শিশুদের সাধারণ টিকাদান অব্যাহত রাখুন
jugantor
শিশুদের সাধারণ টিকাদান অব্যাহত রাখুন
-রাবাব ফাতিমা

  যুগান্তর রিপোর্ট  

০৫ জুলাই ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ইউনিসেফ নির্বাহী বোর্ডের সভাপতি ও জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা বলেছেন, কোভিড-১৯ মহামারীকালে শিশুদের সাধারণ টিকাদান কর্মসূচি অব্যাহত রাখতে হবে। একই সঙ্গে নিরাপদভাবে স্কুলসমূহ পুনরায় চালু করা, শিক্ষার্থীদের ডিজিটাল সুযোগ-সুবিধা ও সংযোগ নিশ্চিত করা, নিরাপদ পানি ও পয়ঃনিষ্কাশন নিশ্চিত করা, উন্নত মানসিক স্বাস্থ্যসেবা প্রদান এবং শিশুদের মনো-সামাজিক উন্নয়নের জন্য কর্মসূচি তৈরি করাই হচ্ছে ইউনিসেফের এ সময়ের অগ্রাধিকার। শনিবার ইউনিসেফ নির্বাহী বোর্ডের ৪ দিনব্যাপী বার্ষিক অধিবেশনের শেষ দিনে বোর্ড সভাপতি হিসেবে সমাপনী বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রাবাব ফাতিমা বলেন, বিশ্বব্যাপী শিশুদের রক্ষার যে ম্যান্ডেট ইউনিসেফের রয়েছে তা বাস্তবায়নে প্রতিষ্ঠানটিকে অব্যাহতভাবে আর্থিক সহায়তা দিতে হবে, এটি অত্যন্ত প্রয়োজন। এছাড়া মানবিক ও উন্নয়ন কর্মসূচিসমূহের সমন্বয় সাধনের জন্য ইউনিসেফের দীর্ঘমেয়াদি তহবিলের প্রয়োজনীয়তার কথাও তুলে ধরেন বোর্ড সভাপতি রাষ্ট্রদূত ফাতিমা। সমাপনী অধিবেশনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ইউনিসেফ গ্লোবাল স্টাফ অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান নোমা ওয়েন্স-ইবি ও ইউনিসেফের নির্বাহী পরিচালক মিজ্ হেনরিটা এইচ ফোর।

শিশুদের সাধারণ টিকাদান অব্যাহত রাখুন

-রাবাব ফাতিমা
 যুগান্তর রিপোর্ট 
০৫ জুলাই ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ইউনিসেফ নির্বাহী বোর্ডের সভাপতি ও জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা বলেছেন, কোভিড-১৯ মহামারীকালে শিশুদের সাধারণ টিকাদান কর্মসূচি অব্যাহত রাখতে হবে। একই সঙ্গে নিরাপদভাবে স্কুলসমূহ পুনরায় চালু করা, শিক্ষার্থীদের ডিজিটাল সুযোগ-সুবিধা ও সংযোগ নিশ্চিত করা, নিরাপদ পানি ও পয়ঃনিষ্কাশন নিশ্চিত করা, উন্নত মানসিক স্বাস্থ্যসেবা প্রদান এবং শিশুদের মনো-সামাজিক উন্নয়নের জন্য কর্মসূচি তৈরি করাই হচ্ছে ইউনিসেফের এ সময়ের অগ্রাধিকার। শনিবার ইউনিসেফ নির্বাহী বোর্ডের ৪ দিনব্যাপী বার্ষিক অধিবেশনের শেষ দিনে বোর্ড সভাপতি হিসেবে সমাপনী বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রাবাব ফাতিমা বলেন, বিশ্বব্যাপী শিশুদের রক্ষার যে ম্যান্ডেট ইউনিসেফের রয়েছে তা বাস্তবায়নে প্রতিষ্ঠানটিকে অব্যাহতভাবে আর্থিক সহায়তা দিতে হবে, এটি অত্যন্ত প্রয়োজন। এছাড়া মানবিক ও উন্নয়ন কর্মসূচিসমূহের সমন্বয় সাধনের জন্য ইউনিসেফের দীর্ঘমেয়াদি তহবিলের প্রয়োজনীয়তার কথাও তুলে ধরেন বোর্ড সভাপতি রাষ্ট্রদূত ফাতিমা। সমাপনী অধিবেশনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ইউনিসেফ গ্লোবাল স্টাফ অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান নোমা ওয়েন্স-ইবি ও ইউনিসেফের নির্বাহী পরিচালক মিজ্ হেনরিটা এইচ ফোর।