আশুলিয়ায় ইউপি সদস্যসহ ৮ জন গ্রেফতার
jugantor
বাড়িতে হামলা ভাঙচুর
আশুলিয়ায় ইউপি সদস্যসহ ৮ জন গ্রেফতার

  আশুলিয়া (ঢাকা) প্রতিনিধি  

১১ আগস্ট ২০২২, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

আশুলিয়ায় ইউপি সদস্যসহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে একটি বাড়িতে হামলা করে ভাঙচুর, মারধর ও লুটপাটের অভিযোগ ওঠেছে। আশুলিয়ার পাথালিয়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এই ঘটনা ঘটে। পরে ভুক্তভোগীর লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে ওই ওয়ার্ডের সদস্য সফিউল আলম সোহাগসহ ৮ জনকে গ্রেফতার করেছেন পুলিশ। মঙ্গলবার রাতে আশুলিয়ার নিরিবিলি এলাকায় বকুল আক্তারের বাড়িতে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে। বুধবার তাওহীদ নামের এক কিশোর বাদী হয়ে আশুলিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের।

মামলা সূত্রে জানা যায়, তাওহীদ সরদার নামে এক কিশোর মঙ্গলবার বিকালে বন্ধু শাওনকে নিয়ে নিরিবিলি মুক্তধারা মাঠে বসে আড্ডা দিচ্ছিলেন। এ সময় কুরগাঁও এলাকার ২০ থেকে ২৫ জন ছেলে-মেয়ে সেখানে আসে। পরে তারাও সেখানে বসে আড্ডা দিচ্ছিল। এ সময় তাদের একজন ডিস্টার্ব হচ্ছে জানিয়ে তাদের (তাওহীদ) সেখান থেকে চলে যেতে বলে। তখন তার বন্ধু শাওন এর প্রতিবাদ করলে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। এক পর্যায়ে কিছু বুঝে ওঠার আগেই ফাহিম নামের একটি ছেলে তাদেরকে ক্রিকেট ব্যাট দিয়ে পিটাতে থাকে। এ সময় শাওন বড় ভাইকে ফোন করে ডেকে আনলে বড় ভাই ফাহিমকে ধরে ফেলে। এ সময় বাকিরা পালিয়ে যায়। পরে ফাহিমকে ধরে আমরা বাড়িতে নিয়ে যাই। এ ঘটনার জেরে ওই পক্ষের হয়ে ইউপি সদস্য সোহাগ লোকজন নিয়ে তাদের বাড়িতে হামলা চালায় বলে অভিযোগ করেন তাওহীদ।

বাড়িতে হামলা ভাঙচুর

আশুলিয়ায় ইউপি সদস্যসহ ৮ জন গ্রেফতার

 আশুলিয়া (ঢাকা) প্রতিনিধি 
১১ আগস্ট ২০২২, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

আশুলিয়ায় ইউপি সদস্যসহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে একটি বাড়িতে হামলা করে ভাঙচুর, মারধর ও লুটপাটের অভিযোগ ওঠেছে। আশুলিয়ার পাথালিয়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এই ঘটনা ঘটে। পরে ভুক্তভোগীর লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে ওই ওয়ার্ডের সদস্য সফিউল আলম সোহাগসহ ৮ জনকে গ্রেফতার করেছেন পুলিশ। মঙ্গলবার রাতে আশুলিয়ার নিরিবিলি এলাকায় বকুল আক্তারের বাড়িতে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে। বুধবার তাওহীদ নামের এক কিশোর বাদী হয়ে আশুলিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের।

মামলা সূত্রে জানা যায়, তাওহীদ সরদার নামে এক কিশোর মঙ্গলবার বিকালে বন্ধু শাওনকে নিয়ে নিরিবিলি মুক্তধারা মাঠে বসে আড্ডা দিচ্ছিলেন। এ সময় কুরগাঁও এলাকার ২০ থেকে ২৫ জন ছেলে-মেয়ে সেখানে আসে। পরে তারাও সেখানে বসে আড্ডা দিচ্ছিল। এ সময় তাদের একজন ডিস্টার্ব হচ্ছে জানিয়ে তাদের (তাওহীদ) সেখান থেকে চলে যেতে বলে। তখন তার বন্ধু শাওন এর প্রতিবাদ করলে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। এক পর্যায়ে কিছু বুঝে ওঠার আগেই ফাহিম নামের একটি ছেলে তাদেরকে ক্রিকেট ব্যাট দিয়ে পিটাতে থাকে। এ সময় শাওন বড় ভাইকে ফোন করে ডেকে আনলে বড় ভাই ফাহিমকে ধরে ফেলে। এ সময় বাকিরা পালিয়ে যায়। পরে ফাহিমকে ধরে আমরা বাড়িতে নিয়ে যাই। এ ঘটনার জেরে ওই পক্ষের হয়ে ইউপি সদস্য সোহাগ লোকজন নিয়ে তাদের বাড়িতে হামলা চালায় বলে অভিযোগ করেন তাওহীদ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন