আল আকসা মসজিদ চত্বরে হামলার নিন্দা জানিয়েছে বাংলাদেশ
jugantor
আল আকসা মসজিদ চত্বরে হামলার নিন্দা জানিয়েছে বাংলাদেশ

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

১১ মে ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

আল আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে নিরীহ ভক্ত ও বেসামরিক নাগরিকদের ওপর সন্ত্রাসী প্রকৃতির হামলা ও সহিংসতার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে বাংলাদেশ। সোমবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানানো হয়। ডেপুটি প্রিন্সিপাল ইনফরমেশন কর্মকর্তা মো. তৌহিদুল স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে এই ধরনের সন্ত্রাসী প্রকৃতির আক্রমণ বন্ধ করার জন্য টেকসই ব্যবস্থা গ্রহণের আহ্বান জানায়।

উল্লেখ্য, সোমবার সকালে পবিত্র আল আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে ফিলিস্তিনি মুসলিমদের ওপর তাণ্ডব চালিয়েছে ইসরায়েলি বাহিনী। তারা ফিলিস্তিনিদের ওপর রাবার বুলেট, টিয়ার গ্যাস, সাউন্ড গ্রেনেড নিক্ষেপ করে। এতে কয়েকশ’ ফিলিস্তিনি আহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে কারও কারও অবস্থা গুরুতর বলে জানিয়েছে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম। ফিলিস্তিনি রেড ক্রিসেন্ট কর্তৃপক্ষ এক সংক্ষিপ্ত ব্রিফিংয়ে জানিয়েছে, সহিংসতায় কয়েকশ’ মানুষ আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে অন্তত ৫০ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এ ধরনের সন্ত্রাসী প্রকৃতির হামলা মানবিক মানদণ্ড, মানবাধিকার, আন্তর্জাতিক আইন এবং চুক্তি লঙ্ঘনের শামিল। সেখানে আরও বলা হয়, ১৯৬৭-এর পূর্বের সীমান্ত এবং পূর্ব জেরুজালেমকে এর রাজধানী হিসাবে দ্বিরাষ্ট্রীয় সমাধানের ভিত্তিতে প্যালেস্টাইন রাজ্য প্রতিষ্ঠার পক্ষে বাংলাদেশ তার অবস্থান পুনরায় নিশ্চিত করে।

১৯৬৭-এর পূর্বের সীমান্ত এবং পূর্ব জেরুজালেমকে এর রাজধানী হিসাবে দ্বিরাষ্ট্রীয় সমাধানের ভিত্তিতে প্যালেস্টাইন রাজ্য প্রতিষ্ঠার পক্ষে বাংলাদেশ তার অবস্থান পুনরায় নিশ্চিত করে। পাশাপাশি জাতিসংঘের বিভিন্ন রেজ্যুলিউশনের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠিত হিসাবে একটি কার্যকর প্যালেস্টাইন রাষ্ট্র ও আঞ্চলিক অখণ্ডতায় একটি সার্বভৌম ও স্বাধীন স্বদেশের জন্য ফিলিস্তিনের অবিচ্ছেদ্য অধিকারগুলো সমর্থন করে বাংলাদেশ।

আল আকসা মসজিদ চত্বরে হামলার নিন্দা জানিয়েছে বাংলাদেশ

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
১১ মে ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

আল আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে নিরীহ ভক্ত ও বেসামরিক নাগরিকদের ওপর সন্ত্রাসী প্রকৃতির হামলা ও সহিংসতার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে বাংলাদেশ। সোমবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানানো হয়। ডেপুটি প্রিন্সিপাল ইনফরমেশন কর্মকর্তা মো. তৌহিদুল স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে এই ধরনের সন্ত্রাসী প্রকৃতির আক্রমণ বন্ধ করার জন্য টেকসই ব্যবস্থা গ্রহণের আহ্বান জানায়।

উল্লেখ্য, সোমবার সকালে পবিত্র আল আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে ফিলিস্তিনি মুসলিমদের ওপর তাণ্ডব চালিয়েছে ইসরায়েলি বাহিনী। তারা ফিলিস্তিনিদের ওপর রাবার বুলেট, টিয়ার গ্যাস, সাউন্ড গ্রেনেড নিক্ষেপ করে। এতে কয়েকশ’ ফিলিস্তিনি আহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে কারও কারও অবস্থা গুরুতর বলে জানিয়েছে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম। ফিলিস্তিনি রেড ক্রিসেন্ট কর্তৃপক্ষ এক সংক্ষিপ্ত ব্রিফিংয়ে জানিয়েছে, সহিংসতায় কয়েকশ’ মানুষ আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে অন্তত ৫০ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এ ধরনের সন্ত্রাসী প্রকৃতির হামলা মানবিক মানদণ্ড, মানবাধিকার, আন্তর্জাতিক আইন এবং চুক্তি লঙ্ঘনের শামিল। সেখানে আরও বলা হয়, ১৯৬৭-এর পূর্বের সীমান্ত এবং পূর্ব জেরুজালেমকে এর রাজধানী হিসাবে দ্বিরাষ্ট্রীয় সমাধানের ভিত্তিতে প্যালেস্টাইন রাজ্য প্রতিষ্ঠার পক্ষে বাংলাদেশ তার অবস্থান পুনরায় নিশ্চিত করে।

১৯৬৭-এর পূর্বের সীমান্ত এবং পূর্ব জেরুজালেমকে এর রাজধানী হিসাবে দ্বিরাষ্ট্রীয় সমাধানের ভিত্তিতে প্যালেস্টাইন রাজ্য প্রতিষ্ঠার পক্ষে বাংলাদেশ তার অবস্থান পুনরায় নিশ্চিত করে। পাশাপাশি জাতিসংঘের বিভিন্ন রেজ্যুলিউশনের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠিত হিসাবে একটি কার্যকর প্যালেস্টাইন রাষ্ট্র ও আঞ্চলিক অখণ্ডতায় একটি সার্বভৌম ও স্বাধীন স্বদেশের জন্য ফিলিস্তিনের অবিচ্ছেদ্য অধিকারগুলো সমর্থন করে বাংলাদেশ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন