে রয়েছে কিংবা কোনো ক্রাইমে জড়িত হয়েছে। তারা আমাদের জেলখানায় রয়েছে। তাদের কারাদণ্ডের মেয়াদ শেষ হলেও দূতাবাসগুলোতে যোগাযোগ করার পরও নিয়ে যাচ্ছে না। যারা ব্যবসা-বাণিজ্য করতে আসে তাদের অজান্তেই ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে- এমন সংখ্যাও আছে। কতজন অবৈধ বিদেশি কারাগারে রয়েছেন- এ বিষয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আরেক দিন জানাব।

এদিকে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, নারায়ণগঞ্জের বহুল আলোচিত এসপি হারুনের বিষয়ে তদন্ত হবে। গত ৬ নভেম্বর নারায়ণগঞ্জে এক অনুষ্ঠানে এসপি হারুন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে সালাম দিলে তিনি মুখ ফিরিয়ে নেন- এ ধরনের একটি ভিডিও অনলাইন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। এ বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমার মনে হয়, এটা অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ ব্যাপার। সুনির্দিষ্ট অভিযোগ আছে উনি চাঁদাবাজি করেছেন, উঠিয়ে নিয়ে গেছেন- এ ব্যাপারে আসাদুজ্জামান বলেন, তদন্তের পরেই খোলাসা করব। তদন্ত শুরু হয়েছে কি না, জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সেটা তো শুরু হবেই। আমরা মাত্রই তো তাকে সরিয়ে এনেছি। গত ৩ নভেম্বর পুলিশ অধিদফতরে পুলিশ সুপার (টিআর) পদে বদলি করা হয় হারুনকে। ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে নারায়ণগঞ্জ জেলার এসপি হিসেবে নিয়োগ পেয়েছিলেন তিনি। এর আগে তিনি গাজীপুর জেলার এসপির দায়িত্ব পালন করেন।

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রীর সভাপতিত্বে সভায় আইনমন্ত্রী আনিসুল হক, বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন, নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ, সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কেএম খালিদসহ অন্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×