মানুষ বাঁচাতে সরকার কোনো পদক্ষেপ নেয়নি
jugantor
মানুষ বাঁচাতে সরকার কোনো পদক্ষেপ নেয়নি
-রিজভী

  যুগান্তর রিপোর্ট ও শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি  

১৬ মে ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

করোনা মহামারীতে মানুষকে বাঁচাতে বা সচেতন করতে সরকার কোনো পদক্ষেপ নেয়নি বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। তিনি বলেন, বিশ্বব্যাপী করোনা মহাদুর্যোগ ২১০ দেশে আঘাত হেনেছে। এটির কোনো ওষুধ তৈরি হয়নি। সচেতনতা ও সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে করোনা মোকাবেলায়। কিন্তু অত্যন্ত দুঃখের বিষয় সরকার কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। উল্টো লকডাউন খুলে দিয়েছে। একবার বলেন, লকডাউন শিথিল করা হয়েছে, আবার বলেন লকডাউন চলবে। তারা মানুষকে বিভ্রান্তিতে ফেলছেন।

শুক্রবার সকালে মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগর উপজেলার সাতগাঁও এলাকায় কেন্দ্রীয় বিএনপির স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরাফত আলী সপুর উদ্যোগে খাদ্যসামগ্রী বিতরণকালে তিনি এ কথা বলেন।

রিজভী বলেন, সরকার কয়েকটি ফ্লাইওভার তৈরি করে উন্নয়নে ভাসিয়ে দিচ্ছেন বলে প্রচার করছে। হাসপাতাল নেই কেন, ভেন্টিলেটর নেই কেন। দেশের ৯০ শতাংশ হাসপাতালে এ ব্যবস্থা। তাহলে মানুষ বাঁচবে না মরবে। সরকার মানুষ বাঁচানোর কোনো কাজ করেনি। প্রধানমন্ত্রীকে উদ্দেশ করে তিনি বলেন, মানুষ বাঁচানোর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা করেননি। হাসপাতাল করেননি। মানুষ বাঁচানোর জন্য উন্নত যন্ত্রপাতি আনেননি। সাংবাদিক, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা মারা যাচ্ছে। সরকারের কোনো পদক্ষেপ নেই।

রিজভী বলেন, এরকম দুর্যোগ পরিস্থিতিতে আমাদের সামর্থ্য অনুযায়ী জনগণের পাশে আছি। আমরা শান্তিপূর্ণভাবে কাজ করতে পারছি না। আমাদের নেতাকর্মীদের গুম করা হচ্ছে। মামলা দিয়ে গ্রেফতার করা হচ্ছে। অর্থাৎ জনগণকে সহায়তার জন্য বিরোধী দলগুলো এগিয়ে যাবে সেখানে তারা বাধা দিচ্ছে।

সরকার করোনা মোকাবেলায় ব্যর্থ বলে মন্তব্য করে তিনি বলেন, আমরা সব সময় বলে আসছি সবাই মিলে করোনা প্রতিরোধ করি।

মানুষ বাঁচাতে সরকার কোনো পদক্ষেপ নেয়নি

-রিজভী
 যুগান্তর রিপোর্ট ও শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি 
১৬ মে ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

করোনা মহামারীতে মানুষকে বাঁচাতে বা সচেতন করতে সরকার কোনো পদক্ষেপ নেয়নি বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। তিনি বলেন, বিশ্বব্যাপী করোনা মহাদুর্যোগ ২১০ দেশে আঘাত হেনেছে। এটির কোনো ওষুধ তৈরি হয়নি। সচেতনতা ও সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে করোনা মোকাবেলায়। কিন্তু অত্যন্ত দুঃখের বিষয় সরকার কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। উল্টো লকডাউন খুলে দিয়েছে। একবার বলেন, লকডাউন শিথিল করা হয়েছে, আবার বলেন লকডাউন চলবে। তারা মানুষকে বিভ্রান্তিতে ফেলছেন।

শুক্রবার সকালে মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগর উপজেলার সাতগাঁও এলাকায় কেন্দ্রীয় বিএনপির স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরাফত আলী সপুর উদ্যোগে খাদ্যসামগ্রী বিতরণকালে তিনি এ কথা বলেন।

রিজভী বলেন, সরকার কয়েকটি ফ্লাইওভার তৈরি করে উন্নয়নে ভাসিয়ে দিচ্ছেন বলে প্রচার করছে। হাসপাতাল নেই কেন, ভেন্টিলেটর নেই কেন। দেশের ৯০ শতাংশ হাসপাতালে এ ব্যবস্থা। তাহলে মানুষ বাঁচবে না মরবে। সরকার মানুষ বাঁচানোর কোনো কাজ করেনি। প্রধানমন্ত্রীকে উদ্দেশ করে তিনি বলেন, মানুষ বাঁচানোর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা করেননি। হাসপাতাল করেননি। মানুষ বাঁচানোর জন্য উন্নত যন্ত্রপাতি আনেননি। সাংবাদিক, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা মারা যাচ্ছে। সরকারের কোনো পদক্ষেপ নেই।

রিজভী বলেন, এরকম দুর্যোগ পরিস্থিতিতে আমাদের সামর্থ্য অনুযায়ী জনগণের পাশে আছি। আমরা শান্তিপূর্ণভাবে কাজ করতে পারছি না। আমাদের নেতাকর্মীদের গুম করা হচ্ছে। মামলা দিয়ে গ্রেফতার করা হচ্ছে। অর্থাৎ জনগণকে সহায়তার জন্য বিরোধী দলগুলো এগিয়ে যাবে সেখানে তারা বাধা দিচ্ছে।

সরকার করোনা মোকাবেলায় ব্যর্থ বলে মন্তব্য করে তিনি বলেন, আমরা সব সময় বলে আসছি সবাই মিলে করোনা প্রতিরোধ করি।