ট্রাফিক সার্জেন্ট প্রত্যাহার
jugantor
সাইনবোর্ডে ব্যাংক কর্মকর্তাকে মারধর
ট্রাফিক সার্জেন্ট প্রত্যাহার

  নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি  

২৭ জুলাই ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

নারায়ণগঞ্জের সাইনবোর্ড এলাকায় আবু সালেহ নামে এক বেসরকারি ব্যাংক কর্মকর্তাকে মারধর করার অভিযোগ প্রত্যাহার করা হয়েছে ট্রাফিক পুলিশের সার্জেন্ট মো. শফিককে। রোববার সকালে মারধরের শিকার হন ওই ব্যাংক কর্মকর্তা। এই ঘটনায় সার্জেন্ট শফিককে প্রত্যাহার করে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ লাইনসে সংযুক্ত করার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) সালেহ উদ্দিন আহমেদ।

ভুক্তভোগী ব্যাংক কর্মকর্তা আবু সালেহ জানান, ডাচ বাংলা ব্যাংকের নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার শাখায় কর্মরত রয়েছেন তিনি। তবে তার বাড়ি ফতুল্লা এলাকায়। চলমান কড়া বিধিনিষেধের মধ্যেও প্রতিষ্ঠান চালু থাকায় রোববার সকালে বাসা থেকে মোটরসাইকেল চালিয়ে কর্মস্থলে যাচ্ছিলন। পথিমধ্যে সাইনবোর্ড এলাকায় চেকপোস্টে তাকে থামায় কর্তব্যরত পুলিশ সদস্যরা। পরে সেখানে দায়িত্বরত ট্রাফিক পুলিশের সার্জেন্ট শফিক তাকে উল্টো দিক দিয়ে আসার অপরাধে ছয় হাজার টাকা জরিমানা করেন। ব্যাংক কর্মকর্তার অভিযোগ, কোন ধারায় তাকে জরিমানা করা হয়েছে তা পুলিশ কর্মকর্তা শফিকের কাছে জানতে চেয়েছিলেন তিনি। এ কথার পরপরই সার্জেন্ট শফিক তার গায়ে হাত তোলেন। পরে সেখানে থাকা আরও কয়েকজন পুলিশ সদস্য তাকে মারধর করেন। কিছুক্ষণ পর পুলিশের এএসপি সালেহ উদ্দিন আহমেদ সেখানে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে এএসপি সালেহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ব্যাংক কর্মকর্তা আবু সালেহ উল্টো পথ দিয়ে আসায় তাকে জরিমানা করা হয়। একপর্যায়ে সার্জেন্ট শফিকও অপেশাদার আচরণ করে ব্যাংক কর্মকর্তা আবু সালেহর গায়ে হাতও তোলেন। সার্জেন্ট শফিক গায়ে হাত তুলে অপেশাদার আচরণ করেছেন। প্রত্যাহারের বিষয়টি নিশ্চিত করে তিনি বলেন, তদন্ত সাপেক্ষে শফিকের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সাইনবোর্ডে ব্যাংক কর্মকর্তাকে মারধর

ট্রাফিক সার্জেন্ট প্রত্যাহার

 নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি 
২৭ জুলাই ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

নারায়ণগঞ্জের সাইনবোর্ড এলাকায় আবু সালেহ নামে এক বেসরকারি ব্যাংক কর্মকর্তাকে মারধর করার অভিযোগ প্রত্যাহার করা হয়েছে ট্রাফিক পুলিশের সার্জেন্ট মো. শফিককে। রোববার সকালে মারধরের শিকার হন ওই ব্যাংক কর্মকর্তা। এই ঘটনায় সার্জেন্ট শফিককে প্রত্যাহার করে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ লাইনসে সংযুক্ত করার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) সালেহ উদ্দিন আহমেদ।

ভুক্তভোগী ব্যাংক কর্মকর্তা আবু সালেহ জানান, ডাচ বাংলা ব্যাংকের নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার শাখায় কর্মরত রয়েছেন তিনি। তবে তার বাড়ি ফতুল্লা এলাকায়। চলমান কড়া বিধিনিষেধের মধ্যেও প্রতিষ্ঠান চালু থাকায় রোববার সকালে বাসা থেকে মোটরসাইকেল চালিয়ে কর্মস্থলে যাচ্ছিলন। পথিমধ্যে সাইনবোর্ড এলাকায় চেকপোস্টে তাকে থামায় কর্তব্যরত পুলিশ সদস্যরা। পরে সেখানে দায়িত্বরত ট্রাফিক পুলিশের সার্জেন্ট শফিক তাকে উল্টো দিক দিয়ে আসার অপরাধে ছয় হাজার টাকা জরিমানা করেন। ব্যাংক কর্মকর্তার অভিযোগ, কোন ধারায় তাকে জরিমানা করা হয়েছে তা পুলিশ কর্মকর্তা শফিকের কাছে জানতে চেয়েছিলেন তিনি। এ কথার পরপরই সার্জেন্ট শফিক তার গায়ে হাত তোলেন। পরে সেখানে থাকা আরও কয়েকজন পুলিশ সদস্য তাকে মারধর করেন। কিছুক্ষণ পর পুলিশের এএসপি সালেহ উদ্দিন আহমেদ সেখানে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে এএসপি সালেহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ব্যাংক কর্মকর্তা আবু সালেহ উল্টো পথ দিয়ে আসায় তাকে জরিমানা করা হয়। একপর্যায়ে সার্জেন্ট শফিকও অপেশাদার আচরণ করে ব্যাংক কর্মকর্তা আবু সালেহর গায়ে হাতও তোলেন। সার্জেন্ট শফিক গায়ে হাত তুলে অপেশাদার আচরণ করেছেন। প্রত্যাহারের বিষয়টি নিশ্চিত করে তিনি বলেন, তদন্ত সাপেক্ষে শফিকের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন